channel 24

সর্বশেষ

  • খালেদা জিয়ার মুক্তির বিষয়ে আন্তর্জাতিক মহলকে অবহিত করা হবে: ফখরুল

  • বকেয়া পরিশোধ না হলে চামড়া বিক্রি বন্ধ: আড়তদার সমিতি

  • ধ্বংসাত্মক রাজনীতির কারণে ভুলের চোরাবালিতে বিএনপি: ওবায়দুল কাদের

  • ভারতের নয়াদিল্লিতে অল ইন্ডিয়া মেডিকেল ইনস্টিটিউটের আগুন নিয়ন্ত্রণে

  • অবসর বিষয়ে মাশরাফীর সিদ্ধান্ত দুই মাস পর: বিসিবি সভাপতি

  • ক্রিকেট দলের নতুন হেড কোচ দক্ষিণ আফ্রিকার রাসেল ক্রেগ ডোমিঙ্গো...

  • দায়িত্ব নেবেন ২১ আগস্ট, চুক্তি দুই বছরের: বিসিবি সভাপতি

  • গত ২৪ ঘণ্টায় সারা দেশে ভর্তি ১ হাজার ৪শ' ৬০: স্বাস্থ্য অধিদপ্তর

  • ডেঙ্গুতে ঢাকা মেডিকেলে নারী ও ফরিদপুর মেডিকেলে কলেজছাত্রের মৃত্যু

  • ডেঙ্গু প্রতিরোধ: ঢাকা উত্তরের প্রতিটি ওয়ার্ডকে...

  • ১০ ভাগে ভাগ করে চিরুনি অভিযান: মেয়র আতিকুল

  • ঢাকাকে হংকং, সিঙ্গাপুর বানানোর ঘোষণা স্থানীয় সরকার মন্ত্রীর

  • বকেয়া পরিশোধ না করায় ট্যানারিতে আপাতত...

  • চামড়া না দেয়ার ঘোষণা পোস্তার আড়তদারদের...

  • কাল সরকারের সাথে বৈঠকের পর চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত...

  • চামড়া বিক্রি করা না করা তাদের নিজস্ব ব্যাপার...

  • বকেয়া পরিশোধ হবে কেস টু কেস ভিত্তিতে: ট্যানার্স অ্যাসোসিয়েশন

  • সুপরিকল্পিতভাবে রাজনীতিকে শূন্য করার চক্রান্ত চালাচ্ছে সরকার: ফখরুল

  • কলকাতায় সড়ক দুর্ঘটনায় ২ বাংলাদেশি নিহত

দশ বছরে ঢাকার তাপমাত্রা বেড়েছে ৫ থেকে ৭ ডিগ্রি

দশ বছরে ঢাকার তাপমাত্রা বেড়েছে ৫ থেকে ৭ ডিগ্রি

১০ বছরের ব্যবধানে ঢাকার তাপমাত্রা বেড়েছে ৫ থেকে ৭ ডিগ্রি সেলসিয়াস। গড় তাপমাত্রা ছাড়িয়েছে ৩৩ থেকে ৩৫ ডিগ্রি। শুধু তাই নয়, যে কোনো বিভাগীয় ও জেলা শহরের চেয়ে ৯ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রা বেশি এই শহরে। তাপমাত্রার পারদের এই ঊর্ধ্বমুখিতার প্রভাব সরাসরি পড়ছে ব্যক্তিজীবনে। বিশেষজ্ঞরা বলছেন, প্রকৃতির এই বাড়াবাড়ির জন্য দায়ী মানুষ নিজেই।

ঠাস বুনটের শহর রাজধানী ঢাকা। ক্রমেই হারিয়ে যাচ্ছে সবুজ, নিঃশেষ হচ্ছে জলাধার। গত এক দশকে রাজউকের ডিটেইলড এরিয়া প্ল্যানের (ড্যাপ) আওতাভুক্ত ২২ শতাংশ জলাশয় ভরাট হয়েছে। জায়গা করে নিয়েছে ইট আর কংক্রিট।

বছর দশেক আগেও, গ্রীষ্মের এই সময়ে, ঢাকার গড় তাপমাত্রা থাকতো ৩০ ডিগ্রি সেলসিয়াসের নিচে। এখন তা ঠেকেছে ৩৫ ডিগ্রী সেলসিয়াসের উপরে।

    সাল                                           তাপমাত্রা                      
১৯৯১-২০০০                             ২৭.৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস
২০০১-২০১০                              ২৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস
মে, ২০১৯                                  ৩৩-৩৫ ডিগ্রি সেলসিয়াসের উপরে

প্রকৃতির এই উঞ্ষতায় নাগরিক কোলাহল যখন ভীষণরকম হাঁসফাস এমন সময় ক্লান্তমন চায় একচিলতে ছায়া, আর বিশুদ্ধ শীতল বাতাস। তবে প্রিয় শহর এই ঢাকা যখন, ঢাকা থাকে কংক্রিটে তখন স্বস্তির সেই একটুকরো আশাও বলে হতাশার গল্প।

তাপমাত্রার এই লাগামহীন বৃদ্ধির জন্য গবেষকরা দায়ী করছেন কংক্রিট আর কাঁচে ঢাকা ভবন বেড়ে যাওয়াকে।

গাছপালা না থাকায় ঘাটতি দেখা দিচ্ছে বাতাসে অক্সিজেনের পরিমাণেও। যার প্রভাব পড়ছে মানুষের আচার আচরণে।

এই যখন অবস্থা, তখন এর প্রতিকারে স্থপতিরা দিচ্ছেন কিছু সমাধান। এর মধ্যে যেমন রয়েছে ভবনগুলোর ছাদ কিংবা বেলকোনিতে সবুজায়ন। তেমনি বিল্ডিং কোডে পরিবর্তনের মতো বিষয়ও।

একটি সুস্থ পরিবেশে আগামীর প্রজন্মকে বেড়ে ওঠার সুযোগ করে দিতে দায়িত্ব নিতে হবে এই তিলোত্তমার নাগরিকদেরকেই।

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

চ্যানেল 24 বিশেষ খবর