channel 24

সর্বশেষ

  • সমুদ্র সৈকতে মৃত ডলফিনের শরীরে ছিল আঘাতের চিহ্ন

  • দেশে করোনায় ২৪ ঘন্টায় প্রাণহানি ৪, নতুন করে শনাক্ত ২৯: স্বাস্থ্যমন্ত্রী

  • নারায়ণগঞ্জ সিটি লকডাউন ঘোষণা

  • কোন জেলায় কতজন করোনায় আক্রান্ত

  • করোনায় আক্রান্ত নিউইয়র্কের ব্রোঞ্জ চিড়িয়াখানার বাঘ

  • সংকটময় মুহূর্তে ঐকমত্যের তাগিদ রাজনৈতিক দলগুলোর

  • জরুরি অবস্থা জারি করতে যাচ্ছে জাপান

  • রক্তের গ্রুপ নির্ণয়ে ভুল: এক শিশুর মৃত্যু

  • করোনার থাবায় অর্থনীতিতে দুরাবস্থার শঙ্কা

  • করোনায় আক্রান্ত হয়ে দুদকের এক পরিচালকের মৃত্যু

  • মাদারীপুরে সদর থানার এক নারী এসআই কে কুপিয়ে হত্যার চেষ্টা

  • আজ থেকে ১৪ এপ্রিল পর্যন্ত ৮টি ইপিজেডে সাধারণ ছুটি: বেপজা

  • টেকনাফে 'বন্দুকযুদ্ধে' নিহত ২, পুলিশের দাবি মাদক ব্যবসায়ী

  • করোনা: লিবিয়ার অন্তর্বর্তীকালীন সাবেক প্রধানমন্ত্রী জিব্রিলের মৃত্যু

  • করোনাভাইরাস: যুক্তরাজ্যের প্রধানমন্ত্রী হাসপাতালে ভর্তি

হাজী দানেশের শিক্ষার্থীদের ব্যাকটেরিয়ার জীবন রহস্য উন্মোচন

হাজী দানেশের শিক্ষার্থীদের ব্যাকটেরিয়ার জীবন রহস্য উন্মোচন

উদ্ভিদ ও মানবদেহের জন্য উপকারী ৭ টি ব্যাকটেরিয়ার জীবন রহস্য উন্মোচন করেছেন দিনাজপুর হাজী মোহাম্মদ দানেশ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা। যাতে করে ফসলে প্রয়োগ কমবে ক্ষতিকর কীটনাশকের। নষ্ট হবে আর্সেনিকসহ ভারী ধাতুর উপাদান।

প্রায় তিন বছরের গবেষণার পর মিলেছে সফলতা। উদ্ভিদ ও মানবদেহের জন্য উপকারী ৭ টি ব্যাকটেরিয়ার জীবন রহস্য উন্মোচন করেছেন দিনাজপুর হাজী মোহাম্মদ দানেশ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা।

বিশ্ববিদ্যালয়টির বায়োকেমিস্ট্রি এন্ড মলিকুলার বায়োলজি ল্যাবে গবেষণা চালানো হয় ৮০টি ব্যাকটেরিয়ার উপর। এখন পর্যন্ত সফলতা মিলেছে ৭টিতে। যেগুলো গাছে দিলে বাতাস থেকে মিলবে নাইট্রোজেন, ফসফরাস ও ফসফেট। কমবে ক্ষতিকর কীটনাশকের প্রয়োগ। নষ্ট হবে আর্সেনিকসহ ভারী ধাতুর উপাদান। এ গবেষণায় নেতৃত্ব দেন বিভাগের সহকারী অধ্যাপক ড. আজিজুল হক ও মাস্টার্স-পিএইচডির ১২ জন শিক্ষার্থী।

হাবিপ্রবির বায়োকেমিস্ট্রি এন্ড মলিকুলার বায়োলজি সহকারী অধ্যাপক ড. আজিজুল হক বলেন, এই ৭ টি ব্যাকটেরিয়ার জীবন রহস্য উন্মোচনের ফলে মানুষের স্বাস্থ্য ঝুঁকির বিষয়গুলি অনেকাংশে কমে আসবে।

হাবিপ্রবির বায়োকেমিস্ট্রি এন্ড মলিকুলার বায়োলজির চেয়ারম্যান ড. ইয়াসিন প্রধান বলেন, উপকারী এই ৭ টি ব্যাকটেরিয়ার জীবন রহস্য উন্মোচনের ফলে সারের ব্যবহার কমাতে সক্ষম হবে। নষ্ট হবে আর্সেনিকসহ ভারী ধাতুর উপাদান।

উদ্ভিদ বিজ্ঞানের শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা মনে করেন, গাছে ব্যাকটেরিয়ার প্রয়োগের এমন আবিস্কার এটাই প্রথম। ।

দিনাজপুর সরকারী কলেজের উদ্ভিদ বিজ্ঞানের সহযোগী অধ্যাপক দেলোয়ার হোসেন বলেন, গাছে ব্যাকটেরিয়ার প্রয়োগের এমন আবিস্কার এটাই প্রথম।

সম্প্রতি যুক্তরাষ্ট্রের ন্যাশনাল সেন্টার ফর বায়োটেকনোলজি ইনফরমেশন এ সব ব্যাকটেরিয়ার জিনোম সিকোয়েন্সগুলোর বৈধতা দিয়েছে।

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

তথ্য প্রযুক্তি খবর