channel 24

সর্বশেষ

  • কুমিল্লায় সিজারে নবজাতক দ্বিখণ্ডিত: আয়া ও পরিচ্ছন্নতাকর্মী সাময়িক বরখাস্ত

  • বিশেষায়িত হাসপাতালে খালেদা জিয়ার চিকিৎসা বিষয়ে...

  • রিটের শুনানি ১ অক্টোবর পর্যন্ত মুলতুবি

  • রোহিঙ্গা ইস্যুতে বিশ্ব নেতাদের একসাথে কাজ করতে প্রধানমন্ত্রীর আহ্বান

  • নির্বাচনে সৎ ও যোগ্য প্রার্থীকে মনোনয়ন দেয়ার আহবান রাষ্ট্রপতির

  • ১৮ ঘণ্টা পর শিমুলিয়া-কাঁঠালবাড়ি রুটে স্বল্প পরিসরে ফেরি চলাচল শুরু

  • ১০ ঘণ্টা পর রাজধানীর মহাখালী টার্মিনাল থেকে বাস চলাচল শুরু

  • চট্টগ্রামে আলাদা সড়ক দুর্ঘটনায় অন্তত ৬ জন নিহত

বেপরোয়া গাড়ি চালানোয় দুর্ঘটনার শিকারে জীবন দুর্বিষহ নগরবাসীর

বেপরোয়া গাড়ি চালানোয় দুর্ঘটনার শিকারে জীবন দুর্বিষহ নগরবাসীর

রাজধানীর সড়ক মানেই যেন এক মূর্তিমান আতঙ্ক। চালকরা পাল্লা দিয়ে গাড়ি চালানোয় প্রায়ই দুর্ঘটনার শিকার হচ্ছেন নগরবাসী। সবশেষ, বিশ্ববিদ্যালয়ের দুই শিক্ষার্থী আহত হয়েছেন। যাদের একজন শুধু হাতই হারাননি, তার জীবনও সংকটাপন্ন। এমন পরিস্থিতিতে বাস মালিকরা বলছেন, দুর্ঘটনার জন্য দায়ী চালকদের ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে শাস্তির আওতায় আনার কথা।

 

হাসপাতালের বিছানায় শুয়ে এভাবেই সড়ক দুর্ঘটনায় পা হারানোর দুর্বিষহ বর্ণনা দেন রুনি আক্তার। রাজধানীর ফার্মগেটে নিউ ভিশন পরিবহনের একটি বেপরোয়া বাসের চাপায়, ডান পায়ের প্রায় পুরোটাই থেতলে যায় তার। আর কোনোদিন হাঁটতে পারবেন কিনা, জানা নেই তাও। বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়ুয়া রুনি, চাকরি করতেন একটি বেসরকারি কোম্পানিতে।
চিকিৎসক বলছেন, রুনির অবস্থা আশঙ্কাজনক। এরইমধ্যে তার পায়ে অস্ত্রপচার হয়েছে। কমপক্ষে ছয়মাস বিশ্রামে থাকতে হবে তাকে।
এর কয়েকদিন আগে কারওয়ান বাজার মোড়ে, দুই বাসের চাপায় হাত হারান রাজিব। ঢাকা মেডিকেলে এখন পাঞ্জা লড়ছেন মৃত্যুর সাথে। হাসপাতালের পরিচালক বলছেন, রাজিবকে রাখা হয়েছে নিবিড় পর্যবেক্ষণে। তার মাথায় ও হাতের আঘাত গুরুতর।
পরপর দুটি দুর্ঘটনার পর কিছুটা হলেও, টনক নড়েছে বাস মালিকদের। যাদের খেয়ালিপনায় হরহামেশায় ঘটে এমন দুর্ঘটনা, সেই চালকদের সচেতন করতে মতবিনিময় সভার আয়োজন করে ঢাকা পরিবহন মালিক সমিতি। এতে সংগঠনটির সাধারণ সম্পাদক সুপারিশ করেন, ভ্রাম্যমান আদালতের মাধ্যমে দুর্ঘটনার জন্য দায়ী চালকদের শাস্তির আওতায় আনার। তিনি বলেন, রাজধানীতে বাস চালকদের অনেকেই নেশাগ্রস্ত। এমনকি কারও কারও নেই লাইসেন্সও। দুর্ঘটনারও এটিও একটা বড় কারণ।

সর্বশেষ সংবাদ

চ্যানেল 24 বিশেষ খবর