channel 24

সর্বশেষ

  • তাজিয়া মিছিলের নিরাপত্তায় সর্বোচ্চ ব্যবস্থা: ডিএমপি কমিশনার

  • কোটা নিয়ে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে পাল্টাপাল্টি মিছিল

  • একুশ আগস্ট গ্রেনেড হামলার বিচার কাজ শেষ; রায় ১০ অক্টোবর

  • ইভিএম কিনতে ৪ হাজার কোটি টাকার প্রকল্প অনুমোদন একনেকে

  • বিএনপি নেতা আমীর খসরুর সম্পদ অনুসন্ধানে দুদকের অভিযান

  • ২০১৭-১৮ অর্থ বছরে জিডিপি প্রবৃদ্ধি ৭.৮৬ শতাংশ: পরিকল্পনামন্ত্রী

দুই ঈদের আগে-পরে সড়কে শুরু হয় মৃত্যুর মহামারি

দুই ঈদের আগে-পরে সড়কে শুরু হয় মৃত্যুর মহামারি

সড়কে মৃত্যু নতুন কোনো খবর নয়। কিন্তু অনুসন্ধান বলছে, প্রতি বছর দুই ঈদের আগে-পরে এই প্রবণতা বেড়ে যায় অনেক। 

গত ৪ বছরের হিসাবে, শুধু ঈদুল ফিতরের সময় সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত হয়েছেন নয়শোর বেশি। বিশেষজ্ঞরা বলছেন, ঈদের আগে সড়কে সরকারের যে মনিটরিং থাকে ঈদের পর তা শিথিল হয়ে যায়। প্রতি বছর ঈদের আনন্দ ম্লান করে দেয় সড়কে মৃত্যুর মহামারি। 

গত চার বছরের পরিসংখ্যান বলছে : 

২০১৫ সালে শুধু রোজার ঈদের আগেপরে দেশের বিভিন্ন স্থানে ২১০ টি সড়ক দুর্ঘটনায় প্রাণ গেছে ৩১৪ জনের। ২০১৬ সালের ঈদের আগে পরে পয়লা জুলাই থেকে ১৫ জুলাই ৯৭টি দুর্ঘটনায় প্রাণ যায় ২৬২ জনের ।গত বছরের ৯ জুন থেকে তেসরা জুলাই সড়ক দুর্ঘটনা হয় ১১৮টি। যাতে নিহত হন  ১৬৪জন। আর এ বছরের ঈদুল ফিতরের আগে পরে, ৯ থেকে ২৩ জুন পর্যন্ত ১০০টি সড়ক দুর্ঘটনায় প্রাণ গেছে দেড় শতাধিক মানুষের। যার মধ্যে শনিবার ভোরে শুধু গাইবান্ধায়ই নিহত হয়েছে ১৮জন।  

যাত্রীকল্যাণ সমিতি বলছে, মহাসড়কে নজরদারি কমায় দুর্ঘটনা বাড়ছে। বুয়েটের অ্যাক্সিডেন্ট রিচার্জ ইনস্টিটিউটের একজন শিক্ষক বলছেন, ঈদের আগে সড়কে যেভাবে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী মনিটর করে, ঈদ শেষে আর তা দেখা যায় না।  তাছাড়া ফিটনেসবিহীন গাড়ি এবং চালকদের বেপরোয়া মানসিকতাও এর জন্য দায়ী। সড়ক দুর্ঘটনা প্রতিরোধে মহাসড়কে  ফিটনেসবিহীন গাড়ি চলাচল বন্ধ এবং অদক্ষ চালকের হাতে স্টিয়ারিং না দিতে সরকারের কঠোর পদক্ষেপ চান বিশেষজ্ঞরা।

 

 

সর্বশেষ সংবাদ

চ্যানেল 24 বিশেষ খবর