channel 24

সর্বশেষ

  • খালেদা জিয়ার মুক্তির বিষয়ে আন্তর্জাতিক মহলকে অবহিত করা হবে: ফখরুল

  • বকেয়া পরিশোধ না হলে চামড়া বিক্রি বন্ধ: আড়তদার সমিতি

  • ধ্বংসাত্মক রাজনীতির কারণে ভুলের চোরাবালিতে বিএনপি: ওবায়দুল কাদের

  • ভারতের নয়াদিল্লিতে অল ইন্ডিয়া মেডিকেল ইনস্টিটিউটের আগুন নিয়ন্ত্রণে

  • অবসর বিষয়ে মাশরাফীর সিদ্ধান্ত দুই মাস পর: বিসিবি সভাপতি

  • ক্রিকেট দলের নতুন হেড কোচ দক্ষিণ আফ্রিকার রাসেল ক্রেগ ডোমিঙ্গো...

  • দায়িত্ব নেবেন ২১ আগস্ট, চুক্তি দুই বছরের: বিসিবি সভাপতি

  • গত ২৪ ঘণ্টায় সারা দেশে ভর্তি ১ হাজার ৪শ' ৬০: স্বাস্থ্য অধিদপ্তর

  • ডেঙ্গুতে ঢাকা মেডিকেলে নারী ও ফরিদপুর মেডিকেলে কলেজছাত্রের মৃত্যু

  • ডেঙ্গু প্রতিরোধ: ঢাকা উত্তরের প্রতিটি ওয়ার্ডকে...

  • ১০ ভাগে ভাগ করে চিরুনি অভিযান: মেয়র আতিকুল

  • ঢাকাকে হংকং, সিঙ্গাপুর বানানোর ঘোষণা স্থানীয় সরকার মন্ত্রীর

  • বকেয়া পরিশোধ না করায় ট্যানারিতে আপাতত...

  • চামড়া না দেয়ার ঘোষণা পোস্তার আড়তদারদের...

  • কাল সরকারের সাথে বৈঠকের পর চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত...

  • চামড়া বিক্রি করা না করা তাদের নিজস্ব ব্যাপার...

  • বকেয়া পরিশোধ হবে কেস টু কেস ভিত্তিতে: ট্যানার্স অ্যাসোসিয়েশন

  • সুপরিকল্পিতভাবে রাজনীতিকে শূন্য করার চক্রান্ত চালাচ্ছে সরকার: ফখরুল

  • কলকাতায় সড়ক দুর্ঘটনায় ২ বাংলাদেশি নিহত

ডেঙ্গুর বাহক এডিস মশা রোধে পরমাণু কমিশনের প্রযুক্তি উদ্ভাবন

ডেঙ্গুর বাহক এডিস মশা রোধে পরমাণু কমিশনের প্রযুক্তি উদ্ভাবন

ডেঙ্গুর বাহক এডিস মশা নিয়ন্ত্রণে পরমাণু প্রযুক্তির সফল প্রয়োগ করেছেন পরমাণু শক্তি কমিশনের বিজ্ঞানীরা। তারা জানান, এই পদ্ধতিতে পুরুষ এডিস মশাকে বন্ধ্যা করে নির্দিষ্ট এলাকায় ছেড়ে দিলে সহজেই মশার বংশ বিস্তার রোধ করা যাবে। এই গবেষণা কার্যক্রম পরিদর্শন করে বিজ্ঞানমন্ত্রী ও প্রযুক্তিমন্ত্রী স্থপতি ইয়াফেস ওসমান জানান, শিগগিরই মাঠ পর্যায়ে প্রয়োগ করা হবে এই পদ্ধতি।

জলবায়ু পরিবর্তনের প্রভাবে সারাবিশ্বের মানুষের জন্য অন্যতম বড়ো হুমকির নাম এডিস মশা। পরমাণু শক্তির শান্তিপূর্ণ ব্যবহার তদারক প্রতিষ্ঠান আন্তর্জাতিক পরমাণু শক্তি এজেন্সি (আইএইএ) বেশ কয়েক বছর ধরেই মশা নিয়ন্ত্রনে পরমাণু প্রযুক্তি ব্যবহারে সহযোগিতা করছে।

স্টেরাইল ইনসেক্ট টেকনিক (এসআইটি) পদ্ধতিতে পুরুষ এডিস মশাকে নির্দিষ্ট মাত্রায় গামা রশ্মি প্রয়োগ করে বন্ধ্যাকরণ করা হয়। পরে ডেঙ্গুর প্রভাব রয়েছে এমন এলাকায় এই মশাগুলোকে অবমুক্ত করা হয়। এগুলো স্ত্রী এডিসের সাথে মিলিত হয়ে, মশার বংশ বিস্তার বন্ধ করে দেয়।

টানা এক যুগ গবেষণা করার পর, এই পদ্ধতি প্রয়োগে সফল হয়েছেন বাংলাদেশ পরমাণু শক্তি কমিশনের বিজ্ঞানীরা।

সাভারে অবস্থিত কমিশনের খাদ্য ও বিকিরণ জীব বিজ্ঞান ইন্সটিটিউটের বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা নাহিদা সুলতানা জানান, ডেঙ্গুর বাহক পুরুষ এডিস মশার পুরো জীবন চক্রে পর্যায়ক্রমে গবেষণা করেছেন তারা।

এই পদ্ধতি প্রয়োগ করে ইতিমধ্যেই সাফল্য পেয়েছে মেক্সিকো, ব্রাজিল ও ইতালি। অন্যদিকে দুই সপ্তাহ আগে চীনের দুটি দ্বীপেও প্রয়োগ করা হয়েছে এসআইটি'র। গবেষণা চলছে থাইল্যান্ড ও সিঙ্গাপুরে।

এজন্য একটি প্রকল্প প্রতিবেদন তৈরির নির্দেশনা পেয়েছে গবেষক দলটি।

সপ্তাহের শুরুতেই এই গবেষণার কারিগরি ও প্রায়োগিক দিক পর্যবেক্ষণ করেন বিজ্ঞানমন্ত্রী স্থপতি ইয়াফেস ওসমান। তিনি বলেন, এই গবেষণার ফলাফল মাঠ পর্যায়ে নিয়ে যেতে উদ্যোগ নেবেন তিনি।

এই গবেষণা কার্যক্রমে প্রতি বছর ৫০০ ইউরো করে ৫ বছরে আড়াই হাজার ইউরো অর্থ সহায়তা দিয়েছে আইএইএ। সেই টাকায় ছোট্ট ল্যাবরেটরিতেই সাফল্য দেখালেন বাংলাদেশের পরমাণু বিজ্ঞানীরা।

দেখুন নিউজটির ভিডিও প্রতিবেদন-

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

চ্যানেল 24 বিশেষ খবর