channel 24

সর্বশেষ

  • গোপালগঞ্জে বঙ্গবন্ধু বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসির পদত্যাগ দাবির প্রতি সমর্থন জানিয়ে সহকারী প্রক্টর হুমায়ুন কবিরের পদত্যাগ

  • প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশেই দুর্নীতি ও অপকর্মের বিরুদ্ধে অভিযান চলছে...

  • তথ্য প্রমাণ পেলে শুধু সম্রাট নয়, কেউ ছাড় পাবে না: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

  • আ.লীগের তৃণমূল থেকে উচ্চ পর্যায় দুর্নীতিতে নিমজ্জিত: ফখরুল

  • অস্ত্র ও মাদক আইনে গ্রেপ্তার কলাবাগান ক্লাবের সভাপতি...

  • সফিকুল ইসলাম ফিরোজের ১০ দিনের রিমান্ড আবেদন

  • ভিসির পদত্যাগ দাবি: গোপালগঞ্জে বঙ্গবন্ধু বিশ্ববিদ্যালয় বন্ধ ঘোষণা...

  • আন্দোলন ঘিরে বহিরাগতদের হামলায় আহত অন্তত ২০ শিক্ষার্থী

  • চট্টগ্রামে জিয়াদ হত্যা মামলার আসামি রাসেল 'বন্দুকযুদ্ধে' নিহত

  • ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়ে ময়মনসিংহ মেডিকেলে নারীর মৃত্যু...

  • গত ২৪ ঘণ্টায় হাসপাতালে ভর্তি ৪০৮ জন: স্বাস্থ্য অধিদপ্তর

মায়ের অপেক্ষা করতে করতে অবশেষে দেখা মিলেছে হাসপাতালের মর্গে

মায়ের অপেক্ষা করতে করতে অবশেষে দেখা মিলেছে হাসপাতালের মর্গে

বিকেল গড়িয়ে সন্ধ্যা নামলেও, নিতে আসেননি মা। অবশেষে মায়ের দেখা মিলেছে হাসপাতালের মর্গে তবে নিথর নিষ্প্রাণ। ২৮ বছর আগে মাকে হারানোর সেই স্মৃতি আজও কাঁদায় সাহারাতকে। যদিও সেই শোকের আবহে বাবাই ধরেছিলেন হাল। কঠোর-কোমল ভালোবাসায় বাবা হয়ে উঠেছিলেন মাও।

সাহারাত সাত বছরের সেই ছোট্ট মেয়েটি আজ অনেক বড়, তবে তার চেয়েও বড় হৃদয়ে পুষে রাখা ২৮ বছর আগের দুঃসহ এক স্মৃতি। কারণ সেদিনই যে চিরতরে হারিয়ে গিয়েছিলো মায়ের চেনা গন্ধ স্নেহের আঁচল।

সালটা ১৯৮৯, ছিনতাইকারীর একটি বুলেট ছিন্নভিন্ন করেছিলো মায়ের হৃৎপিণ্ড। মেয়ের হৃদয় জুড়ে আজও শুকোয়নি সেই রক্তাত্ব ক্ষত ভালোবাসা তাই চোখ বেয়ে গড়িয়ে পড়ে নোনতা জলধারায়।

পারিবারিক আবহে এরপর শোকের ছায়া থাকলেও, সেই শোকটাকেই যেনো তখন পুঁজি করেছিলেন বাবা। নিজের রাশভারী রুপটাকে পেছনে ফেলে, হয়ে উঠেছিলেন মমতাময়ী মা জ্বালিয়েছিলেন ঘরের সাঁঝবাতি।

এ যেনো রুপকথার এক গল্প না থেকেও যে দিব্যি রয়েছেন মা রয়েছেন ঘরের প্রতিটি দেয়ালে পুরোনো এলবামে আর যত্ন করে রাখা মন স্মৃতির ভান্ডারে।

তবে মায়ের জন্য মন জুড়ে যে ভালোবাসার সংসার, সেখানেও যেনো বিঁধে আছে এক কাঁটা। কারণ সগীরা মোর্শেদ: কেস নাম্বার ৪৫(৭) আজও যে অমিমাংসিত।

দেখুন ভিডিওতে-

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

চ্যানেল 24 বিশেষ খবর