channel 24

সর্বশেষ

  • আদালতে ঔদ্ধত্যপূর্ণ আচরণ ক্ষমার অযোগ্য: কাদের

  • সরকারই আদালত অবমাননা করেছে: ফখরুল

  • চট্টগ্রামে মেরিন ওয়ার্কশপে গ্যাস সিলিন্ডার বিস্ফোরণ, দগ্ধ ৭

  • ট্রাম্পকে অভিসংশনে খসড়া প্রস্তাব তৈরিতে হাউজ জুডিশিয়ারি কমিটিকে স্পিকারের নির্দেশ

  • পেনশন সংস্কারের বিরুদ্ধে ধর্মঘটে অচল ফ্রান্স

বিশ্বকাপের বিতর্কিত কিছু ঘটনা

বিশ্বকাপের বিতর্কিত কিছু ঘটনা

অনেক রেকর্ড, নতুনত্ব আর চমক বিনোদনের সব খোরাকই ছিলো বিশ্বকাপে। তবে বিতর্ককেও সঙ্গি করেছিলো। ফরম্যাট, জিং বেলস, বৃষ্টি তবে সবকিছুকে ছাপিয়ে গেছে আম্পায়ারদের ভুল সিদ্ধান্ত। দেখে নিবো বিশ্বকাপের বিতর্কিত ঘটনাগুলো।

৪ বছরের অপেক্ষার পর দেড় মাসের বিশ্ব আসর। ব্যাট-বলের লড়াই, চার-ছক্কার ফুলঝুরি, উইকেটের পতন, গ্যালারীর উল্লাস, জয়োৎসব আর হারের মাতম। বিনোদন আর রোমাঞ্চ এতোদিন আঁকড়ে ছিলো কোটি কোটি ক্রিকেটপ্রেমীদের। তবে এ উৎসবের আড়ালেও সমালোচনা আর বিতর্কও কম ছিলো না।

বিশ্বকাপের আগেই শুরু হয়েছিলো সমালোচনা। জিম্বাবুয়ে, আয়ারল্যান্ডের মতো টেস্ট খেলুড়ে দেশ এ বিতর্কিত ফরম্যাটের যাতাকলে পরে বিশ্বকাপ থেকে বাদ পরে। আধুনিক বিশ্বে ৪৫ দিনের দীর্ঘ বিশ্বআসরও এক ঘেয়েমি এনেছে।

টুর্নামেন্টের শুরুতে বোলারদের ওপর ভর করে জিং বেলস আতঙ্ক। উইকেটে বল আঘাত হানার পরও বেলস না বলায় বেঁচে যান ব্যাটসম্যানরা। আসরে এ ঘটনা ঘটেছে ৫ বার। উদ্বোধনী ম্যাচে আদিল রশিদের বলে কুইন্টন ডি কককে দিয়ে শুরু। ট্রেন্ট বোল্ট, মিচেল স্টার্ক, বেন স্টোকস ও জাসপ্রিত বুমরাহকেও বোকা বানায় জিং বেলস। সমালোচনার মুখে বিবৃতি দিতে বাধ্য হয়েছিলো আইসিসি।

বৃষ্টি নিয়েও বিতর্ক কম হয়নি। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে আইসিসি হয়েছে ট্রলের শিকার আর বাংলাদেশ, পাকিস্তান, শ্রীলঙ্কার মতো দলগুলো হয়েছে ভুক্তভোগী।

রাজনৈতিক বার্তার জন্যও সমালোচনার মুখে পরে আইসিসির নিরাপত্তা বাহিনী। পাকিস্তান-আফগানিস্তান ও ভারত-শ্রীলঙ্কা ম্যাচে স্টেডিয়ামের ওপর দিয়ে রাজনৈতিক ব্যানার যুক্ত এয়ারক্রাফট উড়ে যায়। এরপর ম্যাচ চলাকালীন ভেন্যুগুলোকে নো-ফ্লাই জোন ঘোষণা করে আইসিসি। তারপরও ভারত-নিউজিল্যান্ড সেমিফাইনালে শিখ সম্প্রদায় গ্যালারীতে স্বাধীন রাষ্ট্রের দাবি জানিয়ে স্লোগান দেয়।

বারবার ভুল সিদ্ধান্তের জন্য আম্পায়ারিংয়ের মান নিয়েও প্রশ্ন তুলেছেন অনেকে। বিশেষ করে এলবিডব্লিউর ক্ষেত্রে আম্পায়ার্স কল নিয়মে অনেক ব্যাটসম্যানের যেমন কপাল পুড়েছে, দুর্ভাগ্যের শিকার হয়েছেন বোলাররাও।

তবে বিতর্কিত আম্পায়ারিংয়ের করুন পরিণতির শিকার নিউজিল্যান্ড। ফাইনালে শেষ ওভারে মিস ফিল্ডিংয়ে ছয় রানের বিষয়টি যদি আম্পায়ারের দৃষ্টি এড়িয়ে না যেতো, তাহলে বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন হিসেবে ইংল্যান্ডের বদলে নিউজিল্যান্ডের নাম লেখা হতো।

সর্বশেষ সংবাদ

স্পোর্টস 24 খবর