channel 24

সর্বশেষ

  • ফেসবুক এজেন্ট এইচটিটিপুলের বিরুদ্ধে ভ্যাট আইনে মামলা

  • যশোর শিশু উন্নয়ন কেন্দ্রে দু'গ্রুপের সংঘর্ষে ৩ কিশোর নিহত

  • দুটি পেশাদার বাহিনীকে মুখোমুখি দাঁড় করানোর অপচেষ্টা অপ্রত্যাশিত: পুলিশ সার্ভিস অ্যাসোসিয়েশন

  • শ্রীলঙ্কা সফর ঘিরে সেরা প্রস্তুতি নিতে চান সৌম্য

  • ক্রিস্টিয়ানো রোনালদোর বার্সেলোনায় যাবার গুঞ্জন

  • শেয়ার কারসাজি: বিবিএস ক্যাবলসের চেয়ারম্যানের স্ত্রী ও এমডিকে জরিমানা

  • ক্যাম্প ছাড়লেন ফুটবলাররা, প্রস্তুত থাকতে চান পরবর্তী ডাকের জন্য

  • বাসমালিকরা ভাড়া কমালে তেলের দাম সমন্বয়ের চিন্তা করা যেতে পারে: প্রতিমন্ত্রী

  • ভারতে একদিনে সর্বোচ্চ ৬৭ হাজার করোনায় আক্রান্ত

  • এমপি পাপুল পরিবারের ৫৮৮টি ব্যাংক অ্যাকাউন্ট!

  • প্রতারণার মামলায় যুবলীগ নেতা ডিজে শাকিলসহ ৩ জন ৫ দিনের রিমান্ডে

  • করোনার নমুনা পরীক্ষার কার্যক্রম শুরু করতে যাচ্ছে গণস্বাস্থ্য

  • চাঁদাবাজি মামলার পরও বহাল তবিয়তে রাজশাহী রেঞ্জ এসপি

  • এ মাসেই নন-কোভিড হাসপাতাল ঠিক করে দেয়া হবে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী

  • যাত্রীদের নিজস্ব ব্র্যান্ডের পানি সরবরাহ করবে রেল

স্বাস্থ্যখাতে ঝুঁকি কমাতে দেশেই তৈরি হয়েছে নেগেটিভ প্রেশার আইসোলেশন ক্যানোপি

স্বাস্থ্যখাতে ঝুঁকি কমাতে দেশেই তৈরি হয়েছে নেগেটিভ প্রেশার আইসোলেশন ক্যানোপি

করোনা আক্রান্ত রোগীদের থেকে জীবাণু নির্গমন এবং সংশ্লিষ্ট স্বাস্থ্যসেবা দাতাদের ঝুঁকি কমাতে দেশে তৈরি হয়েছে নেগেটিভ প্রেশার আইসোলেশন ক্যানোপি। দুপুরে এক সংবাদ সম্মলেনে জানানো হয়, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের বায়োমেডিকেল ফিজিক্স এন্ড টেকনোলজি বিভাগের যৌথ উদ্যোগে এ প্রযুক্তি তৈরি করা হয়েছে।

মূমুর্ষু কিংবা কমঝুঁকিপূর্ণ উভয়ের ধরনের করোনা রোগীই বাড়াতে পারে, হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অন্যান্য রোগী ও স্বাস্থ্য সেবায় নিয়োজিতদের
আর এ ঝুঁকি কমাতে বিশেষ পদ্ধতি বের করেছে দেশের দুই বিশ্ববিদ্যালয়।

নেগেটিভ প্রেশার আইসোলেশন ক্যানোপি নামের এ পদ্ধতিতে, রোগীর চারপাশ স্বচ্ছ প্ল্যাস্টিক দিয়ে ঘিরে বাতাস টেনে নেগেটিভ প্রেশার তৈরি করা হয়। ফলে তার শরীর থেকে ভাইরাস ছড়িয়ে পড়তে পারে না। বিশ্বব্যাপী এ ধরনের ব্যবস্থা চালু থাকলেও, তা ব্যয়বহুল। তবে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ও বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের যৌথ উদ্যোগে তৈরি, পদ্ধতিটির খরচ নাগালের মধ্যেই।  

বিশ্ববিদ্যালয় দুটির উপাচার্যরা বলেন, প্রযুক্তিটি সময়োপযোগী। এটি হাসপাতালগুলোতে স্বাস্থ্য ঝুঁকি কমাতে ভূমিকা রাখবে।

চাহিদা পাওয়া মাত্র দ্রুততার সঙ্গে প্রযুক্তিটি তৈরি করে দেয়া সম্ভব বলে জানিয়েছেন গবেষকরা।

 

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

জাতীয় খবর