channel 24

সর্বশেষ

  • নিরাপদ হলেও বেশিরভাগ মানুষের পছন্দ নয় প্রক্রিয়াজাত মুরগি

  • সেনাপ্রধানের মায়ানমার সফর বাতিলের দাবিতে নাগরিক সমাজের বিবৃতি

  • সৌদি থেকে নির্যাতিতরা দ্রুত দেশে ফিরতে চাওয়ায় ধরাছোঁয়ার বাইরে অভিযুক্তরা

  • অভিনেত্রী নওশাবার মামলা স্থগিতই থাকছে: আপিল বিভাগ

  • দিল্লিতে একটি কারখানায় আগুন, নিহত অন্তত ৩২

  • বরিশালে প্রবাসীর বাড়িতে ট্রিপল মার্ডারে জড়িত সন্দেহে আটক ২

  • ম্যান সিটিকে ২-১ গোলে হারিয়েছে ম্যান ইউ

  • বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি পরীক্ষায় দুর্নীতির অভিযোগে তোলপাড়

  • জেঁকে বসেছে শীত, সর্বনিম্ন তেঁতুলিয়ায় ৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস

  • চাঁপাইনবাবগঞ্জে কথিত এনজিওর ফাঁদে নিঃস্ব সাধারণ মানুষ

  • বঙ্গবন্ধু বিপিএলের উদ্বোধন আজ

  • সিরিয়ায় বিমান হামলায় নারী শিশুসহ নিহত ২০

  • মেসির রেকর্ড হ্যাটট্রিকে লা লিগার শীর্ষে বার্সেলোনা

  • আসাম ও ত্রিপুরায় এনআরসির বিরুদ্ধে বিক্ষোভ

  • ঘাটাইলে গায়ে কেরোসিন ঢেলে শিক্ষার্থীর আত্মহত্যার অভিযোগ

খুরা রোগের সরকারি ভ্যাক্সিনের মান নিয়ে প্রশ্ন

খুরা রোগের সরকারি ভ্যাক্সিনের মান নিয়ে প্রশ্ন

সরকারিভাবে উৎপাদিত ক্ষুরা রোগের ভ্যাক্সিনের মান নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন মেহেরপুরের খামারীরা। তাদের দাবি, একারনে ১০ টাকা দামের সরকারি ভ্যাক্সিন বাদ দিয়ে তারা ব্যবহার করছেন কয়েকশ টাকা দামের বিদেশি ভ্যাক্সিন। তবে, প্রাণিসম্পদ অধিদপ্তরের দাবি, চাহিদার তুলনায় সরকারি ভ্যাক্সিনে উৎপাদন কম হওয়ায়, বিদেশি ভ্যাক্সিনের ওপর নির্ভর খামারীরা।

মেহেরপুরের গাংনি উপজেলার খামারি মঞ্জুরুল ইসলাম। তার যতটুকু আর্থিক সচ্ছলতা, প্রায় পুরোটায় এসেছে গবাদি প্রাণি লালন-পালনে। কিন্তু মাঝে মধ্যেই বিপদে পড়েন, ক্ষুরা রোগ নিয়ে। এই রোগ নিয়ন্ত্রণে এক সময় মাত্র ১০ টাকার সরকারি ভ্যাক্সিনের ব্যবহার করলেও, এখন ভরসা ৩৫ গুন বেশি দামের বেসরকারি ভ্যাক্সিন। শুধু তিনি নন, এই এলাকার অন্যান্য খামারিদেরও অভিযোগ, সরকারি ভ্যাক্সিনে কমছে না ক্ষুরা রোগ।

প্রাণিসম্পদ অধিদপ্তরের তথ্য বলছে, মেহেরপুরে ৫ লাখ ২২ হাজার প্রাণি থাকলেও, সরকারি ভ্যাক্সিন নিয়েছে মাত্র ৬ হাজার। প্রতিষ্ঠানটির মহাপরিচালকের দাবি, সরকারের ক্ষুরা রোগের ভ্যাক্সিন এখনও কার্যকর।

কিন্তু চ্যানেল টোয়েন্টিফোরের অনুসন্ধান বলছে, কেন্দ্রীয় প্রজনন খামার, সাভার ডেইরি ফার্ম, মিল্কভিটাসহ বেশ কয়েকটি সরকারি সংস্থা ব্যবহার করছে, রাশিয়ার তৈরি আরিয়াহ ভ্যাক্সিন। এ বিষয়ে প্রাণিসম্পদ অধিদপ্তর বলছে, উৎপাদনের ঘাটতি পড়লে, নিজেদের খামারেও ব্যবহার করেন বেসরকারি ভ্যাক্সিন।

ভ্যাক্সিন উৎপাদনকারী সরকারি সংস্থা প্রাণিসম্পদ গবেষণা প্রতিষ্ঠান বলছে, দেশে মোট ক্ষুরা রোগের ভ্যক্সিনের চাহিদা বছরে সোয়া কোটির মতো। আর গেল বছর উৎপাদন হয়েছে মাত্র ১৬ লাখ।

নিউজটির বিস্তারিত প্রতিবেদন ভিডিওতে-

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

চ্যানেল 24 বিশেষ খবর