channel 24

ব্রেকিং নিউজ

  • অবৈধ ক্যাসিনো ব্যবসা: রাজধানীর গুলশানে ঢাকা মহানগর...

  • দক্ষিণ যুবলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক খালেদ ভূঁইয়া আটক...

  • মতিঝিলে ফকিরেরপুল ইয়ংমেনস ক্লাবে অভিযানে আটক ১৪২

চ্যাম্পিয়ন্স লিগে রাতে অগ্নিপরীক্ষা লিভারপুলের; এগিয়ে বার্সেলোনা

চ্যাম্পিয়ন্স লিগে রাতে অগ্নিপরীক্ষা লিভারপুলের; এগিয়ে বার্সেলোনা

চ্যাম্পিয়ন্স লিগে রাতে অগ্নিপরীক্ষা লিভারপুলের, ইনজুরিতে জর্জরিত অলরেডস। ফাইনাল মিশনে এগিয়ে থেকে নামবে বার্সেলোনা।

চ্যাম্পিয়ন্স লিগে রাতে সেমিফাইনালের দ্বিতীয় লেগ। অ্যানফিল্ডে অসম্ভব সম্ভবের মিশন লিভারপুলের। ফাইনাল নিশ্চিতে বার্সেলোনাকে হারাতে হবে কমপক্ষে চার গোলের ব্যবধানে। ক্লপের দলের বড় ধাক্কা ইনজুরিতে ছিটকে গেছেন স্ট্রাইকার মোহামেদ সালাহ। ম্যাচ শুরু রাত ১টায়।

কঠিন পরীক্ষার মঞ্চ অ্যানফিল্ড। কোনো দলের হেরেও সুযোগ থাকবে ফাইনাল খেলার আর কারো জিতেও স্বস্তির সুযোগ নেই। সেমির দ্বিতীয় লেগে লিভারপুলের ফাইনাল স্বপ্নে বড় বাধা নূক্যাম্পের বাস্তবতা।

লিভারপুলকে শুধু জিতলেও হবে না, ব্যবধানটা হতে হবে কমপক্ষে ৪-০। প্রথম লেগে ৩-০-র বড় হার আর ইনজুরিতে ফিরমিনোর পর মোহামেদ সালাহ-র ছিটকে পড়া অলরেডদের কতটা চাপে রেখেছে তা ব্যাখ্যাতীত। প্রতিপক্ষের ফুটবলারদের শুভকামনা জানিয়ে বার্সেলোনার টুইট আলোচিত।

তারপরও অসম্ভবের স্বপ্ন দেখে লিভারপুল। দলটার কোচ ইয়্যুর্গেন ক্লপ সে কারণেই কিনা কে জানে? কারণ আরো একটা হতে পারে গেলো মৌসুমেই ঘরের মাঠে রোমাকে ৪-১ গোলে হারানো বার্সা, রোমে গিয়ে হেরেছিল ৩-০তে। রোমার রোম জয় অদৃশ্য টনিক স্বাগতিকদের।

ইনজুরি আছে ব্লুগানার শিবিরেও। রাফিনহা আর ডেমবেলে খেলছেননা নিশ্চিত, চোটে শঙ্কায় সুয়ারেজের খেলাও। তবে বাস্তবতা বার্সেলোনায় একজন লিও মেসি ফিট থাকলেই চলে। গেলো সপ্তাহের ৭ মিনিটের চমকের রেশ এখনো কাটেনি। অ্যানফিল্ডের জন্য কি জমিয়ে রেখেছেন কে জানে। ইংলিশ ক্লাবগুলোর বিপক্ষে ২৬ গোল এলএমটেনের প্রভাব বোঝাতে যথেষ্ট।

বার্সেলোনা কোচ আর্নেস্তো ভালভার্দে বলেন, 'নুক্যাম্পের ফল আমাদের পক্ষে গেলেও, নির্ভার হবার সুযোগ নেই। অ্যানফিল্ড কঠিন পরীক্ষার মঞ্চ আর লিভারপুল অসাধারণ ফুটবল খেলছে। আমরা শুধুই জিততে চাই।'

জিততে চান ক্লপও। লিগ ম্যাচে নিউক্যাসেলের বিপক্ষে সালাহর চোট স্বপ্নকে করেছে আরো কঠিন। তারপরও গেলো আসরের ফাইনালিস্ট দলটার কোচের দর্শন উদ্বুদ্ধ করবে শিষ্যদের নি:সন্দেহে।

লিভারপুল কোচ ইয়্যুর্গেন ক্লপ বলেন, আমার দলের সেরা ফুটবলারদের ইনজুরি নি:সন্দেহে পরিস্থিতি কঠিন করেছে। তারপরও আমি আশাবাদী। খেলোয়াড়দের বলেছি এটা এ মৌমুমের শেষ ম্যাচ ভেবে নিজেদের উজার করে দাও, ফুটবলটা উপভোগ করো।

এবারের চ্যাম্পিয়ন্স লিগে শেষ কথা বলে কিছু নেই। শেষটা তাই তোলা থাক সময়ের কাছে।

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

স্পোর্টস 24 খবর