channel 24

সর্বশেষ

  • শনিবার নিউজিল্যান্ডের মুখোমুখি বাংলাদেশ নারী দল

  • ওয়ানডে সিরিজের জন্য প্রস্তুত সিলেট, বাংলাদেশ-জিম্বাবুয়ের অনুশীলন

  • ফুটবল ফেডারেশন নির্বাচন ২০ এপ্রিল

  • চসিক নির্বাচনের দিন অফিস খোলার রাখার বিষয়টি বিবেচনা করা হচ্ছে: ইসি রফিকুল

  • মগবাজার দিলু রোডে আগুনে দগ্ধ দুজনের অবস্থা সংকটাপন্ন

  • রক্তপাত না বাড়িয়ে সমস্যার দ্রুত সমাধান করবে ভারত; আশা কাদেরের

  • কক্সবাজারে ভূমি অধিগ্রহণের ক্ষতিপূরণ নিয়ে ভোগান্তিতে ক্ষতিগ্রস্তরা

  • চাঁপাইনবাবগঞ্জে জলবায়ুর বিরূপ প্রভাবে দুশ্চিন্তায় আম চাষীরা

  • দোষারোপের রাজনীতিতে মেতে আছেন ভারতের রাজনীতিকরা

  • ব্রেক্সিট বাণিজ্য চুক্তি আলোচনায় যুক্তরাজ্যের প্রস্তাবে ইইউ'র সম্মতি

  • করোনাভাইরাসের প্রভাবে ধস নেমেছে বিশ্ব পুঁজিবাজারে

  • প্রযুক্তি পণ্যের বাজারেও করোনাভাইরাসের প্রভাব

  • রাজধানীতে ১২তম এশিয়া ফার্মা এক্সপো শুরু

  • শিক্ষা ব্যবস্থার আমূল পরিবর্তন নিয়ে সরকার ভাবছে: পরিকল্পনামন্ত্রী

  • দিল্লিতে সহিংসতা আঞ্চলিক শান্তি-সৌহার্দ্যের অন্তরায়: ফখরুল

গত বছরের তুলনায় কমেছে রপ্তানি আদেশ, নগদ সহায়তা চান পোশাক ব্যবাসায়ীরা

গত বছরের তুলনায় কমেছে রপ্তানি আদেশ, নগদ সহায়তা চান পোশাক ব্যবাসায়ীরা

গত বছরের তুলনায় এবছর রপ্তানি আদেশ ৬ শতাংশ কমেছে বলে জানিয়েছে ব্যবসায়ীরা। ধারাবাহিকভাবে রপ্তানি প্রবৃদ্ধি কমার সাথে সাথে রপ্তানি আদেশ কমে যাওয়ায় দুশ্চিন্তায় তারা। দেশের রপ্তানি বাড়াতে পোশাক ব্যবাসায়ীরা চাচ্ছেন নগদ সহায়তা। এ অবস্থা কাটাতে বন্দরের আধুনিকায়নসহ নানা বিষয়ে সংস্কারের তাগিদ দিচ্ছেন বিশ্লেষকরা।

চলতি অর্থবছরের সাত মাস শেষে রপ্তানি আয় দাঁড়িয়েছে প্রায় দুই হাজার ২৯২ কোটি ডলার। যা আগের বছরের একই সময়ের তুলনায় ৫ দশমিক ২১ শতাংশ কম। এরমধ্যে দেশের সবচেয়ে বড় রপ্তানি খাত পোশাকে কমেছে ৫ দশমিক ৭১ শতাংশ। আর চামড়া ও চামড়াজাত পণ্যের রপ্তানি কমেছে ১১ শতাংশ।

রপ্তানি কমার সাথে সাথে কমছে রপ্তানি আদেশও। গত বছরের তুলনায় প্রায় ৬ শতাংশ রপ্তানি আদেশ কমেছে বলে জানিয়েছেন ব্যবসায়ীরা।   

বিজিএমইএর সাবেক সভাপতি  সিদ্দিকুর রহমান বলেন, দুই দিক থেকে ব্যবসায়ীরা ক্ষতিগ্রস্থ হচ্ছেন। একদিকে রপ্তানী আদেশ যেমন কমে যাচ্ছে তেমনি অন্যদিকে লক্ষ্যমাত্রা পূরণ না করতে পারার কারণও রয়েছে।

বাংলাদেশ ট্যানার্স অ্যাশোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক শাকাওয়াত উল্লাহ বলেন, নতুন নতুন বাজার সৃষ্টি করতে না পারলে সমস্যা আরও বৃদ্ধি পাবে।

রপ্তানি আদেশ কমে যাওয়া দেশের অর্থনীতির জন্য দুশ্চিন্তার বলে মনে করেন বিশ্লেষকরা। এ অবস্থায় বন্দরের আধুনিকায়নসহ নানা বিষয়ে সংস্কারে জোর দিচ্ছেন তারা।

বিআইডিএসর জেষ্ঠ্য গবেষক নাজনিন আহমেদ বলেন, রপ্তানী প্রতিযোগীতায় টিকে থাকতে না পারাপা অন্যতম কারণ।

পিআরআইর নির্বাহী পরিচালক আহসান এইচ মনসুর বলেন, অন্যের উপর নির্ভরশীলতার কারনেই আমরা অনেক পিছিয়ে রয়েছি।

গত বছরের তুলনায় এ বছর ঢাকা আন্তর্জাতিক বাণিজ্য মেলায়ও রপ্তানি আদেশ কমেছে।

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

বিজনেস 24 খবর