channel 24

সর্বশেষ

  • দৃষ্টিহীন হয়েও আলোকিত করছেন নিজেকে, প্রশিক্ষণ দিচ্ছেন অন্য প্রতিবন্ধীদেরও

  • দেশে করোনায় আরও ২৮ জনের মৃত্যু, নতুন শনাক্ত ১৫৪০

  • কক্সবাজার জেলার ৩৪ পুলিশ ইন্সপেক্টরকে একযোগে বদলি

  • ওয়াসার এমডির মেয়াদ পুনরায় বাড়ানোর প্রক্রিয়া চ্যালেঞ্জ করে রিট

  • পাপিয়া দম্পতির যাবজ্জীবন কারাদণ্ড চেয়েছে রাষ্ট্রপক্ষ

  • নুরকে হয়রানি না করতে ডা. জাফরুল্লাহর আহবান

  • চট্টগ্রাম ওয়াসায় আগুন পুড়ে গেছে কাগজপত্র ও আসবাব

  • আবারো ক্ষোভে ফুসছেন মার্কিনিরা

  • দেশে ২ লাখ ৭ হাজার দ্বৈত ভোটার শনাক্ত

  • পেঁয়াজের বাড়তি দাম খাতুনগঞ্জে

  • খাগড়াছড়িতে কমান্ডারকে হত্যার দায়ে আনসার সদস্যের মৃত্যুদণ্ড

  • চট্টগ্রামে ২৪ ঘন্টায় করোনায় আক্রান্ত ৬৩

  • আলোচনায় ৭৫ বছরের জাতিসংঘকে ঢেলে সাজানো

  • কুষ্টিয়ায় চাল আত্মসাতের ঘটনায় ইউপি চেয়ারম্যানসহ ৪ জন কারাগারে

  • নির্ধারিত সময়ে শ্রীলঙ্কা যাওয়া হচ্ছে না বাংলাদেশের

যাযাবরের জীবনে বানভাসী মানুষ; অনাহারে-অর্ধাহারে কাটছে দিন

যাযাবরের জীবনে বানভাসী মানুষ; অনাহারে-অর্ধাহারে কাটছে দিন

একটি বাঁধ যেন স্বপ্ন গাইবান্ধার বানভাসী হাজারো মানুষের। যথাযথ ব্যবস্থা না থাকায় প্রতিবছরই বন্যায় ভেসে যায় জীবনের পুঁজি, গড়তে হয় আবার নতুন করে। দীর্ঘদিনের এই দুর্দশা থেকে মুক্তি পেতে গুচ্ছগ্রামের দাবিও তাদের।

পেটে কোনদিন ভাত মিলছে, কোনদিন আবার মিলছেনা। মাথা গোঁজবার ঠাঁই, সেওতো এই আছে এই নাই। বানের জোয়ারে যে ভেসে গেছে সব।

জামিলা বেগম ঘরে এবার ঈদ আসেনি। বানের জমে থাকা পানির মতো তার মনেও জমাট বেঁধেছে যন্ত্রণা আর হতাশা।

গাইবান্ধার ফুলছড়ি উপজেলার ছোট্ট এই কাইয়ারহাট গ্রামের প্রত্যেকের দুর্দশার গল্প একইরকম। বছরের আটটি মাস ডাঙা শুকনো থাকলেও বাকি মাসের জলস্রোতেই নি:শ্বেষ হয়ে যায় পুরো বছরের শ্রম।

বানভাসি মানুষের আকুতি তাই একটিমাত্র বাঁধের, যে বাঁধ দিতে পারে স্বস্তি, দিতে পারে অনিশ্চয়তার চলে নিশ্চয়তার ছায়া। হয়তো তখন আগ্রাসি ব্রহ্মপুত্র গিলে খেতে পারবেনা জীবনের পুঁজি।

একটি ভাঙা বাঁধ হয়তো ভাসিয়ে নিয়ে গেছে সব, যদিও আশ্রয় মিলেছে ঠিকই আরেক বাঁধে। তবে এভাবে আর এভাবে আর কতোদিন, কতো বছর। বানভাসি মানুষ তবু স্বপ্ন দেখে ক্লান্তিহীন।

 

 

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

দেশ 24 খবর