channel 24

সর্বশেষ

  • ধর্মীয় ভাবগাম্ভীর্যে সারা দেশে উদযাপিত হচ্ছে ঈদুল আজহা...

  • জাতীয় ঈদগাহে প্রধান জামাত অনুষ্ঠিত...

  • নামাজ শেষে পশু কোরবানি করছেন ধর্মপ্রাণ মুসলমানরা

  • শোকের মাঝেও মানুষের মুখে হাসি ফোটাতে কাজ করছি...

  • গণভবনে সর্বসাধারণের সাথে ঈদ শুভেচ্ছা বিনিময় শেষে প্রধানমন্ত্রী...

  • বঙ্গভবনে রাষ্ট্রপতির ঈদ শুভেচ্ছা বিনিময়

  • নির্বাচনে না এসে বিএনপি এবারও সহিংসতার চেষ্টা করলে...

  • জনগণকে নিয়ে প্রতিহত করা হবে: নোয়াখালীতে সেতুমন্ত্রী

  • ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলায় তারেক রহমানকে জড়িয়ে...

  • প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্য মামলার রায়কে প্রভাবিত করবে: ফখরুল

  • বগুড়ার শাজাহানপুরে বাস-অটোরিকশা সংঘর্ষে নিহত ৩

মরণ খেলার আরেক নাম ব্লু হোয়েল গেমস

মরণ খেলার আরেক নাম ব্লু হোয়েল গেমস

ব্লু হোয়েল বা নীল তিমি গেমস। শুনতে নিরীহ হলেও ভয়ংকর সব লেভেল রয়েছে এই গেমসে।

যার মধ্যে মাদক নেয়া, নিজেকে আঘাত করা এবং সবশেষে আত্মহত্যার মতো চ্যালেঞ্জ দেয়া হয়। এই গেমস খেলতে গিয়ে এরইমধ্যে পুরো বিশ্বে প্রাণ হারিয়েছে শতাধিক তরুন। বাদ পড়েনি ভারতীয় উপমহাদেশও। সমাজ ও মনোবিজ্ঞানীরা বলছেন, ব্লু হোয়েলের সম্মোহন থেকে সন্তানদের বাঁচাতে এগিয়ে আসতে হবে বাবা-মাসহ পরিবারের সদস্যদেরকেই। মরণ খেলারই আরেক নাম ব্লু হোয়েল। অনলাইনে এই খেলায় গোটা বিশ্বে এখন পর্যন্ত আত্মহত্যা করেছেন ১৩০ তরুণ। 

অদ্ভূত এই খেলার সময়সীমা ৫০ দিন। এই কদিনে দু:সাহসিক সব চ্যালেঞ্জ মোকাবেলা করতে হয় খেলোয়াড়কে। যার মধ্যে মাদক সেবন ও নিজেকে আঘাত করাসহ থাকে ভয়ংকর সব নানা ধরণের চ্যালেঞ্জ। যার সবশেষ ধাপ আত্মহত্যা। ২০১৩ সালে এই ভিডিও গেম তৈরী করেন রাশিয়ার মনোবিজ্ঞানের ছাত্র ফিলিপ বুদেকিন। গেমসটি খেলে দেশটিতে বেশ কয়েকজন তরুণের আত্মহত্যার পর গ্রেপ্তার করা হয় তাকে। রাশিয়া ছাড়িয়ে ব্লু হোয়েল ছড়িয়ে পড়েছে পুরো বিশ্বে। যাতে বাদ পড়েনি ভারতও। গেলো জুলাইয়ে গেমটির প্রথম শিকার হয় মুম্বাইয়ের এক স্কুল ছাত্র।

এরপর মহারাষ্ট্র, পশ্চিমবঙ্গ ও উত্তর প্রদেশ থেকেও আসে আত্মহত্যার খবর। আতংক ছড়িয়ে পড়ে ভারতজুড়ে। অবশেষে নিষিদ্ধ করা হয় গেমটি। ব্লু-হোয়েল গেম সম্পর্কে অনেক অভিযোগ পেয়েছি। এমনকি এই গেম খেলার ফলে আত্মহত্যার মত ঘটনাও ঘটেছে। ফলে গেমটি নিষিদ্ধ করা হয়েছে। এই খেলা থেকে শিশুদের দূরে রাখতে বাবা-মাসহ পরিবারের সবাইকে সচেতন হওয়ার তাগিদ দিলেন মনোবিজ্ঞানীরা। বাবা-মা কে নিজের সন্তানদের প্রতি সচেতন হতে হবে। তারা কতটা সময় ইন্টারনেটে ব্যায় করছে, কোন সাইটগুলো ব্যবহার করছে তা নজরে আনতে হবে।

 

সর্বশেষ সংবাদ

চ্যানেল 24 বিশেষ খবর