channel 24

সর্বশেষ

  • বাংলাদেশের কোয়ারেন্টিন ইস্যুতে এখনো ধোঁয়াশায় লঙ্কান ক্রিকেট

  • 'ব্যক্তি নয়, টিম হিসেবেই চলছে ফেডারেশন'

  • প্রচারণায় সরগরম বাফুফে নির্বাচন

  • এবার ১৪ বছর কনডেম সেলে থাকা আসামিকে খালাস

  • করোনা মোকাবিলায় প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনা বই আকারে সংরক্ষণ

  • অর্থনীতি সচল রেখে করোনার দ্বিতীয় ওয়েভ মোকাবিলা করা হবে

  • তরুণীর করা মামলায় নুরের বিরূদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

  • কুড়িগ্রামে কাঠমিস্ত্রি হত্যা মামলায় একজনের মৃত্যুদণ্ড

  • এবার স্বাস্থ্য কর্মকর্তাদের স্ত্রী-সন্তানের সম্পদের খোঁজে দুদক

  • উচ্চ পুষ্টিমান ও ঔষধি গুণসম্পন্ন মাশরুম

  • চট্টগ্রামে করোনায় নতুন করে আক্রান্ত ৫৬

  • মাঝারি বর্ষণ পানিবন্দী চট্টগ্রামের বেশ কিছু এলাকা

  • চট্টগ্রাম বন্দরে কম্পিউটার অপারেটর পদে কোটা না মানার অভিযোগ

  • নুরের বিরুদ্ধে ধর্ষণ-ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলার প্রতিবেদন ১৩ অক্টোবর

  • চট্টগ্রামে দোকান কর্মচারীকে পিটিয়ে হত্যায় মামলা দায়ের, আটক ২

মেজর (অব.) সিনহার মৃত্যুতে প্রত্যক্ষদর্শীর বয়ানের সাথে মিল নেই এজাহারের

মেজর (অব.) সিনহার মৃত্যুতে প্রত্যক্ষদর্শীর বয়ানের সাথে মিল নেই এজাহারের

কক্সবাজারে পুলিশের গুলিতে সাবেক সেনা কর্মকর্তা রাশেদ নিহতের ঘটনায় প্রত্যক্ষদর্শী আর পুলিশের করা মামলার এজাহারে বিস্তর ফারাক। প্রত্যক্ষদর্শীরা বলছেন, চেকপোস্টে হাত উঁচিয়ে গাড়ি থেকে বের হন রাশেদ। কিন্তু পুলিশের ভাষ্য তিনি গুলি করতে চেয়েছিলেন। তথ্যের এমন গরমিলের মধ্যেই উচ্চ পর্যায়ের তদন্ত কমিটি কাজ শুরু করেছে। কমিটির প্রধান জানান, নির্ধারিত সময়েই রিপোর্ট দেয়া হবে।

চট্টগ্রামের অতিরিক্ত বিভাগীয় কমিশনার মোহাম্মদ মিজানুর রহমানের নেতৃত্বে গঠিত তদন্ত কমিটি সকালে কক্সবাজারে বৈঠকে বসেন। প্রাথমিক তথ্য উপাত্ত নিয়ে কয়েক ঘণ্টা আলোচনার পর বিকালে যান ঘটনাস্থলে।

ঘটনাস্থলে গিয়ে তদন্তে প্রয়োজনীয় তথ্য উপাত্ত সংগ্রহ করে কমিটি। নেন বেশ কয়েকজনের সাক্ষ্য। তবে গণমাধ্যমের সাথে কমিটি কোনো কথা বলেনি।

ঘটনার দিন বিকালে টেকনাফের বাহারছড়ায় মরিষবনিয়া এলাকায় যান নিহত মেজর রাশেদ ও তার সঙ্গী সিফাত। স্থানীয় দুই শিশুর দেখানো পথে পাহাড়ে ওঠেন তারা। পাঁচ ঘণ্টা পর তারা ফিরে আসার সময় পাহাড়ে টর্চের আলো দেখায় স্থানীয়রা ডাকাত সন্দেহে মাইকিং করে মসজিদে। খবর দেয়া হয় পুলিশেও।

পাহাড় থেকে বেরিয়ে গাড়ি নিয়ে ফেরার পথেই ঘটে অনাকাঙ্খিত ঘটনা। প্রত্যক্ষদর্শী একজন বলছেন, হাত উঁচিয়ে গাড়ি থেকে বের হওয়ার পরই গুলি করা হয় রাশেদেক।

তবে পুলিশের করা মামলার এজাহারের বর্ণনা পুরো উল্টো। সেখানে বলা হয়েছে, মেজর পরিচয় দেয়া ব্যক্তি নিজের পিস্তল দিয়ে গুলি করতে উদ্যত হলে, ইন্সপেক্টর লিয়াকত আত্মরক্ষার্থে চার রাউন্ড গুলি করেন। পরে তার মৃত্যু হয়।

এমন বিপরীত চিত্রের বাস্তবতাতেই কাজ শুরু করলো তদন্ত কমিটি। যেখানে অতিরিক্ত বিভাগীয় কমিশনারের নেতৃত্বে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়, পুলিশের প্রতিনিধিসহ আছেন কক্সবাজারের অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট। সাত কর্মদিবসের মধ্যে তাদের প্রতিবেদন দেয়ার কথা আছে।

 

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

চট্টগ্রাম 24 খবর