channel 24

সর্বশেষ

  • নোয়াখালীর হাতিয়ার যুবলীগ কর্মীকে কুপিয়ে হত্যার অভিযোগ

  • শ্রীলঙ্কা ফেরত ক্রিকেটাররা অনুশীলনে যোগ দেবেন কাল

  • বাংলাদেশে আসছে না শ্রীলঙ্কার সিনিয়র ক্রিকেটাররা

  • ছন্দে ফিরতে চান মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন

  • ঈদ কেনাকাটায় মানুষের ঢল

  • চট্টগ্রামে ইবাদত বন্দেগির মাধ্যমে পালিত হচ্ছে জুমাতুল বিদা

  • সরকার আন্তরিক হলেও খালেদা জিয়াকে বিদেশ নেয়া সময় সাপেক্ষ

  • কুড়িগ্রামের শপিংমলে ক্রেতা সমাগম; মানা হচ্ছে না স্বাস্থ্যবিধি

  • সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে গাছ কাটার বিরুদ্ধে প্রতিবাদ

  • দেশে করোনায় ৫ সপ্তাহের মধ্যে সর্বনিম্ন মৃত্যু

  • চট্টগ্রামে প্রতিবন্ধীদের মাঝে ঈদ উপহার

  • বন্দরনগরীর মার্কেটগুলোতে প্রচুর ক্রেতা সমাগম

  • সফল মেকআপ আর্টিস্ট প্রতিবন্ধী হান্না ওলেটেজুর

  • ব্যাকটেরিয়ার আক্রমণ চিংড়ি হ্যাচারিতে; ক্ষতির মুখে মালিকরা

  • হালিশহরে অজ্ঞাত যুবকের মরদেহ উদ্ধার

থমথমে বাঁশখালীর গণ্ডামারা; সংঘর্ষের ঘটনায় দুটি মামলা

থমথমে বাঁশখালীর গণ্ডামারা; সংঘর্ষের ঘটনায় দুটি মামলা

চট্টগ্রামের বাঁশখালীতে বিদ্যুৎ প্ল্যান্টে সহিংসতার ঘটনায় ২টি মামলা হয়েছে। যাতে আসামী কয়েকহাজার। ঘটনাস্থল এখনো থমথমে। কাজ শুরু করেছে তদন্ত কমিটি। এরমধ্যে সবচেয়ে বেশি আলোচনা হচ্ছে শনিবারের সহিংসতায় শ্রমিকরা ছাড়াও যে বহিরাগতদের কথা বলা হচ্ছে তারা কারা?

শনিবার চট্টগ্রামের বাঁশখালীর গন্ডামারায় নির্মাণাধীন এস এস পাওয়ার বিদ্যুৎ কেন্দ্রে পুলিশের সাথে সংঘর্ষে ৫ শ্রমিকের মৃত্যু ও পুলিশসহ ২০জনের বেশি আহত হওয়ার ঘটনায় থমথমে অবস্থা বিরাজ করছে সেখানে। প্ল্যান্টে কাজ চলছে সীমিত পরিসরে।

এ ঘটনায় পুলিশ ও বিদ্যুৎ কেন্দ্রের পক্ষ থেকে পৃথক দুটি মামলা হয়েছে। যাতে আসামী করা হয় কয়েক হাজার ব্যক্তিকে। কাজ শুরু করেছে তদন্ত কমিটিও। 

এদিকে, বিদ্যুৎ কেন্দ্রটিতে ফের সহিংসতায় আবারো প্রশ্ন উঠেছে বারবার কেন লাশ পড়ছে সেখানে। কেননা নির্মাণকাজ শুরুর আগে ২০১৬ সালে ৪জনের প্রাণহানীর পর আরেক দফায় অস্থির হয়ে উঠেছিল গন্ডামারা। অবশ্য প্রশাসন বলছে সবকিছু খতিয়ে দেখার কথা।

অভিযোগ, স্থানীয় একটি মহলের ইন্ধন ছিল শনিবারের ঘটনায়। শ্রমিকরা শান্তই ছিল। তবে হঠাৎ করে পরিস্থিতি অস্থির করে তোলে একদল বহিরাগত। আবার প্রশ্ন উঠেছে গুলি কি পুলিশ চালিয়েছে? নাকি তাতে যোগ দেয় অন্য কেউও। পুলিশ নয় এমন কয়েকজনকে ছবিতে দেখা যাচ্ছে গুলি করতে। স্থানীয় চেয়ারম্যান ও ২০১৬ সালের আন্দোলনে নেতৃত্ব দেয়া লেয়াকত আলী অবশ্য পুরো ঘটনাকে দেখছেন বাইরের ষড়যন্ত্র হিসেবে। যদিও বিদ্যুৎ প্ল্যান্টের দরপত্রসহ বিভিন্ন কাজ নিয়ে অসন্তোষ রয়েছে স্থানীয় কারো কারো।    

বেতন পরিশোধ ও রমজানে কর্মঘন্টা কমিয়ে আনাসহ নানা দাবিতে শুক্রবার অস্থির হয়ে ওঠে এস এস পাওয়ার প্ল্যান্ট।

 

 

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

চট্টগ্রাম 24 খবর