channel 24

সর্বশেষ

  • অবৈধ ক্যাসিনো: গ্রেপ্তার শামীম, খালেদ এবং...

  • তাদের স্বজনদের ব্যাংক হিসাব জব্দের নির্দেশ এনবিআরের

  • অপরাধ করলে নিজের দলের লোককেও ক্ষমা নয়: ওবায়দুল কাদের

  • ক্যাসিনোর মূল হোতারা ধরা না পড়ায় অভিযান প্রশ্নবিদ্ধ: রিজভী

  • রোহিঙ্গাদের এনআইডি জালিয়াতি: চট্টগ্রাম ও কক্সবাজর অঞ্চলের...

  • ৭ ইসি কর্মকর্তা-কর্মচারীর বিরুদ্ধে দুদকের অনুসন্ধান শুরু

  • জঙ্গি আস্তানা সন্দেহে নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লায় একটি বাড়িতে...

  • কাউন্টার টেররিজম ইউনিটের অভিযান; বোমা তৈরির সরঞ্জাম উদ্ধার; আটক ৩

  • অর্থ আত্মসাৎ: পটুয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের...

  • তত্ত্বাবধায়ক প্রকৌশলী মো. ইউনুছ শরীফ সাময়িক বরখাস্ত

  • নওগাঁর নিয়ামতপুরে বিএনপির দুপক্ষের সংঘর্ষে ইউপি চেয়ারম্যান নিহত

  • জাতিসংঘের ৭৪তম অধিবেশনে যোগ দিতে নিউইয়র্কে প্রধানমন্ত্রী...

  • এবারের অধিবেশনে রোহিঙ্গা সমস্যার সমাধান খোঁজা হবে: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

  • জঙ্গি আস্তানা সন্দেহে নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লায় একটি বাড়িতে...

  • পুলিশের কাউন্টার টেররিজম ইউনিটের অভিযান; আটক ৩

  • আন্দোলনের মুখে কুষ্টিয়া ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টরকে প্রত্যাহার

  • গোপালগঞ্জে বঙ্গবন্ধু বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসির পদত্যাগ দাবিতে...

  • পঞ্চম দিনের মতো অনশনে আন্দোলনরত শিক্ষার্থীরা

বাংলাদেশ-ভারত দ্বৈরথ এখন বাড়তি মাত্রা দেয় সমর্থকদের

বাংলাদেশ-ভারত দ্বৈরথ এখন বাড়তি মাত্রা দেয় সমর্থকদের

২০০৭ বিশ্বকাপে ত্রিনিদাদ রুপকথার পর ভারত-বাংলাদেশ দ্বৈরথের আবহ পাল্টেছে অনেকটাই। ভূ-রাজনৈতিক প্রেক্ষাপটের সঙ্গে আইসিসিতে প্রতিবেশীদের নিয়ন্ত্রণ যতটা সমর্থকদের ততটাই ফুঁসে তোলে ক্রিকেটারদের। আর তাই শক্তিতে পার্থক্য থাকলেও সফলতার গল্পগুলো বাংলাদেশকে বারবার প্রেরণা যোগায় ভারত বধের গল্প নতুন করে লিখতে।

ওয়ানডে অভিষেকের ১৮ বছর পেরিয়ে ভারতের সঙ্গে প্রথম জয়ের স্বাদ বাংলাদেশের। ২০০৪ এর সেই প্রেক্ষাপট এককথায় ছিলো অঘটন। কারন তার আগের ১২ ওয়ানডের সবগুলোতেই জুটেছিলো বড় পরাজয়।

ওই জয়ের বিশ্বাস আর নতুন প্রজন্মের পায়ে হাটতে থাকা দলটা এরপর বিশ্ব ক্রিকেটে দৌড়াতে শিখেছে। পরের চোখ রাঙানি ২০০৭ বিশ্বকাপে। তেরঙ্গার বিশ্বকাপ স্বপ্ন ভেঙে ক্যারিবীয় জলরাশি লাল সবুজে রাঙিয়ে এসেছিলেন সাকিব তামিমরা। সেই পরাজয়ের ক্ষত আজও মন থেকে মুছেনি ভারতের।

ঠিক দুমাস পর বাংলাদেশ সফরে এসে সেই ঝাল মিটিয়েছেও মেন ইন ব্লুজ দাপুটে জয়ে।

পরের পাঁচ ওয়ানডেতেও প্রতিবেশীদের সামনে দাঁড়াতে পারেনি বাংলাদেশ। ২০১১ বিশ্বকাপের উদ্বোধনীও ম্যাচেও ঢাকাতে স্বাগতিকদের উড়িয়ে দেয় ধোনির দল।
 
ঠিক তার পরের দেখাতেই ভিন্ন গল্প। শচীনের সেঞ্চুরি সত্ত্বেও ২০১২ এশিয়া কাপ থেকে ভারত ছিটকে দিয়ে শেষ পর্যন্ত টুর্নামেন্টের ফাইনাল খেলে বাংলাদেশ।

দুদলের পরের সিরিজ ২০১৪ তে। বিশ্বকাপ ফুটবলের ডামাডোলে অবশ্য ঢেকে যায় ভারতের সঙ্গে বাজে হারের লজ্জা।

পরবর্তী দেখায় ২০১৫ বিশ্বকাপের তুলকালাম কান্ড। মেলবোর্নে অন্যায় ও বঞ্চনার মঞ্চায়নে ভারতের সঙ্গে হেরে কোয়ার্টার ফাইনাল থেকে বিদায়ের যন্ত্রণা আজও পোড়ায় এদেশের ক্রিকেট প্রেমীদের।

সেই ঘা না শুকাতেই প্রতিশোধ, ঘরের মাটিতে। মোস্তাফিজের অবিশ্বাস্য আবির্ভাবে প্রথমবারের মত ভারতের বিপক্ষে কোন দ্বিপাক্ষিক সিরিজ জেতে বাংলাদেশ।

সেই থেকে প্রতি দেখাতেই ভালো খেলার রেশটা ধরে রেখেছে বাংলাদেশ। কিন্তু কঠিন লড়াইয়ের পরও বারবার ফিরেছে জয়ের দুয়ার থেকে। দুবাইয়ে টি টোয়েন্টির এশিয়া কাপ আর নিদাহাস ট্রফি ফাইনালের অশ্রুসিক্ত রাত নিশ্চয় ভোলেননি ক্রিকেটাররা।

দুদলের র‍্যাঙ্কিংয়ের ফারাক অনেক। তবুও ভারতকে সামনে পেলে, নানা ঘটনায় উজ্জীবিত এক দল হয়ে ওঠে বাংলাদেশ।

 

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

স্পোর্টস 24 খবর