channel 24

সর্বশেষ

  • খুলনায় নিম্নআয়ের মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছে শিক্ষার্থীরা

  • করোনার মাঝেই যুক্তরাষ্ট্রে সব খেলা শুরুর ঘোষণা ট্রাম্পের

  • ১০ হাজার দুস্থ মানুষকে খাওয়াচ্ছেন সৌরভ গাঙ্গুলী

  • জরুরি প্রয়োজন ছাড়া রাজধানীতে প্রবেশ ও বের হওয়ায় নিষেধাজ্ঞা

  • আন্তর্জাতিক ফ্লাইটের নিষেধাজ্ঞা বাড়লো ১৪ এপ্রিল পর্যন্ত

  • ভিডিও কনফারেন্সে সুপ্রিম কোর্ট শিশু অধিকার কমিটির বৈঠক

  • রাজস্ব আদায়ে এখন পর্যন্ত বাংলাদেশ বেশ সফল: অর্থমন্ত্রী

  • ১৪ এপ্রিল পর্যন্ত বাড়লো সাধারণ ছুটি

  • দেশে করোনায় আরো ১ জনের মৃত্যু, নতুন আক্রান্ত ১৮: স্বাস্থ্যমন্ত্রী

  • করোনায় বিধ্বস্ত বিশ্ব; প্রাণহানি ছাড়ালো ৬৪ হাজার, আক্রান্ত ১২ লাখের বেশি

  • পাইকার সংকটে দাম পাচ্ছে না যশোরের সবজি চাষীরা

  • করোনার প্রভাবে কেমন আছে পথে অবাধে বিচরণ করা কুকুর ?

  • হবিগঞ্জের রেমা কালেঙ্গা বনাঞ্চলে চলছে গাছ কাটার মহোৎসব

  • যুক্তরাষ্ট্রে করোনা মোকাবিলায় ২ লাখ কোটি ডলারের তহবিল ঘোষণা

  • করোনা মোকাবিলায় প্রায় ৭৩ হাজার কোটি টাকার প্রণোদনা ঘোষণা প্রধানমন্ত্রীর

করোনায় স্পেনে একদিনে নিহত ৭৫০, বিশ্বে সাড়ে ১৯ হাজার

করোনায় স্পেনে একদিনে নিহত ৭৫০, বিশ্বে সাড়ে ১৯ হাজার

করোনা ভাইরাসে প্রাণহানিতে ইতালির পর এবার চীনকে ছাড়ালো স্পেন। দেশটিতে গত ২৪ ঘন্টায় মারা গেছেন ৭৩৮ জন। মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাড়িয়েছে ৩ হাজার ৪৩৪ জনে। বিশ্বজুড়ে প্রাণহানি সাড়ে ১৯ হাজার ছাড়িয়েছে; আক্রান্ত ৪ লাখ ৩৫ হাজার। যুক্তরাষ্ট্রে মৃতের সংখ্যা বেড়ে সাতশো। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার শঙ্কা করোনার পরবর্তী কেন্দ্রস্থল হতে যাচ্ছে যুক্তরাষ্ট্র।

করোনায় পাল্টে গেছে চিরচেনা ব্যস্ততম শহর নিউইয়র্কের চিত্র। সড়কে শুনশান নীরবতা, হাসপাতালে আক্রান্তের ভিড়। প্রতিদিনই লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে প্রাণহানি।

বলা হচ্ছে, চীন আর ইতালির পর করোনার নতুন কেন্দ্র হতে যাচ্ছে যুক্তরাষ্ট্র। নিউইয়র্ক ওয়াশিংটনের অবস্থা সবচেয়ে ভয়াবহ। যদিও ট্রাম্পের দাবি, শিগগিরই পরিস্থিতি স্বাভাবিক হবে।

করোনা নিয়ে কাজ করছেন গবেষকরা। আশা করছি শিগগিরই তারা আশার বাণী শোনাবেন। অনেক অনেক দশক পর এমন পরিস্থিতির সম্মুখিন মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র। তবে সংকট কাটতে খুব বেশি সময় লাগবে না।

ইতালিতে নতুন আক্রান্তে সংখ্যা কিছুটা কমলেও ঠেকানো যাচ্ছে না প্রাণহানি। বাড়ি বাড়ি গিয়ে লাশ উদ্ধার করছে দেশটির সেনাবাহিনী। স্পেনেও পরিস্থিতি উন্নতির কোনো লক্ষণ নেই।

নিউজিল্যান্ডে আক্রান্তের সংখ্যা দুইশো ছাড়ানোর পর দেশজুড়ে জরুরি অব্স্থা জারি করেছেন প্রধানমন্ত্রী জাসিন্ডা আর্ডার্ন। অস্ট্রেলিয়ায় সামাজিক দূরত্ব নিশ্চিতে আরও কড়াকড়ি আরোপ করা হয়েছে। চীন কিংবা ইতালির মতো পরিস্থিতি এড়াতে বাড়তি সতর্কতা নিয়েছে রাশিয়া।

খুব জরুরী ছাড়া অস্ট্রেলিয়ার সব প্রাইভেট আর পাবলিক হাসপাতালে সব ধরনের সার্জারি বন্ধ রাখা হয়েছে। করোনা পরিস্থিতি মোকাবেলায় আমরা সাধ্যমতো চেষ্টা করছি। আপনারাও ঘরে থেকে আমাদের সাহায্য করুন।

ভারতজুড়ে চলছে ২১ দিনের লকডাউন। দেশটির একশ ত্রিশ কোটি মানুষকে ঘরে থাকার নির্দেশ দেয়া হয়েছে। মোতায়েন হয়েছে বাড়তি পুলিশ। করোনা মোকাবেলায় প্রস্তুতি পর্যবেক্ষণে পশ্চিমবঙ্গে বিভিন্ন হাসপাতাল ঘুরে দেখেন মমতা বন্দোপাধ্যায়।

তবে ভিন্ন চিত্র চীনে। প্রায় দুই মাস পর স্বাভাবিক হতে শুরু করেছে দেশটির জনজীবন। উহান ছাড়া প্রায় সব শহর থেকে তুলে নেয়া হচ্ছে বিধি-নিষেধ। স্বাভাবিক হচ্ছে যান চলাচল। খুলছে দোকান-পাট। নিজ বাড়িতে ফিরতে শুরু করেছেন চিকিৎসা কর্মীরাও।

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

আন্তর্জাতিক খবর