channel 24

সর্বশেষ

  • সাবেক স্বাস্থ্যমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম করোনায় আক্রান্ত

  • প্রধানমন্ত্রী ঘোষিত সুদ ছাড়ের প্রণোদনা পাবে মার্চেন্ট ব্যাংকগুলো

  • করোনাকালে ভুতুড়ে বিদ্যুৎ বিল নিয়ে গ্রাহকদের ক্ষোভ

  • লিবিয়ায় ২৬ বাংলাদেশিকে হত্যা: বাচ্চু মিলিটারি ৫ দিনের রিমান্ডে

  • পঞ্চগড়ে বজ্রপাতে বাবা ছেলেসহ ৩ জনের মৃত্যু

  • বাস-লঞ্চে উধাও স্বাস্থ্যবিধি

  • স্বাস্থ্যবিধি অমান্য করায় এমভি প্রিন্স লঞ্চ জব্দ

  • লকডাউন শেষে মুক্ত হলো আকাশপথ, চলছে উড়োজাহাজ

  • লিবিয়ায় নিহতদের স্বজনরা মুক্তিপণের টাকা হাজী কামালকে দিয়েছিলেন

  • হিলি রেলপথ দিয়ে ভারত থেকে দ্বিতীয় দফায় পেঁয়াজ আমদানি হয়েছে

  • না ফেরার দেশে চলে গেলেন প্রধানমন্ত্রীর উপ-প্রেস সচিব আশরাফুল আলমের বাবা

  • লেনদেন বাড়লেও দুই স্টক এক্সচেঞ্জে বড় দরপতন

  • ২৬ বাংলাদেশি হত্যাকাণ্ডের বিষয়ে কঠোর নিন্দা জানিয়েছে লিবিয়ার সরকার

  • 'আমেরিকায় বর্ণবৈষম্য করোনা ভাইরাসের চাইতেও ভয়ংকর'

  • তামিম ইকবাল ডব্লিউএফপি'র জাতীয় গুডউইল অ্যামবাসাডর হিসেবে নিযুক্ত

রোহিঙ্গা ক্যাম্পে করোনা সংক্রমণ রোধে বিশেষ ব্যবস্থা

রোহিঙ্গা ক্যাম্পে করোনা সংক্রমণ রোধে বিশেষ ব্যবস্থা

রোহিঙ্গা ক্যাম্পে যাতে করোনার সংক্রমণ না হয় সেজন্য নেয়া হচ্ছে বিশেষ ব্যবস্থা। কক্সবাজারের জেলা প্রশাসক জানান, পরিস্থিতি মোকাবিলায় সব কিছুই করছে সরকার। সংকট বাড়লে কমিয়ে দেয়া হবে সেবাকর্মীর সংখ্যা। সে সময় অগ্রাধিকার পাবে স্বাস্থ্য, পুষ্টি, ও জরুরি চিকিৎসাসহ বেশকিছু সেবা।

কক্সবাজারে ক্যাম্পগুলোতে ঘনবসতিপূর্ণ অবস্থায় বসবাস, প্রাণ ভয়ে মিয়ানমার থেকে পালিয়ে আসা ১১ লাখ রোহ্ঙ্গিার। তাই কেউ করোনায় আক্রান্ত হয়ে, তা দ্রুত ছড়িয়ে পরার আশঙ্কা করছে জাতিসংঘ। এতে ঝুঁকির মুখে পরবেন, ১১ লাখ রোহিঙ্গাসহ ১০ হাজার উন্নয়নকর্মী।

এ অবস্থায় করোনা রোধে দুটি পর্যায় নির্ধারণ করেছে জাতিসংঘ। প্রথমটি প্রয়োজনীয় পরিকল্পনা, দ্বিতীয়টি ঝুঁকিপূর্ণ ব্যবস্থাপনা। রোহিঙ্গাদের দেখভালের দায়িত্বে থাকা স্বাস্থ্যখাতের কোর গ্রুপের পরামর্শে এ দুটি ধাপ নির্ধারণ করা হয়েছে। তবে ন্যূনতম ১০ জন করোনায় আক্রান্ত হলে ঝুঁকিপূর্ণ অবস্থা ঘোষণা করা হতে পারে।

এরই মধ্যে কক্সবাজার জেলা লকডাউন ঘোষণা করা হয়েছে। জেলা প্রশাসক বলছেন, রোহিঙ্গাদের দেখভালে যথেষ্ট ব্যবস্থা রয়েছে তাদের। পরিস্থিতি খারাপ হলে, রোহিঙ্গাদের সেবা দেয়া কর্মীর সংখ্যা কমিয়ে দেয়া হবে। জাতিসংঘের পরামর্শ, প্রয়োজনে সেবা দেয়া যেতে পারে

সেনাবাহিনীর মাধ্যমে। যেখানে স্বাস্থ্য সেবা, পুষ্টি সেবা, কোভিড নাইনটিন সংক্রমণ ব্যবস্থাপনা, জরুরি চিকিৎসাসহ বেশকিছু সুবিধার কথা বলা হয়েছে।

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

চট্টগ্রাম 24 খবর