channel 24

সর্বশেষ

  • থেরেসা মে'র নতুন ব্রেক্সিট বিলে মন্ত্রিসভার সমর্থন

  • মার্কেটগুলোতে চলছে ক্রেতা আকর্ষণের প্রতিযোগিতা

  • ধান খেতে আগুন অন্তর্ঘাত কিনা, খতিয়ে দেখা হবে: কাদের

  • ধানমন্ডির বাবুর্চি রেস্টুরেন্টকে ৫০ হাজার টাকা জরিমানা

  • এসএ টিভির সিইও সালাউদ্দিন জাকিসহ ৪ জনের বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা

  • দুধে ক্ষতিকর উপাদান: ভোক্তার পাশাপাশি বিপাকে খামারিরা

  • বগুড়া-৬ আসনের উপনির্বাচনে বিএনপির মনোনয়ন পাচ্ছেন গোলাম সিরাজ

  • ইন্দোনেশিয়ায় নির্বাচন পরবর্তী সহিংসতায় নিহত ৬

  • ঢাকা-নারায়ণগঞ্জ রুটে বিআরটিসির নতুন এসি বাস চালু

  • ময়নাতদন্ত পাল্টে দেয়া: সিভিল সার্জনসহ দুই চিকিৎসকের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়ার নির্দেশ

  • কঠোর হতে বাধ্য করবেন না, গ্রীন লাইনকে হাইকোর্ট

  • অনলাইনে টিকিট জটিলতা: রেলপথমন্ত্রীর দুঃখ প্রকাশ

  • ফেইসবুকে জঙ্গি হামলার গুজব; দুশ্চিন্তা না করার পরামর্শ ডিএমপির

  • বান্দরবানে সন্ত্রাসীদের দৌরাত্ম্যে আতঙ্কিত স্থানীয়রা

  • দালালদের প্রলোভনে থামছেই না অবৈধপথে বিদেশ যাত্রা

অবৈধ ভিওআইপি ব্যবসায় সরকার রাজস্ব হারাচ্ছে ২৩০০ কোটি টাকা

অবৈধ ভিওআইপি ব্যবসায় সরকার রাজস্ব হারাচ্ছে ২৩০০ কোটি টাকা

অবৈধ ভিওআইপি ব্যবসার কারণে প্রতি বছর বিদেশে পাচার হচ্ছে প্রায় সাত হাজার কোটি টাকা। আর সরকার রাজস্ব হারাচ্ছে ২ হাজার তিনশত কোটি টাকা। বিটিআরসিতে সংবাদ সম্মেলনে সংস্থাটির চেয়ারম্যান এসবের জন্য দুষলেন, মোবাইল অপারেটর কোম্পানিগুলোকে।

তিনি জানান, কয়েক দিনের অভিযানে ঢাকা ও চট্টগ্রামে ৪২ হাজার সিমসহ ১ কোটি ২৩ লাখ টাকার সরঞ্জাম উদ্ধার করা হয়েছে। গ্রেপ্তার করা হয়েছে ২৮ জনকে।

ভিওআইপির বিরুদ্ধে বেশ কিছু দিন পরপরই চলে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর অভিযান। ধরা হয় অবৈধ যন্ত্রপাতি। তারপরও নির্মূল করা যাচ্ছে না অবৈধ ভিওআইপি ব্যবসা।

বিটিআরসির পরিসংখ্যান বলছে, অবৈধ ভিওআইপি ব্যবসার কারণে বছরে অর্থপাচার হচ্ছে প্রায় সাত হাজার কোটি টাকা। রাজস্ব হারানোর পরিমাণ ২ হাজার তিনশত কোটি টাকা।

এ জন্য মোবাইল অপারেটর কোম্পানিগুলোর উদাসীনতাকে দুষছে বিটিআরসি।

সংবাদ সম্মেলনে সংস্থাটির হুঁশিয়ারি, অনিয়মের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেয়ার।

বিটিআরসির এসব অভিযোগের কোনো সদুত্তর দিতে পারেনি মোবাইল কোম্পানিগুলোর কোনো কর্মকর্তা।

ঢাকা ও চট্টগ্রামে চলা অবৈধ ভিওআইপি অভিযানে গ্রেপ্তারকৃতদের জিজ্ঞাসাবাদে আরও তথ্য পাওয়া যাবে বলে জানানো হয় সংবাদ সম্মেলনে।

বেশ কিছুদিন পারপারই চলে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর ভিওআইপির অভিযান। ধরা হয় অবৈধ যন্ত্রাদী। তবে একেবারে নির্মল করা সম্ভব হচ্ছেনা অবৈধ ভিওআইপি ব্যবস্য।

বিটিআরসির এক পরিসংখ্যান বলছে প্রতি বছর অবৈধ ভিওআইপি ব্যবস্যায় প্রায় সাত হাজার কোটি টাকা বৈদেশীক মুদ্রা হাড়াচ্ছে দেশ । আর ২৩ শত কোটি টাকা হাড়াচ্ছে রাজস্যা। সংবাদ সন্মেলনে বিটিআরসি চেয়ারম্যান বলেন এর একটি বড় দায় নিতে হবে মোবাইল অপরেটরদের। তাদের উদাসিনতায় ঘটছে এ ধরনের ঘটনা।

এসময় বিটিআরটি কর্মকর্তারা গ্রামীন ফোন বাংলালিংকসহ বেশকিছু কোম্পানীর কর্মকর্তাদের অভিযোগ করে বলেন  বায়োম্যাট্রিক করার পরও রাস্তায় ২০টাকা সিম কিভাবে বিক্রি করা হচ্ছে।  এসব কোম্পানীগুলোর বিরুদ্ধে শক্ত ব্যবস্থা নেয়ার কথা জানানো হয় সংবাদ সন্মেলনে।

এদিকে বিটিআরসির এসব অভিযোগের কোন সতউত্তর দিতে পারেনি কোন মোবাইল কোম্পানীর কর্মকর্তারা।

এদিকে ঢাকা ও চট্রগ্রামে চলা অবৈধ ভিওআইপি অভিযানে গ্রেপ্তারকৃতদের জিজ্ঞাসাবাদে আরও তথ্য পাওয়া যাবে বলে জানানো হয় সংবাদ সন্মেলনে।

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

তথ্য প্রযুক্তি খবর