channel 24

সর্বশেষ

  • ৮৭ দিন পরে সীমিত পরিসরে চালু রাইড শেয়ারিং সার্ভিস

  • করোনায় অসহায় জীবন কাটাচ্ছেন দেশে ফেরা প্রবাসী কর্মীরা

  • বিদেশি শিক্ষার্থীদের যুক্তরাষ্ট্র ছাড়ার সিদ্ধান্তে বিপাকে লাখো শিক্ষার্থী

  • ফেসবুক কথোপকথনে ভরসা করে প্রায় আট লাখ টাকা খোয়ালেন ষাটোর্ধ্ব ব্যক্তি

  • করোনায় বিশ্বে আক্রান্ত এক কোটি ২৬ লাখ ৮৩ হাজারের বেশি

  • শেষ পর্যন্ত জনসম্মুখে মাস্ক পরলেন ট্রাম্প

  • উত্তরাঞ্চলে পানিবন্দি লাখো মানুষ

  • পাহাড়ি ঢলে তলিয়ে গেছে সুনামগঞ্জ

  • করোনায় আক্রান্ত অমিতাভ বচ্চন

  • পাপুলকাণ্ডে গ্রেপ্তার কুয়েতের সেনা কর্মকর্তা

  • রিজেন্ট হাসপাতাল ও জেকেজি সম্পর্কে জানা ছিল না: স্বাস্থ্য অধিদপ্তর

  • রিজেন্ট চেয়ারম্যান সাহেদের পাসপোর্ট জব্দ

  • লাভের আশায় গরু পালন করে দাম নিয়ে দুশ্চিন্তায় খামারীরা

  • আগামী মাসে মাঠে গড়াচ্ছে ক্যারিবিয়ান প্রিমিয়ার লিগ

  • আবারও মনোবিদ আজহার আলীর ওপর আস্থা বিসিবির

নিখোঁজের এক বছরেও সন্ধান মেলেনি সাতকানিয়ার নুরুল মাস্টারের

নিখোঁজের এক বছরেও সন্ধান মেলেনি সাতকানিয়ার নুরুল মাস্টারের

নিখোঁজের এক বছরেও সন্ধান মেলেনি চট্টগ্রামের সাতকানিয়ার বাসিন্দা নুরুল হোসেন মাস্টারের। পরিবারের সন্দেহ, পরিকল্পিতভাবে অপহরণ করা হয়েছে তাকে। এঘটনায় মামলা হলেও কূলকিনারা করতে না পেরে চূড়ান্ত রিপোর্ট দেয় পিবিআই। এরপর বাদীপক্ষের আপত্তির পর এখন মামলাটি তদন্ত করছে সিআইডি।

প্রিয় বাবাকে খুঁজতে কখনো কখনো পথে পথে ঘোরেন আবু শামা। এভাবে খুঁজতে খুঁজতে দিন-মাস পেরিয়ে কেটে গেছে একটি বছর। ২০১৮ সালের ২৭ অক্টোবর। চট্টগ্রামের সাতকানিয়ার নলুয়া ইউনিয়নের নুরুল হোসেন মাস্টার সকালে বের হন বাড়ি থেকে। চিকিৎসকের পরামর্শ নিতে যান প্রায় ৪ কিলোমিটার দূরে কেরানিহাটে। তবে আর বাড়ি ফেরা হয়নি তার।

এ ঘটনায় গতবছরের ডিসেম্বরে একটি অপহরণ মামলা হয় আদালতে। যাতে অজ্ঞাতপরিচয় কয়েকজনকে আসামী করা হয়। যা তদন্তের দায়িত্ব পায় পিবিআই। তবে কোন কূলকিনারা হয়নি। কয়েকমাস তদন্ত শেষে রিপোর্ট দেয় সংস্থাটি। যদিও পরিবারের সন্দেহ, জায়গা নিয়ে বিরোধের জেরে প্রতিপক্ষ অপহরণের পর গুম করেছে নুরুল হোসেন মাস্টারকে।
 
পিবিআইয়ের রিপোর্টে সন্তুষ্ট না হওয়ায় আদালতে নারাজি দেয় বাদিপক্ষ। এখন আদালতের নির্দেশে মামলাটি তদন্ত করছে সিআই।

চট্টগ্রাম বিশেষ পুলিশ সুপার সিআইডি ড. মো. নাজমুল করিম খান জাননা, মামলার তদন্ত কাজ শেষ হলেও কিছু কিছু বিষয় এখনও খতিয়ে দেখা হচ্ছে। তবে আগামি ছয় মাসের মধ্যে রিপোর্ট দেয়া সম্ভব হবে।

শিগগিরই নুরুল হোসেন মাস্টারের অন্তর্ধান রহস্যের জট খুলবে এমন আশা তার পরিবারের।

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

চট্টগ্রাম 24 খবর