channel 24

সর্বশেষ

  • ভবিষ্যতে কেউ যাতে দেশের মানুষের ভাগ্য নিয়ে ছিনিমিনি...

  • খেলতে না পারে সে ব্যাপারে ভবিষ্যৎ প্রজন্মকে সতর্ক থাকতে হবে...

  • ১৫ আগস্টের হত্যাকাণ্ডে জিয়াউর রহমান জড়িত ছিলেন বলেই...

  • খন্দকার মোশতাক তাকে সেনাপ্রধান করেছিলেন...

  • শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবসের আলোচনায় প্রধানমন্ত্রী

  • ব্রিটেনে নির্বাচনে জয়ী হওয়ায় বরিস জনসনকে প্রধানমন্ত্রীর অভিনন্দন

  • শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবসে জাতির শ্রেষ্ঠ সন্তানদের স্মরণে পুরো দেশ...

  • মিরপুরে শহীদ বুদ্ধিজীবী স্মৃতিসৌধে রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা

  • যুদ্ধাপরাধী জামায়াত নেতা কাদের মোল্লাকে 'শহীদ' বলায়...

  • দৈনিক সংগ্রামের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া উচিত: ওবায়দুল কাদের

  • জাতীয় ঐক্যের মাধ্যমে দেশে গণতন্ত্র ফিরিয়ে আনতে হবে: ফখরুল

  • মুন সিনেমার মালিকানা নিয়ে সংবিধান সংশোধনী...

  • কতটা যৌক্তিক, প্রশ্ন সাবেক বিচারপতি আব্দুল মতিনের

  • বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রী রুম্পার শরীরে ধর্ষণের আলামত মেলেনি: চিকিৎসক...

  • কাল পুলিশের কাছে দেয়া হবে প্রাথমিক প্রতিবেদন

  • সাময়িক বন্ধ থাকার পর স্বাভাবিক হয়েছে তামাবিল সীমান্তে যাত্রী চলাচল

  • সড়ক দুর্ঘটনায় পাবনার আটঘরিয়ায় জামাই-শ্বশুর নিহত

আবরার হত্যার দুই দিনেও ক্যাম্পাসে অনুপস্থিত ভিসি

আবরার হত্যার দুই দিনেও ক্যাম্পাসে অনুপস্থিত ভিসি

বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) তড়িৎ প্রকৌশল বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র আবরার ফাহাদকে (২১) পিটিয়ে হত্যার দুই দিনেও ক্যাম্পাসে অনুপস্থিত বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি (উপাচার্য) অধ্যাপক ড. সাইফুল ইসলাম। এ নিয়ে ক্ষোভ প্রকাশ করেছে শিক্ষার্থীরা।

আবরার ফাহাদের হত্যাকারীদের ফাঁসিসহ আট দফা দাবি জানিয়েছে বুয়েটের শিক্ষার্থীরা। মঙ্গলবার (৮ অক্টোবর) সকালে ১০ টার পরে সাধারণ শিক্ষার্থীদের ব্যানারে মিছিল বের করেন তারা। তারা ভিসিকে বিকাল ৫টার মধ্যে ক্যাম্পাসে এসে জবাবদিহিতা করার দাবি জানিয়েছেন।

আন্দোলনকারীরা সাংবাদিকদের জানান, মঙ্গলবার বিকাল ৫টার মধ্যে ভিসি ক্যাম্পাসে এসে জবাবদিহিতা না করা পর্যন্ত তারা ক্যাম্পাসে অবস্থান করবেন।

মিছিল নিয়ে বিশ্ববিদ্যালয় ঘুরে শহীদ মিনার প্রাঙ্গনে অবস্থান নেন বিক্ষোভকারীরা।

শিক্ষার্থীরা দাবি জানান, বিশ্ববিদ্যালয়ে ছাত্ররাজনীতি বন্ধের। এছাড়া আবরার হত্যার সাথে জড়িত সবার সর্বোচ্চ সাজা, দ্রুত বিচার আইনে বিচার, ছাত্রত্ব বাতিলসহ বেশ কিছু দাবি জানান তারা। একই সাথে আজ বিকাল ৫ টার মধ্যে বিশ্ববিদ্যালয়ে এসে উপাচার্যকে ঘটনার দিন ক্যাম্পাসে না আসার ব্যাখ্যা দেয়ার দাবি জানান শিক্ষার্থীরা।

নাম না প্রকাশ করার শর্তে একজন বলেন, 'পূজার ছুটি থাকায় স্যার (ভিসি) গত দু’দিন ক্যাম্পাসে আসেননি।'

আবরার ইলেকট্রিক্যাল অ্যান্ড ইলেকট্রনিক ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র ছিলেন। থাকতেন শেরে বাংলা হলের ১০১১ নম্বর রুমে।

ফেসবুকে একটি স্ট্যাটাস জেরে আবরার ফাহাদকে রোববার (৬ অক্টোবর) রাতে ডেকে নিয়ে যায় বুয়েট শাখা ছাত্রলীগের কয়েকজন নেতাকর্মী। এরপর রাত ৩টার দিকে শেরেবাংলা হলের নিচতলা ও দোতলার সিঁড়ির করিডোর থেকে তার মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। আবরারের বাড়ি কুষ্টিয়ায়। তার বাবা বরকত উল্লাহ একজন এনজিও কর্মী, মা রোকেয়া বেগম কিন্ডার গার্টেন স্কুলে শিক্ষকতা করেন। দুই ভাইয়ের মধ্যে আবরার বড়। তার ছোট ভাই ঢাকা কলেজের ছাত্র।

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

জাতীয় খবর