channel 24

সর্বশেষ

  • পিছিয়ে যেতে পারে বন্ধবন্ধু আন্তর্জাতিক গোল্ড কাপ

  • মৌসুমে প্রথমবারের মত ঢাকার বাইরে প্রিমিয়ার লিগ

  • দ্বিতীয় ম্যাচে দল নিয়ে পরীক্ষা-নিরীক্ষার বিপক্ষে শাহরিয়ার নাফীস

  • মুক্তিযুদ্ধে জিয়াউর রহমানের অবদানকে খাটো করে তুলে ধরা হচ্ছে: ফখরুল

  • সিরিজ নিশ্চিতের মিশনে কাল মাঠে নামবে বাংলাদেশ

  • করোনার টিকা সংরক্ষণের জোর প্রস্তুতি চলছে সারা দেশে

  • ভারতকে প্রধানমন্ত্রীর ধন্যবাদ

  • ভারতে সেরাম ইনস্টিটিউটের নির্মাণাধীন ভবনে অগ্নিকাণ্ডে ৫ জনের মৃত্যু

  • লুটপাটের জন্যই বৃদ্ধাকে নির্মম নির্যাতন, পরিকল্পনায় রেখার স্বামী

  • চসিক নির্বাচন: সেনা মোতায়েনের দাবি, বিএনপির প্রার্থীর

  • উচ্ছেদ অভিযান ঘিরে রণক্ষেত্র মিরপুর

  • ৭০ হাজার গৃহহীন পরিবার পাচ্ছে প্রধানমন্ত্রীর উপহার

  • বিনাদোষে ৫ বছর জেল খাটার পর মুক্তি পেল আরমান

  • ফেসবুকে পরিচয়, তারপর জিম্মি করে মুক্তিপণ দাবি

  • নীলফামারীতে ধর্ষণের দায়ে একজনের মৃত্যুদণ্ড

সুইস অ্যালবিনো প্রজাতির ইঁদুর চাষ হচ্ছে রাজশাহীতে

সুইস অ্যালবিনো প্রজাতির ইঁদুর চাষ হচ্ছে রাজশাহীতে

হ্যামিলনের বাঁশিওয়ালার গল্প নিশ্চয়ই মনে আছে! ইঁদুরের জ্বালাতনে অতিষ্ট পুরো শহর। তবে সব ইঁদুরই জ্বালাতন করে না। কিছু ইঁদুর কাজে লাগে মানুষের গবেষণায়ও। তাদের মধ্যে একটি সুইচ অ্যালবিনো ইঁদুর। এ প্রজাতির ইঁদুর পালন করে সাড়া ফেলে দিয়েছেন, রাজশাহীর সালাউদ্দিন মামুন। গবেষণার জন্য তার কাছ থেকে ইঁদুর নিচ্ছে বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয় ও ওষুধ কোম্পানি।

চিকিৎসা বিজ্ঞানের যেকোনো গবেষণায় পৃথিবীব্যাপী সমাদৃত সুইজারল্যান্ডের অ্যালবিনো প্রজাতির ইঁদুর। বাংলাদেশে বাণিজ্যিকভাবে শুধু পাওয়া যায় আইইডিসিআর-এ।

তবে বছর তিনেক ধরে এ প্রজাতির ইঁদুর পালন করছেন রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাণিবিদ্যা বিভাগের ল্যাব সহকারী সালাউদ্দিন মামুন।

গবেষণা কাজ শেষে পরিত্যক্ত কয়েকটি ইঁদুর বাড়ি নিয়ে গিয়েছিলেন তিনি। ইচ্ছা ছিল বড় হলেই ছেড়ে দিবেন প্রকৃতির মাঝে। তবে মাত্র ১৫ দিনেই ১০টি বাচ্চা দেয় একটি ইঁদুর।

ধীরে ধীরে ইঁদুর বাড়তে থাকে। এ পর্যন্ত উৎপাদন হয়েছে অন্তত ৫ হাজার ইঁদুর। যেগুলোর বেশিরভাগই গবেষণা কাজে নিয়েছে বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয় ও ল্যাব। সম্প্রতি দেশের নামকরা ওষুধ কোম্পানিও ইঁদুর সংগ্রহ করেছেন এই খামার থেকে।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, শুধু গবেষণা কাজই নয় অ্যালবিনো প্রজাতির ইদুরের কঙ্কাল ও মমি সারাবিশ্বে জনপ্রিয়। ফলে বৈদেশিক মুদ্রা আয়ের সম্ভাবনা আছে।  

মামুনের ছোট্ট খামারটিতে এখন ইঁদুর রয়েছে অন্তত ১'শটি। যা তিনগুন হতে সময় লাগবে মাত্র তিন মাস।

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

দেশ 24 খবর