channel 24

সর্বশেষ

  • জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদের ৭৩তম অধিবেশনে যোগ দিতে...

  • নিউইয়র্ক যাওয়ার পথে যাত্রাবিরতিতে লন্ডনে প্রধানমন্ত্রী

  • কক্সবাজারের উদ্দেশে সড়ক পথে আ.লীগের সাংগঠনিক সফর শুরু...

  • নির্বাচনে জনপ্রিয় ব্যক্তিদের মনোনয়ন দেয়া হবে: কুমিল্লায় সেতুমন্ত্রী

  • রেলপথের মতো সড়কপথের প্রচারণাতেও ব্যর্থ হবে আ.লীগ: রিজভী

  • ২০১৮'র শেষ অথবা ২০১৯'র শুরুতে জাতীয় নির্বাচন: সিইসি...

  • আইনগত ভিত্তি পেলেই ইভিএম ব্যবহার করা হবে

  • নরসিংদীতে ব্রহ্মপুত্র নদে নৌকাডুবি; ভাইবোনসহ ৩ জনের মৃত্যু

পুলিশের অভিযানে গ্রেপ্তার জালটাকা ব্যবসায়ী

পুলিশের অভিযানে গ্রেপ্তার জালটাকা ব্যবসায়ী

কাওসার হামিদ। গত ১৪ বছর ধরে জালটাকার চক্রের সাথে জড়িত। পুলিশের কাছে গ্রেপ্তার হয়েছে আট বার। গত ছয়মাস আগে জেল থেকে ছাড়া পেয়ে এখন পর্যন্ত বাজারে ছেড়েছে প্রায় ১২ কোটি জালটাকা। ঈদকে সামনে রেখে আরও প্রায় আট কোটি টাকা ছাড়ার পরিকল্পনা ছিলো তার। গোয়েন্দা পুলিশের অভিযানে বৃহস্পতিবার রাতে ধরা পড়ে কাওসার ও তার সহযোগীরা।
বড় কোন উৎসব মানেই যেন জাল টাকার ছড়াছড়ি। এবারও কোরবানী ঈদ সামনে রেখে জাল টাকা তৈরীর চক্র আরও বেশী সক্রিয় হয়ে ওঠেছে।
কামরাঙ্গীরচরের একটি বাসায় অবস্থান করছে, সাম্প্রতিক সময়ের সবচেয়ে বড় জাল টাকা ব্যবসায়ী কাওসারের সহযোগীরা। খবর পেয়ে বৃহস্পতিবার রাতে চরের ছয়তলা ভবনের চারতলার একটি বাসায় অভিযান চালায় গোয়েন্দা পুলিশ। সেখানে হাতে নাতে ধরা পড়ে সজিবসহ বেশ কয়েকজন। এই বাসাতেই জাল টাকা তৈরীর প্রাথমিক কাজ সম্পন্ন করা হতো। সজিব জানায় প্রতি ৫০০ কাগজের বান্ডিলের জন্য ১২ হাজার টাকা পেতো সে।
সজিবের দেয়া তথ্যে মূলহোতা কাওসারের সন্ধান পায় পুলিশ। ঐ রাতেই লালবাগের একটি বাসায় অভিযান চালিয়ে জালটাকা ও টাকা তৈরীর সরঞ্জামসহ গ্রেপ্তার করা হয় কাওসারকে। পুলিশ জানায়, প্রতি সপ্তাহে ৪৫-৫০ লাখ জাল টাকা বিক্রি করে কাওসার। আর গত ছয়মাসে প্রায় ১২ কোটি জাল টাকা বাজারে ছেড়েছে সে।
ঈদ সামনে রেখে জাল টাকা ব্যবসায়ী কাওসারের ব্যাপক প্রস্তুতি ছিল বলেও জানান, গোয়েন্দা পুলিশের কর্মকর্তা।

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

চ্যানেল 24 বিশেষ খবর