channel 24

সর্বশেষ

  • স্বর্ণ আমদানি নিয়ে চাঞ্চল্যকর তথ্য

  • ৮৭ দিন পরে সীমিত পরিসরে চালু রাইড শেয়ারিং সার্ভিস

  • করোনায় অসহায় জীবন কাটাচ্ছেন দেশে ফেরা প্রবাসী কর্মীরা

  • বিদেশি শিক্ষার্থীদের যুক্তরাষ্ট্র ছাড়ার সিদ্ধান্তে বিপাকে লাখো শিক্ষার্থী

  • ফেসবুক কথোপকথনে ভরসা করে প্রায় আট লাখ টাকা খোয়ালেন ষাটোর্ধ্ব ব্যক্তি

  • করোনায় বিশ্বে আক্রান্ত এক কোটি ২৬ লাখ ৮৩ হাজারের বেশি

  • শেষ পর্যন্ত জনসম্মুখে মাস্ক পরলেন ট্রাম্প

  • উত্তরাঞ্চলে পানিবন্দি লাখো মানুষ

  • পাহাড়ি ঢলে তলিয়ে গেছে সুনামগঞ্জ

  • করোনায় আক্রান্ত অমিতাভ বচ্চন

  • পাপুলকাণ্ডে গ্রেপ্তার কুয়েতের সেনা কর্মকর্তা

  • রিজেন্ট হাসপাতাল ও জেকেজি সম্পর্কে জানা ছিল না: স্বাস্থ্য অধিদপ্তর

  • রিজেন্ট চেয়ারম্যান সাহেদের পাসপোর্ট জব্দ

  • লাভের আশায় গরু পালন করে দাম নিয়ে দুশ্চিন্তায় খামারীরা

  • আগামী মাসে মাঠে গড়াচ্ছে ক্যারিবিয়ান প্রিমিয়ার লিগ

৫৮ বছরের মধ্যে সর্বোচ্চ লবণ উৎপাদন কক্সবাজারে

৫৮ বছরের মধ্যে সর্বোচ্চ লবণ উৎপাদন কক্সবাজারে

গত ৫৮ বছরের মধ্যে চলতি মৌসুমে সর্বোচ্চ লবণ উৎপাদিত হয়েছে কক্সবাজার জেলায়। যার পরিমাণে ১৮ লাখ ২০০ মেট্রিক টন। বাংলাদেশ ক্ষুদ্র ও কুটিরশিল্প সংস্থার (বিসিক) সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

বিসিকের তথ্যমতে, তীব্র দাবদাহের কারণে কক্সবাজারে লবণ উৎপাদন অতীতের সব রেকর্ড ছাড়িয়ে গেছে। এবার প্রায় ৬০ হাজার একর জমিতে লবণ চাষ হয়েছে। পুরো মৌসুমে মাত্র ১২ দিন লবণ উৎপাদন ব্যাহত হয়েছিল।

কক্সবাজার জেলা সদরসহ মহেশখালী, কুতুবদিয়া, টেকনাফ, পেকুয়া, চকরিয়া উপজেলায় এখন প্রতিদিন গড়ে উৎপাদিত হচ্ছে ৩০ হাজার মেট্রিক টন। অন্যবার এ সময় উৎপাদন হতো ২০ হাজার টন। এখন চলতি মৌসুমের লবণ চাষ শেষ দিকে রয়েছে।

তবে প্রান্তিক চাষিরা উৎপাদনে খুশি হলেও দাম নিয়ে এখন হতাশ। প্রতি মণ দাম লবণের ২৫০ টাকা থেকে কমে ১৮০ টাকা হয়েছে।

বিসিকের তথ্যমতে, এ বছর দেশে লবণের মোট চাহিদা ১৬ লাখ ৬১ হাজার মেট্রিক টন। লবণ উৎপাদনের লক্ষ্যমাত্রা ধরা হয়েছিল প্রায় ১৮ লাখ মেট্রিক টন। পলিথিন প্রযুক্তির কারণে লবণ চাষ বেড়েছে।

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

দেশ 24 খবর