channel 24

সর্বশেষ

  • ফেসবুক এজেন্ট এইচটিটিপুলের বিরুদ্ধে ভ্যাট আইনে মামলা

  • যশোর শিশু উন্নয়ন কেন্দ্রে দু'গ্রুপের সংঘর্ষে ৩ কিশোর নিহত

  • দুটি পেশাদার বাহিনীকে মুখোমুখি দাঁড় করানোর অপচেষ্টা অপ্রত্যাশিত: পুলিশ সার্ভিস অ্যাসোসিয়েশন

  • শ্রীলঙ্কা সফর ঘিরে সেরা প্রস্তুতি নিতে চান সৌম্য

  • ক্রিস্টিয়ানো রোনালদোর বার্সেলোনায় যাবার গুঞ্জন

  • শেয়ার কারসাজি: বিবিএস ক্যাবলসের চেয়ারম্যানের স্ত্রী ও এমডিকে জরিমানা

  • ক্যাম্প ছাড়লেন ফুটবলাররা, প্রস্তুত থাকতে চান পরবর্তী ডাকের জন্য

  • বাসমালিকরা ভাড়া কমালে তেলের দাম সমন্বয়ের চিন্তা করা যেতে পারে: প্রতিমন্ত্রী

  • ভারতে একদিনে সর্বোচ্চ ৬৭ হাজার করোনায় আক্রান্ত

  • এমপি পাপুল পরিবারের ৫৮৮টি ব্যাংক অ্যাকাউন্ট!

  • প্রতারণার মামলায় যুবলীগ নেতা ডিজে শাকিলসহ ৩ জন ৫ দিনের রিমান্ডে

  • করোনার নমুনা পরীক্ষার কার্যক্রম শুরু করতে যাচ্ছে গণস্বাস্থ্য

  • চাঁদাবাজি মামলার পরও বহাল তবিয়তে রাজশাহী রেঞ্জ এসপি

  • এ মাসেই নন-কোভিড হাসপাতাল ঠিক করে দেয়া হবে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী

  • যাত্রীদের নিজস্ব ব্র্যান্ডের পানি সরবরাহ করবে রেল

খুলনায় অতিরিক্ত মদ্যপানে ৮ জনের মৃত্যু

খুলনায় অতিরিক্ত মদ্যপানে ৮ জনের মৃত্যু

খুলনায় অতিরিক্ত মদ্যপানে পূজা উদযাপন কমিটির সাধারণ সম্পাদকসহ আটজনের মৃত্যু হয়েছে।

বুধবার দুপুর থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত খুলনা মেডিকেলে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান তারা। অতিরিক্ত মদ্যপানের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন খুলনার সিভিল সার্জন ডা. এ এস এম আবদুর রাজ্জাক।

মৃতরা হচ্ছেন নগরীর সোনাডাঙ্গা থানার গল্লামারী পূজা কমিটির সাধারণ সম্পাদক প্রসেনজিৎ রায়, তার বড় ভাই তাপস দাস, খুলনা সদর থানা এলাকার সুজন শীল, খুলনা জেনারেল হাসপাতাল সড়কের রাহুল বিশ্বাস রাজু, নগরীর রায়পাড়া ক্রস রোডের অমিত শীল, রূপসা উপজেলার রাজাপুর গ্রামের পরিমল দাস, একই গ্রামের সমীর বিশ্বাসের স্ত্রী ইন্দ্রানী বিশ্বাস ও নির্মল দাসের ছেলে দীপ্ত দাস।

পুলিশ জানায়, মঙ্গলবার রাতে অতিরিক্ত মদ্যপানে অসুস্থ হয়ে পড়েন সোনাডাঙ্গা থানার গল্লামারী পূজা উদযাপন কমিটির সাধারণ সম্পাদক প্রসেনজিৎ রায়, তাপস দাস, সুজন শীল ও রাহুল বিশ্বাস। আজ দুপুরে খুলনা মেডিকেলে তাদের মৃত্যু হয়।

একই কারণে মেডিকেলে ভর্তি থাকা অমিত শীল ও পরিমল দাসেরও মৃত্যু হয়েছে। একটি বেসরকারি হাসপাতালে মারা যান রূপসা উপজেলার ইন্দ্রানী বিশ্বাস ও দীপ্ত দাস।

এ ঘটনায় তিনটি থানায় অপমৃত্যুর মামলা হয়েছে।

মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক মোঃ রাশেদুজ্জামান জানান, যারা মারা গেছে তাদের আত্মীয়-স্বজনের সাথে কথা বলে জানা গেছে যে, তারা ভারতীয় মদ পান করেন। ময়না তদন্তের প্রতিবেদন পাওয়ার পর বিস্তারিত বলা যাবে যে, তারা অতিরিক্ত মদ খেয়েছিল কিনা বা মদের মধ্যে বিষাক্ত কিছু ছিল কিনা। মদের উৎস সন্ধান এবং বিক্রেতাদের আটকের চেষ্টা চলছে।

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

দেশ 24 খবর