channel 24

সর্বশেষ

  • ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় এবার ৫৮০ মণ্ডপে দুর্গাপূজা

  • পার্বত্য চট্টগ্রামের পথ কুকুর পাচার হচ্ছে মিজোরামে

  • 'নদী বাঁচলে মানুষ বাঁচবে'

  • শিরোপা অক্ষুন্ন রাখার মিশনে প্রস্তুত টাইগার যুবারা

  • দুর্নীতির মামলায় সাবেক প্রতিমন্ত্রী মান্নান খান ও তার স্ত্রীর বিচার শুরু

  • সোমবার থেকে লাখ লাখ স্মার্টফোনে বন্ধ হচ্ছে গুগলের সেবা

  • খুলেছে ঢাবি গ্রন্থাগার, কর্তৃপক্ষের নির্দেশ উপেক্ষা চাকরিপ্রার্থীদের

  • সাড়ে ১০ হাজার শ্রমিককে ভিসা দেবে যুক্তরাজ্য

  • নাসিরনগরে পানিতে ডুবে যমজ ভাই-বোনের মৃত্যু

  • এক ধাপ এগিয়েছে বাংলাদেশ, পিছিয়েছে বিএনপি: কাদের

  • বিমানবন্দরে পরীক্ষামূলকভাবে আরটিপিসিয়ার ল্যাব চালু

  • তেলের মিলের পাশে পড়ে ছিলো আনসার কমান্ডারের লাশ

  • স্বাস্থ্য অধিদপ্তর থেকে মাস্ক ও হ্যান্ড সেনিটাইজার পেল গার্ল গাইডস

  • কুষ্টিয়ায় ব্যাংক কর্মকর্তা খুন: বিচার চেয়ে পরিবারের সংবাদ সম্মেলন

  • ‘সঞ্চয়পত্রের সুদের হার কমানোর সিদ্ধান্ত সময়োপযোগী নয়’

আফগানিস্তানে তালেবান ও সরকারি বাহিনীর মধ্যে তুমুল লড়াই

আফগানিস্তানে তালেবান ও সরকারি বাহিনীর মধ্যে তুমুল লড়াই

আফগানিস্তানের কান্দাহার, হেরাত আর লস্কর-ই গাহ শহরে চলছে তালেবান ও সরকারি বাহিনীর মধ্যে তুমুল লড়াই। কান্দাহার বিমানবন্দরে, তালেবানের রকেট হামলার পর, বন্ধ বিমান চলাচল।

আফগানিস্তানে একের পর শহরের দখল নিতে মরিয়া তালেবান। কাবুলে জাতিসংঘ কম্পাউন্ডে হামলার একদিন পর দ্বিতীয় বৃহত্তম শহর কান্দাহার বিমান বন্দরে হামলা চালায় জঙ্গিগোষ্ঠী।

হেরাত আর লস্করইগাহ শহরে তুমুল লড়াই চলছে সরকারি বাহিনী ও তালেবান সদস্যদের মধ্যে। দুই পক্ষের লড়াইয়ে বিধ্বস্ত লস্কর-ই গাহ শহরের একটি হাসপাতাল। প্রাণ গেছে কয়েকজন রোগীর। আহত অনেকে। হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ বলছে, তালেবান সদস্যরা চিকিৎসা নিচ্ছেন এমন সন্দেহে সেখানে বিমান হামলা চালায় সরকারি বাহিনী।

আরিয়ানা হাসপাতালের মালিক ডা. মোহাম্মদ দিন নারেওয়াল বলেন, এখানে কোনো তালেবান সদস্য ছিলো না। তারপরও হাসপাতালে বোমা ফেলা হলো। আহতদের মধ্যে দুজন নার্সও আছেন। সরকারি বাহিনী ও তালেবানকে অনুরোধ করবো সরকারি স্থাপনায় হামলা চালাবেন না।

তালেবানের ভয়ে দেশ ছাড়ছেন পশ্চিমা বাহিনীকে সহায়তাকারীরা। পেন্টাগন জানায়, বিশেষ ভিসা সুবিধায় প্রথম ধাপে দুইশোরও বেশি আফগান নাগরিক যুক্তরাষ্ট্রে পৌঁছেছেন। নতুন করে  ৮ হাজার ভিসা ইস্যু এবং বিশেষ এই প্রকল্পে আরও ৫০ কোটি ডলার অর্থায়নের অনুমোদন দিয়েছে মার্কিন কংগ্রেস।

আফগানিস্তানের মার্কিন চার্জ দ্য অ্যাফেয়ার্স রোজ উইলসন বলেন, এ যাবত ৫ হাজার বিশেষ ভিসা ইস্যু করা হয়েছে। এদের মধ্যে প্রথম ধাপে ভার্জিনিয়ায় এসে পৌঁছেছেন ২২১ জন আফগান। পরের ধাপে আরও ৭শ' জনকে যুক্তরাষ্ট্রে নিয়ে আসা হবে।

প্রতিবেশী পাকিস্তান ও ইরান সীমান্ত ক্রসিংসহ আফগানিস্তানের প্রায় ৯০ ভাগ এলাকাই নিজেদের নিয়ন্ত্রণে নেয়ার দাবি করেছে তালেবান।

আরকে

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

আন্তর্জাতিক খবর