channel 24

সর্বশেষ

  • মহেশ বাবুর অস্ত্রোপচার

  • করোনা নিয়ে মিথ্যাচার করায় ‘চীনা নেটওয়ার্ক’ মুছে দিলো ফেইসবুক, ইনস্টাগ্রাম

  • দুর্গাপুরে চিনামাটির পাহাড়ে নেই টুরিজম ফ্যাসিলিটি

  • ঠেলা দিয়ে বিমান সরাচ্ছে যাত্রীরা, ভিডিও ভাইরাল

  • শ্রেণিকক্ষে ঢুকে পড়ল বাঘ, শিক্ষার্থীকে আক্রমণ (ভিডিও)

  • বিশ্বে আবারও বাড়লো করোনায় আক্রান্ত ও মৃ ত্যুর সংখ্যা

  • টিকা নেয়ার পরও আক্রান্ত, ২৭ দেশে ওমিক্রন শনাক্ত

  • গ্যাস সিলিন্ডারে দগ্ধ ভাই-বোন মারা গেছেন

  • অভিমানে চেয়ারম্যানের দেয়া উপহার আগুনে পোড়ালেন সমর্থক

  • বিজয় দিবসে দেশব্যাপী শপথ বাক্য পাঠ করাবেন প্রধানমন্ত্রী

  • করোনার টিকা নিতে হবে টানা কয়েক বছর: ফাইজার প্রধান

  • চার বছর পর হিলি দিয়ে কয়লা আমদানি শুরু

  • নারী কেলেঙ্কারি: নাচোলের চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে থানায় এজাহার

  • টাঙ্গাইলে দক্ষিণ আফ্রিকাফেরত ৬ প্রবাসী হোম কোয়ারেন্টিনে

  • নির্ধারিত সময়ে ২৭ শতাংশ আয়কর রিটার্ন জমা

যেসব খাদ্য করোনা থেকে সেরে উঠতে সাহায্য করে

যেসব খাদ্য করোনা থেকে সেরে উঠতে সাহায্য করে

পুষ্টিবিদরা বলছেন, করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হলে তা থেকে সুস্থ হয়ে ওঠার জন্য খাদ্য এবং পানীয় খুবই গুরুত্বপূর্ণ। শরীরে কোনো ধরনের সমস্যা দেখ দিলে সেল এবং টিস্যুগুলো দুর্বল হয়ে পড়ে। তাই এগুলোতে কার্যক্ষম করে তোলার জন্য অধিক পরিমাণে পুষ্টিকর খাদ্যের প্রয়োজন। কিন্তু করোনা একটি জটিল প্রক্রিয়া। কেউ করোনায় আক্রান্ত হলে তার সঙ্গে আরও অনেক সমস্যা দেখা দিতে পারে। এক্ষেত্রে করোনা পরবর্তী স্বাস্থ্য সচেতনতার ক্ষেত্রে আপনার কোনো খাদ্য তালিকা রয়েছে? যদি না থাকে তাহলে চলুন দেখে নেওয়া যাক করোনা হলে কী ধরনের খাদ্য তালিকা অনুসরণ করবেন-

খাদ্য যেভাবে শরীরকে পুনরুদ্ধার করে

শরীরের ইমিউনি সিস্টেমকে অর্গানসমূহের নেটওয়ার্ক বলা হয়। শরীরের সেল এবং বিভিন্ন উপাদান যে কোনো ইনফেকশনের বিরুদ্ধে লড়াই করে। সাদা রক্তের সেল, এন্টিবডি এবং অন্যান্য উপাদান মিলে শরীরের ছোট ছোট ক্ষতিকারক উপাদানগুলোর বিরুদ্ধে লড়াই করে। এক সময় তাদেরকে পরাস্ত করে শরীরের দুর্বল সেল ও টিস্যুকে সারিয়ে তোলে। 

প্রোটিন, এমিনো এসিড শরীরের জন্য খুবই গুরুত্বপূর্ণ উপাদান। সাউদ্যাম্পটন বিশ্ববিদ্যালয়ের পুষ্টিবিদ ও মেডিসিন বিভাগের অধ্যাপক ফিলিপ ক্যালডার বলেন, শরীরে কোনো ধরনের ইনফেকশন হলে শুরুতে প্রোটিন কমে যায় এবং মাসেল ভেঙে এমিনো এসিড কমে যায়। এ সময়ে অনেকে মানুষের ওজন কমে যায় এবং খুবই দুর্বল হয়ে পড়ে। ফলে তাকে দ্রুত হাসপাতালে ভর্তি করানোর প্রয়োজন পড়ে। 

এমন সময়ে শরীরে ইমিউনি সিস্টেস ঠিক রাখতে পুষ্টিকর খাবার প্রয়োজন। এজন্য গম থেকে তৈরি ওটস, রুটি, পাস্তা, ডিম এবং বাদাম খেতে হবে। 

প্রয়োজন ভিটামিস, মিনারেল ও ফ্যাটি এসিড

অধ্যাপক ক্যালডার বলেন, ইমিউনি সিস্টেম রিকোভারি করার জন্য ভিটামিন এবং মিনারেল জাতীয় খাবার খেতে হবে। যেমন: ভিটামিন এ, সি, ডি, ই, বি৬, বি৯ (ফোলেক), বি১২, মিনারালস জিঙ্ক, কপার, সেলেনিয়াম এবং আয়রন জাতীয় খাবার। এছাড়া অলিভের তেল, মাসের তেলসহ বিভিন্ন ধরনের ফ্যাট খাবার। 

করোনা থেকে সুস্থতার জন্য যা করা উচিত 

করোনা হলে শরীর প্রচণ্ড দুর্বল হয়ে যায়ে। এজন্য প্রচুর পরিমাণে শাক, বাদাম, ডাল এবং মাসের তেল খেতে হবে। এছাড়া নিত্যদিনের খাবার তালিকায় যা থাকে তা খেতে হবে। 

স্বাদ এবং ঘ্রাণ অনুভূতি হারানো

যাদের করোনা হয়েছে তাদের ক্ষেত্রে এ সমস্যা কমন। অনেকের দুই থেকে তিন সপ্তাহের মধ্যে এ সমস্যা ঠিক হয়ে যায়। কিন্তু কারো কারো ক্ষেত্রে আরও দীর্ঘ সময় প্রয়োজন। তবে ১০ শতাংশের ক্ষেত্রে এ সমস্যা সমাধানে কয়েক মাস লেগে যেতে পারে। 

যদি কারো ক্ষেত্রে ঘ্রাণ অনুভূতি হারিয়ে যায় তাহলে প্রতিদিন ঝাঁঝালো কিছুর ঘ্রাণ নিতে থাকুন। এক সময় ঠিক হয়ে যাবে। যদি এতে কাজ না হয় তাহলে ডাক্তারের পরামর্শ নিন। 

সূত্র: বিবিসি 

জে 

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

স্বাস্থ্য খবর