channel 24

সর্বশেষ

  • উন্নয়ন ধরে রাখতে অশুভ তৎপরতা রুখতে হবে: রাষ্ট্রপতি

  • ধানমন্ডিতে বৈঠকে বসেছেন ফখরুলসহ জাতীয় ঐক্যের নেতারা

  • জনগণকে নয়, বিদেশিদের আস্থায় নিতে চায় ঐক্যফ্রন্ট: সেতুমন্ত্রী...

  • নীতিহীন ঐক্যে জনগণ থাকবে না: ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় আইনমন্ত্রী...

  • সুষ্ঠু নির্বাচনের জন্য সরকারকে আলোচনার আহবান নজরুলের

  • ১৭৭ রোহিঙ্গাকে রাখাইনে পুনর্বাসনের দাবি মিয়ানমারের...

  • প্রত্যাবাসন নিয়ে মিয়ানমারের দাবি মিথ্যা: পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী

  • জাতীয় ঈদগাহে আইয়ুব বাচ্চুর জানাজা; কাল চট্টগ্রামে দাফন

  • প্রতিমা বিসর্জনে আজ শেষ হচ্ছে শারদীয় দুর্গোৎসব

  • প্রস্তুতি ম্যাচ: জিম্বাবুয়েকে ৮ উইকেটে হারিয়েছে বিসিবি একাদশ...

  • স্কোর: জিম্বাবুয়ে ১৭৮ (এবাদত ৫/১৯), বিসিবি ১৮১/২ (সৌম্য ১০২*)

পেশাদার লিগের সব বিভাগে যেন অপেশাদারিত্বের ছাপ

পেশাদার লিগের সব বিভাগে যেন অপেশাদারিত্বের ছাপ

পেশাদার লিগের এক দশক পূর্ণ হতে আর বাকি তিনদিন। কিন্তু সত্যি কতটা পেশাদার হয়েছে ক্লাব, খেলোয়াড়, লিগ কমিটি?

বাস্তবে সব বিভাগে অপেশাদারিত্বের ছাপ। নানা অনিয়ম, অন্যায়, অরাজকতা স্পষ্ট পদে পদে। কর্মকর্তারাও নিরুপায়, কখনো কখনো অসহায় ক্লাবগুলোর কাছে। পেশাদার যুগে প্রবেশের এক দশক শেষ হতে চলল। ফিফা-এএফসির প্রেসক্রিপশনে যে পথে হাঁটতে শুরু করেছিল বাংলাদেশ, কতটা সামনে এগোতে পেরেছে? পরসংখ্যান, গবেষণার দরকার নেই, খালি চোখেই স্পষ্ট নানা সীমাবদ্ধতা। 

একটাই অর্জন, নিয়মিত লিগ আয়োজন। যে উদ্দেশ্যে পেশাদার লিগ চালু হয়েছিল, তা কতটা পূরণ হয়েছে? পেশাদার লিগের নিয়মানুসারে প্রতিটি দলের থাকতে হবে হোম ভেন্যু। হোম অ্যান্ড অ্যাওয়ে ভিত্তিতে হবে ম্যাচ। কিন্তু দশ আসরের অর্ধেকেরও বেশি ম্যাচ হয়েছে বঙ্গবন্ধু স্টেডিয়ামে। মাঝে বিচ্ছিন্ন চট্টগ্রাম, খুলনা, ফেনীর দল খেলেছে ঢাকার আসরে। কিন্তু সেসব জেলাতেও গিয়ে খেলতে আপত্তি ঢাকার ক্লাবগুলোর। গত মৌসুমে বাফুফের অর্থে চট্টগ্রাম, সিলেট, ময়মনসিংহ, গোপালগঞ্জ ও ঢাকা এই ৫ ভেন্যুতে হয়েছিল লিগ। বছর না ঘুরতেই আবারও পুরনোরূপে ক্লাবগুলো।

ক্লাবগুলোর নিজস্ব হোম ভেন্যু দূরে থাক অনুশীলন মাঠ, জিমনেশিয়াম, নিয়ম মেনে কর্মকর্তাও নেই! অপেশাদারিত্ব পদে পদে। ম্যাচ চলাকালীন সমর্থকদের মাঠ ঢুকে পড়া, রাজনৈতিক শোডাউন, মিডিয়া জোনে সমর্থকদের উপস্থিতি প্রতিদিনের দৃশ্য। টেকনিক্যাল জোনে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর প্রকাশ্যে অস্ত্র নিয়ে বসে থাকা তো আছেই! দৃষ্টিকটু ক্লাব কর্মকর্তাদের ডাগ আউটে মুঠোফোনের ব্যবহার। দেখেও চোখ বন্ধ লিগ কমিটির। কমিটি চেয়ারম্যান সালাম মুর্শেদীর পুরনো বুলি সীমাবদ্ধতা। অথচ আন্তর্জাতিক ম্যাচে এমনটা ভাবাও যায় না। দশম আসর শেষে অপেশাদার মোড়কের আরেকটি পেশাদার লিগ শুরুর অপেক্ষা।

 

সর্বশেষ সংবাদ

স্পোর্টস 24 খবর