channel 24

সর্বশেষ

  • উন্নয়ন ধরে রাখতে অশুভ তৎপরতা রুখতে হবে: রাষ্ট্রপতি

  • ধানমন্ডিতে বৈঠকে বসেছেন ফখরুলসহ জাতীয় ঐক্যের নেতারা

  • জনগণকে নয়, বিদেশিদের আস্থায় নিতে চায় ঐক্যফ্রন্ট: সেতুমন্ত্রী...

  • নীতিহীন ঐক্যে জনগণ থাকবে না: ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় আইনমন্ত্রী...

  • সুষ্ঠু নির্বাচনের জন্য সরকারকে আলোচনার আহবান নজরুলের

  • ১৭৭ রোহিঙ্গাকে রাখাইনে পুনর্বাসনের দাবি মিয়ানমারের...

  • প্রত্যাবাসন নিয়ে মিয়ানমারের দাবি মিথ্যা: পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী

  • জাতীয় ঈদগাহে আইয়ুব বাচ্চুর জানাজা; কাল চট্টগ্রামে দাফন

  • প্রতিমা বিসর্জনে আজ শেষ হচ্ছে শারদীয় দুর্গোৎসব

  • প্রস্তুতি ম্যাচ: জিম্বাবুয়েকে ৮ উইকেটে হারিয়েছে বিসিবি একাদশ...

  • স্কোর: জিম্বাবুয়ে ১৭৮ (এবাদত ৫/১৯), বিসিবি ১৮১/২ (সৌম্য ১০২*)

দুর্নীতির অনুসন্ধান বন্ধে চিঠি উচ্চ আদালতের ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ন করেছে: হাইকোর্ট

দুর্নীতির অনুসন্ধান বন্ধে চিঠি উচ্চ আদালতের ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ন করেছে: হাইকোর্ট

সাবেক বিচারপতি জয়নুল আবেদীনের বিরুদ্ধে দুর্নীতির অভিযোগের অনুসন্ধান বন্ধে সুপ্রিম কোর্টের চিঠি উচ্চ আদালতের ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ন করেছে। দুপুরে এ সংক্রান্ত রুলটি নিস্পত্তি করে দেয়া রায়ে এমন পর্যবেক্ষণ দেন হাইকোর্টের একটি দ্বৈত বেঞ্চ। রায়ে মোট সাতটি পর্যবেক্ষণ দেয়া হয়। যাতে বলা হয়, ওই চিঠিটি আপিল বিভাগের প্রশাসনিক আদেশ। সাবেক বিচারপতির দায়মুক্তির এমন আদেশ ভুল বার্তা দিয়েছে জনগণকে।

 

সাবেক বিচারপতি জয়নুল আবেদীনের বিরুদ্ধে দুর্নীতির অভিযোগ অনুসন্ধান শুরুর আগেই তা বন্ধের সুপারিশ করে, দুদককে চিঠি দেয় সুপ্রিম কোর্ট। যা নিয়ে বিভিন্ন মহলে শুরু হয়, আলোচনা-সমালোচনা। শেষপর্যন্ত তা গড়ায় হাইকোর্টে। সুপ্রিম কোর্টের সেই চিঠি বৈধ কিনা তা জানতে গত মাসের শেষ দিকে তিনজন অ্যাকিকাস কিউরির বক্তব্য শুনেন হাইকোর্ট। যাদের সবারই মত আইন সম্মত হয়নি চিঠিটি। 

এর দুসপ্তাহ পর সেই মামলার রায় দিলে, বিচারপতি এম ইনায়েতুর রহিমের নেতৃত্বাধীন হাইকোর্ট ব্ঞ্চে। ৭টি পর্যবেক্ষণসহ নিষ্পত্তি হয় মামলাটি। রায়ে বলা হয়, ওই চিঠি সুপ্রিম কোর্টের নয়, বরং আপিল বিভাগের অফিস আদেশ। যাতে ক্ষুণ্ন হয়েছে উচ্চ আদালতের ভাবমূর্তি। পর্যবেক্ষণে আরও বলা হয়, চিঠি দিয়ে সাবেক বিচারপতিদের দায়মুক্তি, সাধারণ মানুষের কাছে ভুল বার্তা দিয়েছে। রাষ্ট্রপতি ছাড়া কেউই দায়মুক্তি পেতে পারেন না। 

রায়ে একরকম তুলোধুনা করা হয় দুদককে। দুর্নীতি মামলার অনুসন্ধান সাত বছরেও শেষ না হওয়ায়, অস্তুষ্টি প্রকাশ করেন হাইকোর্ট। তবে এ রায়কে সাধুবাদ জানিয়েছেন, জয়নুল আবেদীনের আইনজীবী। সাবেক বিচারপতি জয়নুল আবেদীনের বিরুদ্ধে জ্ঞাত আয় বহির্ভূত সম্পদ অর্জনের অভিযোগে, ২০১০ সালে সম্পদের হিসাব চেয়ে নোটিশ দেয় দুদক। যা এখনও অনুসন্ধান পর্যায়েই রয়েছে।

 

সর্বশেষ সংবাদ

জাতীয় খবর