channel 24

সর্বশেষ

  • করোনায় দেশে আরো ৮৮ জনের মৃত্যু

  • লঙ্কান ঘাটিতে প্রথম আঘাত মিরাজের

  • ঈদকে সামনে রেখে ঝুঁকি নিয়ে দোকান খুলছেন গোপালগঞ্জের ব্যবসায়ীরা

  • একক দেশের সাথে ভ্যাকসিনের চুক্তি ছিল বোকামি

  • করোনার দুঃসময়ে অসুস্থতার প্রতি মুহূর্ত কাটে অজানা আতঙ্কে

  • বোরোর ফলন ভালো হলেও শ্রমিক সংকটে দুঃশ্চিন্তায় সুনামগঞ্জ ও নওগাঁর কৃষকরা

  • ২৫ এপ্রিল খুলছে দোকানপাট ও শপিংমল

  • করোনায় খেয়ে না খেয়ে দিন কাটছে পথশিশুদের

  • ভারতে ভয়াবহ হচ্ছে করোনা পরিস্থিতি, ভেঙ্গে পড়েছে স্বাস্থ্য ব্যবস্থা

  • ক্যান্ডিতে ৫০০ রানের কোটা পেরিয়েছে বাংলাদেশ

  • নানা সংকটে নাটোর সদর হাসপাতাল, নেই আইসিইউ ও সেন্ট্রাল অক্সিজেন

  • ধর্ষণ মামলার পর আত্মগোপনে বরিশাল মহানগর ছাত্রলীগ সভাপতি

  • চট্টগ্রামে ব্যাংক কর্মকর্তার আত্মহত্যা: বিচার না পাওয়ার শঙ্কায় স্বজনরা

  • মেসির জোড়া গোলে গোল উৎসব কাতালানদের

  • ৩০ এপ্রিল মাঠে ফিরছে দেশের ফুটবল

করোনার ভয়ঙ্কর ছোবলে দেশ, স্বাস্থ্যবিধির কড়াকড়িতে অনীহা মানুষের

করোনার ভয়ঙ্কর ছোবলে দেশ, স্বাস্থ্যবিধির কড়াকড়িতে অনীহা মানুষের

করোনার দ্বিতীয় ঢেউয়ে ভয়ংকরভাবে বাড়ছে সংক্রমণ ও প্রাণহানি। আজও মারা গেছেন ৪৫ জন। নতুন শনাক্ত ৫ হাজারের বেশি। তারপরও স্বাস্থ্যবিধি মানতে মানুষের মাঝে একধরনের অনীহা। পর্যটন এলাকায় জনসমাগম সীমিত করার নির্দেশনা থাকলেও মানছে না কেউ।

করোনার ভয়ংকর ছোবলে আবারও দেশ। টানা দুদিন নতুন শনাক্ত ছাড়িয়েছে ৫ হাজার। দুদিন ধরে প্রাণহানিও ৪৫।

এমন পরিস্থিতিতে সোমবার ১৮ দফা নির্দেশনা জারি করে সরকার। যাতে বেশি সংক্রমণ ঝুঁকিতে থাকা রাজধানীসহ ২৯ জেলায় জনসমাগম নিষিদ্ধ করা হয়। এছাড়া সামাজিক, রাজনৈতিক ও ধর্মীয় জনসমাগম এবং চলাচল সীমিত করার কথা বলা হয়। তবে শবে বরাতের রাতে এই নির্দেশনা তেমন মানা হয়নি। স্বাস্থ্যবিধি মানতেও একধরনের অনীহা আছে মানুষের মাঝে।

যুক্তরাজ্যসহ ইউরোপ ফেরত যাত্রীদের নিজ খরচে ১৪ দিন থাকতে হবে, সরকার নির্ধারিত ১৭টি হোটেলে। অন্যান্য দেশ থেকে ফিরলে নিজের বাড়িতেই থাকতে হবে ১৪ দিন কোয়ারেন্টাইনে।

কক্সবাজারসহ পর্যটন এলাকাতে জনসমাগম সীমিত করার নির্দেশনা থাকলেও, সেটি বাস্তবায়নে এখনও নেই তেমন তোড়জোড়।

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

স্বাস্থ্য খবর