channel 24

সর্বশেষ

  • বিদ্যুতের বাড়তি বিল হলে পরবর্তীতে সমন্বয় করা হবে: বিদ্যুৎ প্রতিমন্ত্রী

  • ২ মাস পর চালু হল পুঁজিবাজারে লেনদেন; সূচকে ইতিবাচক ধারা

  • কুষ্টিয়ায় নিজে রান্না করে অসহায় মানুষকে খাবার দিচ্ছেন কলেজ ছাত্রী

  • জিপিএ-৫ না পাওয়ায় ছাত্রীর আত্মহত্যা

  • স্বাস্থ্যবিধি মেনে ট্রেন চলাচল শুরু

  • এসএসসির ফলাফল এসএমএস ও অনলাইনে, শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে নেই উল্লাসের রঙ

  • ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় রিভলবার ও গুলিসহ যুবলীগ নেতা আটক

  • চট্টগ্রামে রাস্তায় নেমেছে বাস; বাড়তি ভাড়া আদায়

  • ঝিনাইদহে পুকুর থেকে দুই ভাই বোনের মৃতদেহ উদ্ধার

  • চট্টগ্রামে চিকিৎসা না পেয়ে মারা গেলেন বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক

  • রাষ্ট্রপতির ক্ষমায় ফাঁসি মওকুফ পাওয়া আসলাম আবারও হত্যা মামলায় গ্রেপ্তার

  • ভার্চুয়াল কোর্টে ১০ কার্যদিবসে ২১ হাজার আসামির জামিন

  • করোনায় এনটিভির অনুষ্ঠান বিভাগের প্রধান মোস্তফা কামালের মৃত্যু

  • এসএসসিতে চট্টগ্রামে পাশের হার উর্ধ্বমুখী, পাশ করেছে ৮৪.৭৫

  • এখনই খুলছে না শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান: প্রধানমন্ত্রী

যারা বিশ্ব ব্যাংকের ঋণ ব্যবহার করতে পারেনি তাদের বরাদ্দের টাকা চাইবে বাংলাদেশ

যারা বিশ্ব ব্যাংকের ঋণ ব্যবহার করতে পারেনি তাদের বরাদ্দের টাকা চাইবে বাংলাদেশ

যেসব দেশ বিশ্বব্যাংকের সহজ ঋণ ব্যবহার করতে পারেনি তাদের বরাদ্দ দেয়া টাকা এবার নতুন করে চাইবে বাংলাদেশ। আইএমএফ ও বিশ্বব্যাংকের বার্ষিক সভায় যোগ দিতে এসে সাংবাদিকদের এ কথা জানিয়েছেন ইআরডি সচিব মনোয়ার আহমেদ। তিনি জানান, ঋণ গ্রহণ এবং খরচের ক্ষেত্রে ব্যাপক দক্ষতা দেখিয়েছে বাংলাদেশ। অন্যদিকে, রোহিঙ্গাদের পুনর্বাসনে অনুদানের অঙ্ক বাড়ানোরও জোর দাবি তুলতে চায় বাংলাদেশ।

বিশ্ব অর্থনীতির আলোচনায় সকাল থেকে সন্ধ্যা অবধি ব্যস্ততা ছিলো বিশ্বব্যাংকের এই ভবণে। কৃষি থেকে জ্বালানি, খাদ্য নিরাপত্তা এবং বৈশ্বিক বাণিজ্যের খুঁটিনাটি তুলে ধরেন বিভিন্ন দেশের কর্তারা। ছিল দারিদ্র, কর্মসংস্থান আর শিক্ষার মতো বিষয়ও।

আইএমএফের আইটলুকে বাংলাদেশ নিয়ে সন্তুষ্টি প্রকাশে স্বাভাবিকভাবেই স্বস্তিতে এই সভায় যোগ দিতে আসা প্রতিনিধি দল। তারই রেশ টেনে ইআরডি সচিব সাংবাদিকদের জানান, এবার বিশ্বব্যাংকের কাছে দাবি জানানো হবে, সহজ শর্তের ঋণের পরিমাণ বাড়ানোর। কারণ, আইডা-১৮ এর অধিনে বরাদ্দ হওয়া টাকার পুরোটা খরচ করতে পারেনি বহু দেশ। যা বাংলাদেশকে দিতে আবেদন করা হবে নতুন করে।

অর্থনৈতিক সম্পর্ক বিভাগের সচিব মনোয়ার আহমেদ জানান, সক্ষমতার কারনে বাংলাদেশ সরকার বরাদ্ধের টাকা সুষ্ঠূভাবে খরচ করতে পেরেছে। সেকারনে যেসব দেশ বরাদ্ধের অর্থ খরচ করতে পারেনি সেই সব দেশের বরাদ্ধের অর্থ চাইবে বাংলাদেশ।

সহজ ঋণ ছাড়াও গেলো কয়েক বছর ধরে রোহিঙ্গাদের পুনর্বাসন এবং জীবনমান উন্নয়নে সহায়তার হাত বাড়িয়েছে সংস্থাটি। ৫০ কোটি ডলারের এই সহায়তা সীমাকেও বাড়ানোর দাবি জানাতে চায় বাংলাদেশ।

অর্থনৈতিক সম্পর্ক বিভাগের সচিব জানান, রোহিঙ্গার বাইরে বৃহত্তর কক্সবাজার অঞ্চলের সার্বিক উন্নয়নে কাজ করার চিন্তা আছে সরকারের। ঋণ ও অনুদানের বাইরে শিক্ষা ও অবকাঠামো খাতে বিনিয়োগ এবং কারিগরি সহায়তা বাড়ানোর বিষয়েও জোরালো দাবি তুলতে চায় বাংলাদেশ।

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

চ্যানেল 24 বিশেষ খবর