channel 24

সর্বশেষ

  • বিদেশ যেতে হলে করোনার সার্টিফিকেট নিতে হবে: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

  • ভুয়া ডাক্তার, নিষিদ্ধ ওষুধ ও লাইসেন্স না থাকায় এসএইচএস হাসপাতাল সিলগালা

  • রিজেন্ট-জেকেজির জালিয়াতি নিয়ে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের বিবৃতি দায়সারা

  • টক-মিষ্টি স্বাদের লটকন

  • এখনো পাওনা এক টাকাও পায়নি ব্রাদার্স ইউনিয়ন ক্রিকেটাররা

  • কক্সবাজার সৈকতে ভাসছে বর্জ্য, মারা গেছে ২০টি কচ্ছপ

  • পাঁচ প্রতিষ্ঠানের করোনা নমুনা পরীক্ষা স্থগিত

  • ৩ বছর বন্ধের পর কক্সবাজারে পুনরায় শুরু হচ্ছে জন্মনিবন্ধন প্রক্রিয়া

  • সাবরিনা-আরিফ দম্পতির রূপকথার জীবনের নানা গল্প

  • খাগড়াছড়িতে সাবেক ছাত্রদল নেতাকে কুপিয়ে হত্যা

  • চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজে ছাত্রলীগের দু'গ্রুপে সংঘর্ষ, আহত ৭

  • স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের ডিজি আবুল কালাম আজাদকে শোকজ

  • এরশাদের মৃত্যুবার্ষিকীর দিন উপনির্বাচন পেছাতে ইসিতে জাপা

  • ডা. সাবরিনা জাতীয় হৃদরোগ ইনস্টিটিউট থেকে বরখাস্ত

  • জ্বর-সর্দি ও শ্বাসকষ্টে দেশের বিভিন্ন স্থানে ১০ জনের মৃত্যু

করোনায় থমকে গেছে ভ্রাম্যমাণ যৌনকর্মীদের আয়ের পথ

করোনায় থমকে গেছে ভ্রাম্যমাণ যৌনকর্মীদের আয়ের পথ

করোনাভাইরাসের প্রভাবে এই বৈশ্বিক মহামারির সময়ে নাজুক অবস্থায় যৌনকর্মীরা। সামাজিক দূরত্বের বিধিনিষেধে থমকে গেছে তাদের আয়ের পথ। অন্যভাবে উপার্জনেরও নেই উপায়। এমন অবস্থা বেঁচে থাকাই তাদের জন্য দায়। তাই মানুষ হিসেবে সামান্য সহায়তার আকুতি ঝরছে তাদের কণ্ঠে।

করোনা যেনো কঠিন বাস্তবতায় ঠুকে দিয়েছে আরেক বাস্তবতার পেরেক। নিয়তিও যেখানে ঠুকরে ঠুকরে খাচ্ছে স্বাভাবিক নিয়তি। কাজ তো নেই আর নেই কাজের উপায়ও। বেঁচে থাকাটাই তাই যেনো বড্ড দায় এখন যৌনকর্মীদের।

ভয়, আতঙ্ক আর শূণ্যতার ভীড়ে পর্দার আড়ালে থাকা শূণ্য চোখ দুটি যদিও খুঁজে ফিরছে কিছুটা বেঁচে থাকবার রসদ। তবে দিন ফুরোলেও অপূর্ণই থেকে যাচ্ছে দিনশেষে পূর্ণ হবার আকাংখা।

যৌনকর্মী নিষিদ্ধের তালিকায় থাকা যে পেশাটা দেয়না মানুষ দাবী করবার স্বীকৃতি, করোনা সংকটে সেই হাত জুড়ে তাই ছেঁয়ে আছে নিকষ কালো অন্ধকার। যদিও সেই আধাঁর জীবনে আলো ফেরাতে, বাতিঘর হয়ে কাজ করছেন অনেকেই তবে তাও যথেষ্ট নয়।

জীবনটা যাদের ভ্রাম্যমাণ কিংবা সমাজ থেকে যারা বিচ্ছিন্ন সামাজিক দূরত্বের ঘেরাটোপ তাদের কাছে যেনো মৃত্যুর আলিঙ্গণ। সহজ কিছু নিয়মেই যে হারিয়ে গেছে তাদের উপার্জনের সব পথ। কপালের ভাঁজে দুশ্চিন্তা এখন তাই দু-মুঠো অন্ন যোগানের।

সংকট নাকি সবাইকে দাঁড় করায় এককাতারে। পেশা হয়তো ভিন্ন হতে পারে, তাই বলে জীবনও কি হবে বিপন্ন। তাদের প্রার্থনাও তাই একবার মানুষ ভেবে, মানুষ হয়ে তাদের পাশে দাঁড়ানোর।

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

চ্যানেল 24 বিশেষ খবর