channel 24

সর্বশেষ

  • নওগাঁয় পুলিশের সাথে 'বন্দুকযুদ্ধে' নিহত ২

  • পুলিশ হেফাজতে মৃত্যু: বরগুনার আমতলী থানার ওসির বিরুদ্ধে মামলা

  • ব্রিটিশ এয়ারওয়েজের ৩৬ হাজার কর্মীকে বরখাস্তের ঘোষণা

  • 'এ মাসের মধ্যেই করোনার অ্যান্টিবডি পরীক্ষা সম্ভব'

  • সাবেক ভূমিমন্ত্রী শামসুর রহমান ডিলু মারা গেছেন

  • ইসরাইলের স্বাস্থ্য মন্ত্রী এবং তার স্ত্রী করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত

  • এশিয়ার বৃহত্তম বস্তিতে ১জনের মৃত্যু, ৭ জনকে কোয়ারেন্টিনে

  • যুক্তরাষ্ট্রে করোনাভাইরাসে একদিনে রেকর্ড ১২৮২ জনের মৃত্যু

  • ইউরো, অলিম্পিকের পর এবার বাতিল উইম্বলডন

  • লকডাউনের অচেনা নগরীতে নেই ছিনতাইকারীর আতঙ্ক, প্রতিনিয়ত টহলে আইনশৃঙ্খলাবাহিনী

  • চার দেয়ালের মাঝে কেমন কাটছে শিশুদের দিনলিপি?

  • বিশ্বে মৃত্যু ছাড়ালো ৪৪ হাজার, আক্রান্ত প্রায় ৯ লাখ

  • চট্টগ্রামে বেসরকারি উদ্যোগে অস্থায়ী হাসপাতাল হচ্ছে

  • চট্টগ্রামে লকডাউনের ভুতুড়ে পরিবেশে সুযোগ নিচ্ছে ছিনতাইকারী

  • নিম্নআয়ের মানুষের সহায়তায় এগিয়ে এসেছে বিভিন্ন সংগঠন-সংস্থা

বাংলাদেশ পাকিস্তান ম্যাচের পরিসংখ্যান

বাংলাদেশ পাকিস্তান ম্যাচের পরিসংখ্যান

১৯৮৬ সাল থেকে শুরু। ওয়ানডেতে এবার ৩৭ বারের মতো দেখা হবার অপেক্ষায় বাংলাদেশ-পাকিস্তান। একদিনের ম্যাচে প্রথম প্রতিপক্ষের বিপক্ষে বিশ্বকাপে একবারই খেলেছে বাংলাদেশ। ১৯৯৯ আসরে টাইগারদের সেই জয় এখনও দেশের ক্রিকেট ইতিহাসে অন্যতম আলোচিত। ওয়ানডেতে জয়ের পরিসংখ্যানে পাকিস্তান এগিয়ে থাকলেও সাম্প্রতিক পরিসংখ্যানে শেষ চারে ম্যাচে জয়ী দল বাংলাদেশ।

১৯৯৭ সালে কুয়ালালামপুরের এই দৃশ্য যেমন বাংলাদেশের ক্রিকেট উত্থানের প্রতীক। ঠিক দু বছর পর নর্দাম্পটন দিয়েছিলো সামর্থ্যের প্রমান দিয়ে বিশ্ব ক্রিকেটে টিকে থাকার বিশ্বাস।

প্রথমবার বিশ্বকাপের মঞ্চে গিয়ে নিজেদের দ্বিতীয় জয়টা এসেছিলো  সেসময়ের মহাপরাক্রমশালী পাকিস্তানের বিপক্ষে, যারা সেই বিশ্বকাপেরই ফাইনালিস্ট দল। ৩১ মে'র সেই লড়াই-ই এখন পর্যন্ত বিশ্বকাপে পাকিস্তানের বিপক্ষে বাংলাদেশের একমাত্র দেখা। মাঝে পেরিয়েছে চার আসর। কখনও আর বিশ্ব আসরে মুখোমুখি হয়নি দুদল। সেই হিসাবে বিশ্বকাপে পাকিস্তানের বিপক্ষে শতভাগ সফল টিম বাংলাদেশ।

১৯৮৬ এশিয়া কাপে এই পাকিস্তানের বিপক্ষে ম্যাচ দিয়েই ওয়ানডে অভিযাত্রা শুরু হয়েছিলো। নর্দাম্পটন বীরত্বের আগে ওই ম্যাচটি সহ আরও ৫ দেখাতেও জুটেছিলো পরাজয়ের লজ্জা।

৯৯এর প্রেরণাকে অঘটনের গন্ডি থেকে অবশ্য সহসা বের করতে পারেনি বাংলাদেশ। এরপর হেরেছে টানা ২৫ ওয়ানডে। ওই সময়ের মধ্যে আছে, হৃদয়ভাঙ্গা ২০১২ এশিয়া কাপও। ফাইনালে পাকিস্তানের কাছে হেরে জেতা হয়নি এশিয়ান শ্রেষ্ঠত্ব। আর ২০১৪ এশিয়া কাপে ৩২৬ রান করেও হারতে হয়েছিলো আফ্রিদি ঝড়ে।  

এরপর নতুন ইতিহাস লেখা শুরু বাংলাদেশ। জয়ের সংখ্যাটা কম হলেও, দুদলের শেষ চার ম্যাচে জয়ী দল বাংলাদেশ।

২০১৫ তে হোম সিরিজে টানা তিন ম্যাচ জিতে পাকিস্তানকে হোয়াইটওয়াশ করেছে বাংলাদেশ। প্রথমবারের মতো পাকিস্তানকে টপকে র‍্যাঙ্কিংয়ে ওপরে উঠে যায় বাংলাদেশ। তাও আবারও ছয়ে। যা এখন পর্যন্ত টাইগারদের সর্বোচ্চ র‍্যাঙ্কিং।

দুদলের সবশেষ লড়াইটা জমেছিল সবশেষ এশিয়া কাপে। পাকিস্তানকে সুপার ফোর থেকে বিদায় করে শিরোপা লড়াইয়ে নিজেদের নিয়ে গিয়েছিল বাংলাদেশ।

৯৯ এ যেমন শেষ ম্যাচ ছিলো, এবারও  ইংল্যান্ড আসরের শেষ ম্যাচে মুখোমুখি হবার অপেক্ষায় দুদল। সেবার আগেই পরের রাউন্ড নিশ্চিত করে রাখা পাকিস্তান এবার সেমিতে যাবার কঠিন সমীকরণে। যেখানে বাংলাদেশের লক্ষ্য শুরুর মতই জয়ের তৃপ্তি নিয়ে শেষ করার।

 

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

স্পোর্টস 24 খবর