channel 24

সর্বশেষ

  • হলি লাইফ মাদকাসক্তি নিরাময় কেন্দ্রে নির্যাতনে রোগী মৃত্যুর অভিযোগ

  • সমন্বিত ক্রিকেট ক্যালেন্ডার তৈরির চেষ্টায় বিসিবি

  • প্রধানমন্ত্রীর প্রকল্পে দুর্নীতি; বেরোবির ভিসি কলিমুল্লাহর বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়ার সুপারিশ

  • মার্চে বিশ্বকাপ বাছাই ম্যাচ না হলে ফিফা ফ্রেন্ডলি খেলতে চান জেমি ডে

  • ইনজুরি কাটিয়ে টি টোয়েন্টিতে ফিরছেন লকি ফার্গুসন

  • তদন্ত কর্মকর্তা কি আসামিকে অব্যাহতি দেয়ার ক্ষমতা রাখেন, প্রশ্ন হাইকোর্টের

  • বিপিএল ফুটবলে আবারো ড্র শেখ জামালের

  • বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগে জিতেছে মোহামেডান

  • বিজেপিতে যোগ দিচ্ছেন সৌরভ গাঙ্গুলি!

  • শর্তের বেড়াজালে রাজশাহীতে সমাবেশ করলো বিএনপি

  • করোনায় আরও ৭ জনের মৃত্যু

  • ইন্দোনেশিয়ায় মাউন্ট সিনাবাং আগ্নেয়গিরিতে ভয়াবহ অগ্ন্যুৎপাত

  • ১ লাখ ৯৭ হাজার কোটি টাকার সংশোধিত এডিপি অনুমোদন

  • সাভারে ঝুট ব্যবসা নিয়ে সংঘর্ষ, আহত ৫

  • গাড়ি আমদানিতে সুনির্দিষ্ট শুল্ক নির্ধারণের প্রস্তাব বারভিডার

উখিয়ায় স্থানীয় কিশোরকে গলাকেটে হত্যা করলো রোহিঙ্গা যুবক

উখিয়ায় স্থানীয় কিশোরকে গলাকেটে হত্যা করলো রোহিঙ্গা যুবক

কক্সবাজারের উখিয়ায় রোহিঙ্গা যুবক কর্তৃক স্থানীয় এক দোকান কর্মচারীকে জবাই করে হত্যা করা হয়েছে। রোববার ভোরে উখিয়া উপজেলার রত্নাপালং ইউনিয়নের কোটবাজার স্টেশনে এ হত্যাকাণ্ডের ঘটনা ঘটে বলে জানান স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান খাইরুল আলম চৌধুরী।

নিহত মো. ফোরকান আহমদ ওরফে কালু (১৪) উখিয়ার রত্নাপালং ইউনিয়নের তেলিপাড়ার বশির আহমদের ছেলে। তবে ঘাতক রোহিঙ্গা যুবক বলে জানা গেলেও তার নাম ও পরিচয় নিশ্চিত করতে পারেননি স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান।

উখিয়ার থানার পরিদর্শক (তদন্ত) গাজী সালাহউদ্দিন জানান, হত্যাকাণ্ডের খবর পেয়ে পুলিশ পৌঁছে ঘটনাস্থল ঘিরে রেখেছে। সিআইডির বিশেষজ্ঞ দল আসার পর মৃতদেহটি উদ্ধার করা হবে।

ইউপি চেয়ারম্যান খাইরুল আলম দোকান মালিকের বরাত দিয়ে বলেন, রত্নাপালং ইউনিয়নের তেলিপাড়ার বাসিন্দা শাহ আলমের মালিকাধীন কোটবাজার স্টেশনে 'মুক্তা ডেকোরেশন' নামের একটি দোকান রয়েছে। দোকানটিতে কাজ করত একই এলাকার ফোরকান আহমদ ওরফে কালু নামের স্থানীয় এক কর্মচারী। বলেন, "গত সপ্তাহখানেক আগে ফোরকান পূর্ব পরিচিত উখিয়ার রোহিঙ্গা ক্যাম্পের বাসিন্দা এক যুবককে দোকানে কাজ করতে নিয়ে আসে। তারা দোকানেই রাত্রিযাপন করত।"

ইউপি চেয়ারম্যান বলেন, "প্রতিদিনের মত শনিবার রাতেও ফোরকান ও রোহিঙ্গা যুবকে রাত্রিযাপনের জন্য দোকানে থেকে যায়। দোকান মালিক শাহ আলম রাতে খাবারের জন্য টাকা দিয়ে বাড়ীতে ফিরে যান। মধ্যরাতে বা ভোর রাতের যে কোন সময় ফোরকানকে জবাই করে হত্যা করে রোহিঙ্গা যুবক। পরে দোকানের ক্যাশ লুট করে রোহিঙ্গা যুবক পালিয়ে যায়।"

খাইরুল বলেন, "সকালে শাহ আলম এসে দেখেন দোকানটি বাহির থেকে তালাবদ্ধ। ডাকাডাকির পরও কোন সাড়াশব্দ না পাওয়ায় তালা ভেঙে ভিতরে ঢুকেন। এসময় দোকানের মেঝেতে ফোরকান জবাই করে হত্যার কারণে মৃতাবস্থায় দেখতে পান।"

পরিদর্শক (তদন্ত) গাজী সালাহউদ্দিন জানান, সিআইডির বিশেষজ্ঞ দল ঘটনাস্থলে পৌঁছার পর মৃতদেহটি ময়নাতদন্তের জন্য কক্সবাজার সদর হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করা হবে।

হত্যাকাণ্ডেরর কারণ সম্পর্কে জানতে পুলিশ তদন্তকাজ অব্যাহত রেখেছে বলে জানান তিনি।

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

চট্টগ্রাম 24 খবর