channel 24

সর্বশেষ

  • আবরার হত্যা: কাল সকাল ১১টায় শহীদ মিনারে...

  • জড়ো হবেন বুয়েট শিক্ষার্থীরা; ঘোষণা হবে পরবর্তী কর্মসূচি

  • উখিয়ায় রোহিঙ্গা ক্যাম্পে যুবককে জবাই করে হত্যা; ঘাতক আটক

  • তেজষ্ক্রিয় বর্জ্য ও ব্যবহৃত পারমাণবিক জ্বালানি...

  • ব্যবস্থাপনা বিষয়ক জাতীয় নীতির অনুমোদন মন্ত্রিসভায়

  • প্রধানমন্ত্রীর সাথে দেখা করতে গণভবনে আবরারের পরিবার

  • আবরার হত্যা: বুয়েট পরীক্ষা চলাকালে গণস্বাক্ষর সংগ্রহ শিক্ষার্থীদের...

  • আসামি অমিত সাহা বুয়েট ছাত্রলীগ থেকে বহিষ্কার...

  • চলমান সংকট সমাধানে কয়েকটি কমিটি করা হয়েছে: ভিসি

  • গুলিস্তানে পুলিশের ওপর বোমা হামলা: আজমির ও তামীম ৫ দিনের রিমান্ডে

  • নোবেলজয়ী ড. মুহাম্মদ ইউনূসের বিরুদ্ধে কর্মচারীদের চাকরিচ্যুতের...

  • ৩ মামলায় জারি করা গ্রেপ্তারি পরোয়ানা হাইকোর্টে স্থগিত

  • ভারত থেকে পেঁয়াজ না আসা পর্যন্ত দাম একটু বেশি থাকবে...

  • মজুদ থাকার পরও দাম কেন বাড়ছে, তদন্তে ব্যবস্থা: বাণিজ্যমন্ত্রী

  • সুনামগঞ্জের দিরাইয়ে পাঁচ বছরের শিশুকে বিভৎস কায়দায় হত্যা...

  • আটক ৭ জনের মধ্যে ৩ জনের সম্পৃক্ততা রয়েছে: পুলিশ

  • জাপানে টাইফুন হাগিবিসের আঘাতে নিহতের সংখ্যা বেড়ে ৫৬; নিখোঁজ ১৫

বঙ্গবন্ধুর খুনি নূর চৌধুরীর অবস্থান প্রকাশে বাধা নেই : কানাডার আদালত

বঙ্গবন্ধুর খুনি নূর চৌধুরীর অবস্থান প্রকাশে বাধা নেই : কানাডার আদালত

কানাডায় থাকা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের খুনি নূর চৌধুরীর অবস্থানের বিষয়ে তথ্য পেতে বাংলাদেশের আবেদন মঞ্জুর করেছেন দেশটির ফেডারেল আদালত।

চারটি বিষয় বিবেচনা করে অন্টারিও ফেডারেল আদালতের বিচারক জেমস ডব্লিউ ও রেইলি এই রায় দেন। ডব্লিউ ও রেইলি এক রায়ে বলেন, নূর চৌধুরীর স্ট্যাটাস প্রকাশ না করার সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে বাংলাদেশ এখন জুডিশিয়াল রিভিউ আবেদন করেছে। আমার বিবেচনায় বাংলাদেশের আবেদন গ্রহণ করা উচিত।

প্রসঙ্গত, ১৯৯৬ সালে নূর চৌধুরী এবং তার স্ত্রী কানাডাতে পর্যটক হিসেবে প্রবেশের পর উদ্বাস্তু সুরক্ষার জন্য আবেদন করেন। ১৯৯৮ সালে দেশে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান হত্যা মামলায় অন্য আসামিদের সঙ্গে নূর চৌধুরীকে দোষী সাব্যস্ত করা হয় এবং আদালত তার মৃত্যুদণ্ড ঘোষণা করে। ২০০২ সালে কানাডার কোর্ট নূর চৌধুরী দম্পতির করা আবেদনটি প্রত্যাখ্যান করে। এর বিরুদ্ধে আপিল করলেও ২০০৬ সালে ঘোষিত রায়ে হেরে যান তারা।

২০০৯ সালে আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় আসার পরে নূর চৌধুরী প্রি-রিমোভাল রিস্ক অ্যাসেসমেন্ট আবেদন করে কানাডার অ্যাটর্নি জেনারেলের কাছে। এটি করার উদ্দেশ্য হচ্ছে, তাকে যেন কানাডা থেকে বহিষ্কার করা না হয়।

২০১০ সাল থেকে এ বিষয়ে বাংলাদেশ কানাডার সঙ্গে আলোচনা করছে। ২০১৮ সালে কানাডার অ্যাটর্নি জেনারেলের কাছে বাংলাদেশ একটি চিঠি দিয়ে নূর চৌধুরীর বিষয়ে তথ্য চেয়ে সেদেশের মন্ত্রীর কাছে লিখিত আবেদন করেন। তবে, বাংলাদেশে এবং কানাডার মধ্যে তথ্য আদান প্রদানে কোন চুক্তি না থাকায় দেশটি বাংলাদেশকে নূর চৌধুরীর বিষয়ে কোন তথ্য দেয়নি। একই সাথে হাই কমিশন তথ্য আদান প্রদানে একটি চুক্তি করতে চাইলেও সেটি প্রত্যাখান করা হয়।

পরে গত জুনে কানাডার ফেডারেল কোর্টে এ বিষয়ে একটি মামলা করে বাংলাদেশ। এ সংক্রান্ত শুনানি গত ২৫ মার্চ অনুষ্ঠিত হয়। এরপর মঙ্গলবার এ রায় ঘোষণা করে আদালত।

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

জাতীয় খবর