channel 24

সর্বশেষ

  • সিলেটে বিষ খাইয়ে হত্যাচেষ্টা, মা-ছেলে কারাগারে

  • কুমিল্লায় ব্যবসায়ী আকতার হত্যার ঘটনায় মামলা

  • সাংবিধানিক কারণেই করোনার মধ্যে উপনির্বাচন: সিইসি

  • বানের জলে ডুবছে লোকালয়; সুরমা উপচে তলিয়েছে সুনামগঞ্জ শহর

  • এখনও অধরা রিজেন্ট কাণ্ডের নাটের গুরু সাহেদ

  • সাংবাদিকদের মাঝে করোনাকালীন সহায়তার চেক বিতরণ

  • অনলাইন থেকে গরু কিনলেন তিন মন্ত্রী

  • শিশু-কিশোরদের জন্য ব্যতিক্রমী উদ্যোগ এসিল্যান্ড সিফাত উদ্দিনের

  • রাঙ্গামাটিতে মৌসুমী ফলের ফলন হলেও দাম কম হওয়ায় হতাশ চাষীরা

  • স্বাস্থ্যখাতে ঝুঁকি কমাতে দেশেই তৈরি হয়েছে নেগেটিভ প্রেশার আইসোলেশন ক্যানোপি

  • বান্দরবানে সেনা টহল লক্ষ্য করে গুলি, নারী নিহত

  • লরি শ্রমিক নেতা রিপন হত্যার ঘটনায় সিলেটে সড়ক অবরোধ

  • বনানীতে মায়ের কবরে চিরনিদ্রায় শায়িত সাহারা খাতুন

  • করোনা মোকাবিলায় ভুল পথে এগুচ্ছেন ট্রাম্প!

  • ভারতে একদিনে শনাক্তের নতুন রেকর্ড, আক্রান্ত ছাড়ালো ৮ লাখ

নারায়ণগঞ্জের ৩টি এলাকার লকডাউন প্রত্যাহার

নারায়ণগঞ্জের ৩টি এলাকার লকডাউন প্রত্যাহার

রেড জোন হিসেবে উল্লেখ করে নারায়ণগঞ্জে তিনটি এলাকাকে অধিক ঝুঁকিপূর্ণ বিবেচনায় এনে লকডাউন ঘোষণা করা হলেও হঠাৎ করেই প্রত্যাহার করা হয়েছে।

তিনটি এলাককে ১৫ থেকে ২১ দিন পর্যন্ত পর্যবেক্ষণ করার কথা থাকলেও চতুর্থ দিনই তা প্রত্যারহার হয়ে যাওয়ায় স্থানীয় বিস্মিত হয়েছে।
আর জেলা প্রশাসক বলছেন স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের নির্দেশ মতে নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জের একটি ইউনিয়নকে লকডাউন করা হবে। তবে পরীক্ষামুলক ভাবে নগরীর তিনটি এলাকাকে অধিক ঝুঁকিপূর্ণ বিবেচনায় এনে এ ব্যবস্থা নেয়া হয়েছিল।

রেড জোন হিসেবে উল্লেখ করে নারায়ণগঞ্জে তিনটি এলাকাকে অধিক ঝুঁকিপূর্ণ বিবেচনায় এনে গত রবিবার (৭ জুন) দুপুরে জেলা প্রশাসক তার কার্য্যালয়ে সংবাদ সম্মেলনে গণমাধ্যমকে জানান, পরিস্থিতি বিবেচনা করে করোনার অধিক ঝুঁকিপূর্ণ হিসেবে শহরের আমলাপাড়া, জামতলা এবং ফতুল্লার ভূঁইগড়ের রূপায়ন টাউনকে লকডাউনের আওতায় আনা হয়েছে। এই তিনটি এলাককে ১৫-২১ দিন পর্যন্ত পর্যবেক্ষণ করা হবে। করোনা পরিস্থিতির উন্নতি হলে পর্যায়ক্রমে অন্যান্য ঝুঁকিপূর্ণ এলাকাগুলোর উপর এই বিধিনিষেধ আরোপ করা হবে। লকডাউন ঘোষিত এলাকার কোনো ব্যক্তি বের হয়ে অন্য এলাকায় প্রবেশ করতে পারবেন না এবং অন্য এলাকা থেকেও কাউকে প্রবেশ করতে দেয়া হবে না।

এরপর দিন সোমবারই তিনটি এলাকায় তা বাস্তবায়নে কার্যকর কোন ব্যবস্থা দেখা যায়নি। তবে পরদিন মঙ্গলবার পুলিশ প্রশাসন তৎপর হয়ে লকডাউন বাস্তবায়নে কঠোর হপালক করে।

চতুর্থদিন বুধবার সকাল থেকে কোন প্রকার ঘোষণা ছাড়াই লকডাউন প্রত্যাহার হয়ে যায়। পুলিশ নেই এলাকার প্রবেশপথ গুলো বন্ধ করে দড়ি লাঠি ভেঙ্গে পাশে পড়ে থাকতে দেখা যায়। এমন দৃশ্য দেখে স্থানীয়রাও বিস্মিত হয়ে উঠে।

এ ব্যপারে জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ জসিম উদ্দিন বলেন, পরীক্ষামুলক ভাবে নগরীর তিনটি এলাকাকে অধিক ঝুঁকিপূর্ণ বিবেচনায় এনে এ ব্যবস্থা নেয়া হয়েছিল। এখন স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের নির্দেশ মতে নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জের একটি ইউনিয়নকে লকডাউন করা হবে। আগামীকাল সভা করে সিদ্ধান্ত নিয়ে জনগণকে জানিয়ে কার্যকর ব্যবস্থা নেয়া হবে।

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

দেশ 24 খবর