channel 24

সর্বশেষ

  • লকডাউনে কর্মস্থ‌লে আসতে বিশ্ববিদ্যালয়ের নির্দেশ, ব্যবস্থা নিল পুলিশ

  • অবকাঠামো উন্নয়নের অভাবে রাজস্ব হারাচ্ছে ভোমরা স্থল বন্দর

  • অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে প্রথম জয়ে প্রধানমন্ত্রীর অভিনন্দন

  • তবুও পা মাটিতেই রাখছেন মাহামুদউল্লাহ

  • আফগানিস্তানে ৭৭ তালেবান যোদ্ধাকে হত্যা

  • পথেঘাটে থাকেন বৃদ্ধ বাবা-মা, তিন ছেলে আটক

  • করোনাকালে রেমিট্যান্স ছাড়া অর্থনীতির সব ক্ষেত্রেই নেতিবাচক ধারা: সিপিডি

  • টি টোয়েন্টিতে অজিদের বিরুদ্ধে টাইগারদের প্রথম জয়

  • হিলিতে দ্বিগুন বেড়েছে কাচামরিচের দাম

  • রেকর্ড গড়া জয়ে অবশেষে মিলল সোনার হরিণের দেখা

  • ঢাবি প্রশ্নফাঁস: বহিষ্কৃত ছাত্র শাশ্বত কুমার ঘোষ গ্রেপ্তার

  • অস্ট্রেলিয়াকে হারাল বাংলাদেশ

  • ঢাকার উত্তরাংশসহ আশপাশের এলাকায় তীব্র গ্যাস সংকট

  • সূচকের ঊর্ধ্বমুখী ধারা ছিল ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে

  • অজি অধিনায়ককে ফিরিয়ে নাসুমের দ্বিতীয় আঘাত

ডিসিসির তিন মার্কেট : তিনশ কোটি টাকা লোপাট

ডিসিসির তিন মার্কেট : তিনশ কোটি টাকা লোপাট

কয়েক মাস আগে দুমড়ে মুচড়ে ভেঙ্গে দেয়া হয়েছিল গুলিস্তান এলাকার সিটি কর্পোরেশনের তিনটি মার্কেট। অনেকটা ঢাকঢোল পিটিয়ে তখন রাজধানীর গুলিস্তানে সিটি কর্পোরেশন মার্কেটে এই অবৈধ উচ্ছেদ কার্যক্রম শুরু হয়েছিল। উচ্ছেদ কার্যক্রম চলাকালে ব্যবসায়ীরা তখন অভিযোগ তুলেছিলেন বৈধতার নামে তাদের কাছ থেকে মোটা অংকের টাকা হাতিয়ে নেয়া হয়েছে।

ঘটনায় একটা নয় একাধিক মামলাও হয়েছে। কিন্তু ফলাফল শূন্য। মানে যাদের বিরুদ্ধে ব্যবসায়িদের অর্থ লোপাটের অভিযোগ, তারা একদিনের জন্যও শাস্তির মুখোমুখি হননি। এমনকি ক্ষতিগ্রস্ত ব্যবসায়ীরা এক টাকাও ফেরত পাননি। বরং বিপর্যয় নেমে এসেছে। 

দোকানে তালা লাগিয়ে কিংবা তালা লাগানোর ভয় দেখিয়ে কখনও টাকা হাতানো হয়, আবার কখনও কাগজপত্রের বৈধতা তথা দোকানের বৈধতার কথা বলে টাকা হাতানো হয়। কিন্তু কিছুই হয়নি। বরং উচ্ছেদের মুখে পড়ে এখন ব্যবসায়ীরা বিপর্যস্ত।

সামনে ঈদ, অথচ সেই ব্যবসায়ীরা কঠিন সংকটে। সংসার খরচ এবং নিজের বেঁচে থাকা সর্বোপরি কর্মচারিদের বেতন ভাতা নিয়ে কঠিন এক সংকটের মুখে পড়েছেন তারা। তার উপর ধার দেনা আর করোনার হানা। সব মিলিয়ে জীবন যুদ্ধে টিকে থাকাই কষ্ট হয়ে দাঁড়িয়েছে ডিসিসির তিন মার্কেটের অনেক ব্যবসায়ীর পক্ষে। যদিও কেউ কেউ উচ্ছেদের পর দ্বিগুণ কিংবা তিনগুণ দামে দোকান বসিয়েছেন, আবার কেউ কেউ খোলা আকাশের নিচে রাস্তায় খুপড়ি ঘরের মত করে দোকান বসিয়েছেন।

তথ্য বলছে, জাকের সুপার মার্কেট, নগর প্লাজা এবং সিটি প্লাজা থেকে কয়েক দফায় প্রায় তিনশ কোটি টাকা হাতিয়ে নেয়া হয়। টাকা হাতিয়ে নেয়ার পেছনে দোকান মালিক সমিতির সভাপতি দেলোয়ার হোসেন দেলুর সংশ্লিষ্টতার কথা যেমন উঠে এসেছে তেমনি ডিসিসি’র একজন উর্দ্ধতন কর্মকর্তা এবং তিনজন যুবলীগ নেতা ছাড়াও অন্য একাধিক ব্যক্তির মধ্যে ভাগাভাগির খবর রয়েছে। টিমসার্চলাইটের অনুসন্ধানে এই তিন মার্কেটের প্রায় তিনশ কোটি টাকা হাতানোর আদ্যোপান্ত বেরিয়ে এসেছে।

এসিএন/

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

চ্যানেল 24 বিশেষ খবর