channel 24

সর্বশেষ

  • জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদের ৭৪তম অধিবেশনে যোগ দিতে...

  • কাল নিউইয়র্কের উদ্দেশে ঢাকা ছাড়বেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা

  • অবৈধ ক্যাসিনো: আটক যুবলীগ নেতা খালেদকে গুলশান থানায় হস্তান্তর

  • রাজধানীতে জুয়ার আসর বসতে দেয়া হবে না: ডিএমপি কমিশনার...

  • ক্যাসিনো মালিক প্রভাবশালী হলেও আইনের আওতায় আনা হবে...

  • মসজিদের শহরকে ক্যাসিনোর শহরে পরিণত করেছে সরকার: ড. মঈন

  • প্রধানমন্ত্রীকে হত্যার হুমকি দেয়ার অভিযোগে বিএনপি নেতা...

  • শামসুজ্জামান দুদুর বিরুদ্ধে মামলা; দ্রুত আটকের দাবি ছাত্রলীগের

  • কোনো প্রক্রিয়া ছাড়া ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি হওয়া...

  • ছাত্রলীগ নেতাদের ছাত্রত্ব বাতিলের দাবি ডাকসু ভিপির

  • পারিবারিক কলহ: নারায়ণগঞ্জে মা ও ২ শিশুকে ছুরিকাঘাতে হত্যা...

  • আহত আরও এক শিশুকে ঢাকা মেডিকেলে ভর্তি

পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ে নিয়োগ ও পদোন্নতিতে অভিন্ন নীতিমালা করতে চায় ইউজিসি

পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ে নিয়োগ ও পদোন্নতিতে অভিন্ন নীতিমালা করতে চায় ইউজিসি

দেশের স্বায়ত্তশাসিত এবং পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়গুলোতে শিক্ষক নিয়োগ ও পদোন্নতির জন্য অভিন্ন নীতিমালা করার তোড়জোড় চলছে। যদিও শিক্ষা মন্ত্রণালয় এবং বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশনের এই উদ্যোগের বিরুদ্ধে এক হয়ে লড়ার ঘোষণা দিয়েছে বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক ফোরাম। তবে বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরী কমিশনের (ইউজিসি) দাবি, এই নীতিমালা উচ্চশিক্ষার মানোন্নয়নে ইতিবাচক ভূমিকা রাখবে।

বিশ্ববিদ্যালয় ধারণাটার আষ্টেপৃষ্ঠে জড়িয়ে আছে মুক্তচিন্তা আর কাজের স্বাধীনতা। প্রাচীন তক্ষশীলা থেকে এ যুগের প্রথম সারির এমআইটি, স্ট্যানফোর্ড কিংবা হার্ভার্ডে উচ্চশিক্ষায় এই চর্চা চলছে।

১৯৭৩ সালে ঢাকা, জাহাঙ্গীরনগর, রাজশাহী ও চট্টগ্রাম এই চারটি বিশ্ববিদ্যালয় পরিচালনার জন্য পাশ হয় একটি অধ্যাদেশ। যার মাধ্যমে দেয়া হয় স্বায়ত্তশাসন। পরে অন্যান্য সরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের জন্য করা হয় আলাদা আইন।

ভিন্ন ভিন্ন আইনে চলা এই স্বায়ত্তশাসিত ও সরকারি বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর মানোন্নয়নের কথা বলে দুই বছর আগে কাজ শুরু হয় অভিন্ন নীতিমালা প্রণয়নের।

বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর প্রতিনিধিদের সাথে নিয়ে শিক্ষা মন্ত্রণালয় আর বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরী কমিশন (ইউজিসি) কাজ করছে নিয়োগ ও পদোন্নতি বিষয়ক সমন্বিত নীতিমালা তৈরির। এর খসড়ায় পাঠদান বা গবেষণার সময়কেও বেঁধে দেয়া হয় সুনির্দিষ্ট কর্মঘণ্টায়।

তবে শুরু থেকেই এর বিরোধিতা করে আসছেন শিক্ষকরা। তাদের দাবি, এতে স্বাতন্ত্র্য হারাবে বিশ্ববিদ্যালয়গুলো।

তবে বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরী কমিশনের সদস্য মো. সাজ্জাদ হোসেন বলেছেন, উচ্চশিক্ষার মানোন্নয়নই এই নীতিমালার উদ্দেশ্য। যদিও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় বা বুয়েটের মতো প্রথিতযশা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকদের সাথে, নতুন বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকরদের মানের পার্থক্যের বিষয়টি স্বীকার করেন ইউজিসির এই সদস্য।

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

চ্যানেল 24 বিশেষ খবর