channel 24

সর্বশেষ

  • নিউজিল্যান্ডে নিজেদের সামর্থ্যে আস্থা রাখতে চান মাহমুদউল্লাহ

  • ‘কড়ি খেলা’য় হৃদলেখা স্বস্তিকা

  • সাভারের মেইটকা গ্রামকে নিরাপদ সবজি গ্রাম ঘোষণা

  • সরকারের পক্ষ থেকে কখনো চাপ আসেনি: দুদকের বিদায়ী চেয়ারম্যান

  • হবিগঞ্জে উদ্ধারকৃত ১৮টি রকেট সেল ধ্বংস করলো বিজিবি

  • ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তি কার্যক্রম শুরু

  • খালেদা জিয়ার দণ্ড স্থগিতের মেয়াদ বাড়ছে আরও ৬ মাস

  • নীলফামারীতে রিমু হত্যা মামলায় রিজভীকে ফাঁসানোর অভিযোগে মানববন্ধন

  • দেশের কিছু নির্বোধ ৭ মার্চের ভাষণের তাৎপর্য বোঝেনি: প্রধানমন্ত্রী

  • কুমিল্লায় আদালতের খাস কামরায় খুনের ঘটনায় যুবকের মৃত্যুদণ্ড

  • বরিশালে ছাত্রলীগ নেতার পরিচয়ে শোরুমে হামলার ঘটনায় মামলা, আটক ৫

  • সাংবাদিক মুজাক্কির হত্যায় আসামি বেলাল তিনদিনের রিমান্ডে

  • ফটিকছড়ির যুবক তোতা হত্যা মামলায় ৯ জনের মৃত্যুদণ্ড

  • নির্মম বাস্তবতায় জীবন যুদ্ধ চালিয়ে যাচ্ছেন সার্ফার নাসিমা

  • রাঙামাটি ও বান্দরবানে আন্তর্জাতিক নারী দিবস পালিত

ঘোষিত লভ্যাংশের অবণ্টিত অর্থ খরচ হবে পুঁজিবাজারের স্থিতিশীলতায়

ঘোষিত লভ্যাংশের অবণ্টিত অর্থ খরচ হবে পুঁজিবাজারের স্থিতিশীলতায়

পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত কোম্পানির ঘোষিত লভ্যাংশের অবণ্টিত অর্থ সংগ্রহের উদ্যোগ নিয়েছে নিয়ন্ত্রক সংস্থা বিএসইসি। গেলো ১৪ জানুয়ারি লভ্যাংশ বিতরণ সংক্রান্ত সংস্থাটির এক নির্দেশনায় বলা হয়, ঘোষিত লভ্যাংশের অবণ্টিত অংশ ৩ বছরের মধ্যে কেউ দাবি না করলে তা জমা দিতে হবে কমিশন নির্দেশিত ফান্ডে। যা বিনিয়োগ করা হবে পুঁজিবাজারের স্থিতিশীলতায়। এ সিদ্ধান্তকে সাধুবাদ জানান, পুঁজিবাজার বিশ্লেষকরা। একইসঙ্গে ফান্ড ব্যবস্থাপনায় সুশাসন নিশ্চিতের পরামর্শ তাদের।

পুঁজিবাজারে অর্থের প্রবাহ বাড়াতে নানামুখি উদ্যোগ নিচ্ছে নিয়ন্ত্রক সংস্থা- বিএসইসি। এরই অংশ হিসেবে এবার পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত কোম্পানির ঘোষিত লভ্যাংশের অবন্টিত অর্থ সংগ্রহ করে ফান্ড গঠনের উদ্যোগ নিয়েছে কমিশন।

১৪ জানুয়ারি তালিকাভুক্ত কোম্পানি লভ্যাংশ বিতরণ সংক্রান্ত একটি নির্দেশনা জারি করে বিএসইসি। যাতে বলা হয়, ঘোষিত লভ্যাংশের অর্থ ১০ দিনের মধ্যে একটি বিশেষ হিসাবে জমা দিতে হবে। যা এজিএমে অনুমোদনের ৩০ দিনের মধ্যে বিনিয়োগকারির হিসাবে জমা দিতে হবে। মিউচ্যুয়ালের ফান্ডের ক্ষেত্রে এ সীমা ৪৫ দিন। অবন্টিত অর্থ ৩ বছরের মধ্যে কেউ দাবি না করলে, তা নিয়ন্ত্রক সংস্থার নির্দেশিত ফান্ডে জমা দিতে হবে। পরে তা বিনিয়োগে আসবে পুঁজিবাজারে।(গ্রাফিক্স)

বিএসইসির এই নির্দেশনাকে ইতিবাচক হিসাবে দেখছেন, পুঁজিবাজার বিশ্লেষকরা। তবে এ স্টক ব্রোকার মতে এই ফান্ড ব্যবস্থাপনার দায়িত্ব আইসিবিকে দেয়া ঠিক হবে না।

২১ হাজার কোটি টাকা লভ্যাংশ অবন্টিত আছে বলে বিভিন্ন আলোচনায় তথ্য দিয়েছে বিএসইসির চেয়ারম্যান।

 

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

বিজনেস 24 খবর