channel 24

সর্বশেষ

  • ইয়াবার আসামীকে ছাড়াতে এসে ঘুষের টাকাসহ যুবলীগ নেতাসহ গ্রেপ্তার ৬

  • করোনার ভ্যাকসিন আবিস্কার হলে বাংলাদেশও পাবে: ডা. খুরশীদ আলম

  • গোপালগঞ্জে সন্ত্রাসী হামলায় যুবলীগ নেতা নিহত

  • সিনহা হত্যা: পুলিশের মামলার ৩ সাক্ষীকে গ্রেপ্তার করেছে র‍্যাব

  • উত্তরা-তেজগাঁও সড়ক: আবারও শুরু ১০টি ইউটার্নের কাজ

  • করোনায় সীমিত জন্মাষ্টমীর আয়োজন, নেই বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রা

  • করোনা সংক্রমন রোধে সামাজিক সচেতনতা নিয়ে কাজ করছেন অনেকেই

  • পুঁজিবাজারে নতুন বিনিয়োগে উৎসাহী হচ্ছেন ক্ষুদ্র বিনিয়োগকারীরা

  • বিশ্বের প্রথম দেশ হিসেবে করোনা ভ্যাকসিনের নিবন্ধন করলো রাশিয়া

  • সরবরাহ কম থাকায় রাজধানীতে বেড়েছে সবজির দাম

  • শত কোটি ডলারের ক্লাবে অ্যাপলের সিইও টিম কুক

  • অসাম্প্রদায়িক চেতনার মাধ্যমে সম্মৃদ্ধ দেশ গড়ে তোলার আহ্বান সেতুমন্ত্রীর

  • করোনায় দেশে আরও ৩৩ জনের মৃত্যু, নতুন শনাক্ত ২৯৯৬

  • ফোনালাপ প্রসঙ্গে সাবেক এসপি আল্লাহ্‌ বকশের দুঃখ প্রকাশ

  • কিশোর গ্যাংয়ের সংঘর্ষের জেরে শীতলক্ষ্যায় পড়ে দুজনের মৃত্যু: গ্রেপ্তার ৬

স্বাস্থ্যকর্মীদের রাখতে ভাড়ার নামে হোটেল দখল করেন সাহেদ

স্বাস্থ্যকর্মীদের রাখতে ভাড়ার নামে হোটেল দখল করেন সাহেদ

স্বাস্থ্যখাতকে নাজুক করতে সাহেদ ব্যবহার করেছিলেন হোটেল ব্যবসাকেও। অন্যের কাছ থেকে ভাড়া নেয়া হোটেল নিজের নামে চালিয়ে চিকিৎসক ও নার্সদের রাখার ব্যবস্থা করেছিলেন। আর এর সূত্র ধরেই হাতিয়ে নিয়েছেন মোটা অঙ্কের টাকা। সেইসাথে হোটেলের মালিকের বিরুদ্ধে মামলা করে সেটি নিজের নামে হাতিয়ে নেয়ার চেষ্টাও করেছিলেন তিনি।

কুয়েত বাংলাদেশ মৈত্রী সরকারি হাসপাতাল। এটিও রক্ষা পায়নি সাহেদের প্রতারণা থেকে। একাজে সে ব্যবহার করেছে, হোটেল মিলিনাকে।

হাসাপাতালের নথি ঘেঁটে দেখা যায়, হোটেলটিকে রিজেন্ট ডিসকভারি ট্যুর অ্যান্ড ট্রাভেলসের সহযোগী প্রতিষ্ঠান হিসেবে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের সঙ্গে চুক্তি করেন সাহেদ। করোনা চিকিৎসায় নিয়োজিত কুয়েত বাংলাদেশ মৈত্রী সরকারি হাসপাতালের নার্স ও ডাক্তারদের রাখা হতো হোটেলটিতে।

কিন্তু শুরু থেকেই ছিলো নানা অনিয়মের অভিযোগ। ডাক্তার ও নার্সরা না খেলেও বিল করতেন সাহেদ। এভাবে দুমাসে খাবারের খরচ বাবদ ৭ লাখ ৫৬ হাজার ৫৫০ টাকা বিল নিয়েছেন তিনি।

হাসপাতাল সুপারিন্টেন্ডের দাবি, সাহেদের এই অপকর্মের সাথে জড়িত থাকার অভিযোগে প্রশাসনিক কর্মকর্তা আলিমুজ্জামানের অন্যত্র বদলি করা হয়েছে।

সাহেদ গ্রেপ্তারের পরদিন থেকেই বন্ধ মিলিনা হোটেল। চ্যানেল 24-র উপস্থিতির খবর পেয়ে ছুটে আসেন মূল মালিক। তার দাবি, হোটেলটি ভাড়া নিয়ে নানা অপকর্ম করতো সাহেদ। ঢুকতে দেয়া হতো না তাকেও।

তার অভিযোগ, নিজের আধিপত্য ধরে রাখতে উত্তরায় বেশ কয়েকটি সন্ত্রাসী দল পালতো সাহেদ।

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

চ্যানেল 24 বিশেষ খবর