channel 24

সর্বশেষ

  • মাস্ক ব্যবহারে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার নতুন নির্দেশনা

  • করোনায় বিশ্বজুড়ে প্রাণহানি ছাড়িয়েছে ৩ লাখ ৯৪ হাজার

  • পাবনায় একই পরিবারের ৩ জনের মরদেহ উদ্ধার

  • বিশ্বের শীর্ষ চতুর্থ উপার্জনকারী ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো

  • কোভিড-নাইনটিন মোকাবিলায় চিকিৎসা সামগ্রি কেনাকাটায় অনিয়মের অভিযোগ

  • করোনায় ঢাবি অ্যালামনাই অ্যাসোসিয়েশনের সদস্য আজিজুর রহমানের মৃত্যু

  • গোপালগঞ্জে পুলিশি নির্যাতনে কৃষকের মৃত্যুর অভিযোগ

  • করোনার উপসর্গ নিয়ে প্রাণ গেলো ১০ জনের

  • অর্থের অভাবে চিকিৎসা বঞ্চিত দেশের দীর্ঘদেহী মানব সুবেল হোসেন

  • 'উন্নয়ন প্রকল্প গ্রহন করতে হবে প্রকৃতি ও প্রতিবেশকে রক্ষা করেই'

  • ডিএমপি কমিশনারকে ঘুষের প্রস্তাব যুগ্ম কমিশনারের; প্রত্যাখান করে আইজিপিকে চিঠি

  • ডা. জাফরুল্লাহর কিছুটা শারীরিক অবনতি ঘটেছে

  • সুনামগঞ্জে করোনায় আক্রান্ত হয়ে মুক্তিযোদ্ধার মৃত্যু

  • খাগড়াছড়িতে অবৈধ ইটভাটা ও শতাধিক তামাক চুল্লিসহ পরিবেশ বিপর্যয়কর কর্মকাণ্ড চলছে

  • সড়কে ছবি একে করোনায় সচেতনতা বৃদ্ধি করেছ 'চেতনায় চাটমোহর'

সিলেটের কবিরের হাল না ছাড়ার গল্প

সিলেটের কবিরের হাল না ছাড়ার গল্প

মাত্র ১১ বছর বয়সে বন্ধ হয়ে যায় পড়ালেখা। ব্রিটিশ নাগরিক লুক ডুয়েলের সহায়তায় শেখেন ইংরেজী ও কম্পিউটার শিক্ষা। এখন সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের বিনামূল্যে কম্পিউটার প্রশিক্ষণ দিচ্ছেন তিনি। সিলেটের যুবক কবির উদ্দীন এভাবে কাটছে সময়।

সিলেটের খাদিমপাড়া। কম্পিউটারে জটিল সব কাজ করছেন নানা বয়সের শিশু কিশোররা। কেউ শিখছেন প্রোগ্রামিং, কেউ গ্রাফিক্স। শেখার ধরন ভিন্ন হলেও যে বিষয়ে মিল, তা হচ্ছে, সবাই কাজ শিখছেন বিনামূল্যে।

২০০৪ সালে ১১ বছর বয়সে পড়ালেখা ছেড়ে দেন, কৃষক বাবার সন্তান কবির উদ্দিন। ওই বছর পরিচয় হয় ব্রিটিশ নাগরিক লুক ডুয়েলের সাথে। এরপরই বদলে যেতে থাকে তার জীবনের গল্প। লুক ডুয়েল অবসরে কবিরকে ইংরেজি ভাষা শেখানোর পাশাপাশি কম্পিউটারেও আগ্রহী করে তোলেন। ভর্তি করেন ইংরেজি মাধ্যম স্কুলে।

পড়ালেখা শেষ করে কম্পিউটারে ডিপ্লোমা অর্জন করেন কবির। এরপর চাকরির পেছনে না ছুটে শুরু করেন ঝরেপড়া শিশুদের দক্ষ করে গড়ে তোলার কাজ। প্রায় তিন বছর ধরে সাড়ে তিনশো শিক্ষার্থীকে বিনামূল্যে কম্পিউটার শেখাচ্ছেন কবির।

এ বিষয়ে কবিরের জীবন বদলে দেয়া লুক ডুয়েল জানান, তিনি এমন কিছু করতে চেয়েছেন যাতে একজনের মাধ্যমে আরও দশজন উপকৃত হন। কবির সে পথেই হাঁটছেন।

কবিরের বাসায় সুবিধাবঞ্চিত শিশু-কিশোররার বিনামূল্যে কম্পিউটার শিখলেও তাদের দিয়েই নানা রকম ফ্রিল্যান্সিংয়ের কাজ করেন কবির যা দিয়ে চলে তার সংসার।

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

দেশ 24 খবর