channel 24

সর্বশেষ

  • ঈদের আগের ৭ ও পরের ৫ দিন সিএনজি ও পেট্রোল পাম্প ২৪ ঘণ্টা খোলা...

  • আগের ৩ দিন ট্রাক, কাভার্ড ভ্যান চলাচল বন্ধ থাকবে: কাদের

  • ভারতের লোকসভা নির্বাচন: বিজেপি জোট এগিয়ে ৩২৬ আসনে...

  • কংগ্রেস জোট ১০৫ আসনে; পশ্চিমবঙ্গে বিজেপি-তৃণমূল হাড্ডাহাড্ডি লড়াই...

  • বসিরহাটে এগিয়ে নুসরাত; যাদবপুরে মিমি চক্রবর্তী; ঘাটালে এগিয়ে দেব

গ্রাম আদালতে অল্প সময়ে বিচার পাচ্ছেন ভুক্তভোগীরা

গ্রাম আদালতে অল্প সময়ে বিচার পাচ্ছেন ভুক্তভোগীরা

গ্রাম আদালতে অল্প সময়েই বিচার পাচ্ছেন ভুক্তভোগীরা। তাই জনপ্রিয় হচ্ছে এটি। জেলা জজ আদালত থেকেও মামলা পাঠানো হচ্ছে গ্রাম আদালতে।

সংশ্লিষ্টরা বলছেন, মামলার জট কমাতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করছে এ ব্যবস্থা। গাজীপুর জেলার ভেংগুরদি গ্রামের মঞ্জুরুল হক আকন্দ। ২০১৩ সালে টোক বাজার এলাকায় মারামারির ঘটনায় আহত হন তারা ছেলে।

এ ঘটনায় থানায় মামলা হলে পরবর্তীতে তা গড়ায় আদালতে। ২০১৯ সালে মামিলাটি গ্রাম আদালতে পাঠান আদালত।

টোক ইউনিয়ন পরিষদের নয়াসাংগুন গ্রামের হাসনা হেনা। একটি বাঁশ ঝাড়ে মালিকানা নিয়ে আত্মীয় সিরাজ উদ্দিনের সাথে বিরোধে জড়িয়ে পড়েন তিনি। তবে গ্রাম আদালতে এসে অল্প সময়ে পেয়েছেন বিচার। এই আদালতের আদেশে খুশি তিনি।

২০১০ থেকে ২০১৫ সাল পর্যন্ত প্রকল্প এলাকায় ৮৭ হাজার ২২০টি মামলা করা হয়। এরমধ্যে ৬৯ হাজার ২০০টি মামলা নিষ্পত্তি করা হয়।

এসময় জেলা জজ আদালত থেকে ৬ হাজার ২১৮টি মামলা গ্রাম আদালতে পাঠানো হয়। ২০১৭ সাল থেকে ২০১৯ সাল পর্যন্ত গ্রাম আদালতে মামলা হয় ৯৮ হাজার ৫০০টি। নিষ্পত্তি হয় ৭৬ শতাংশ মামলা, আর সিদ্ধান্ত বাস্তবায়িত হয়েছে ৯৩ শতাংশ।

দুই বছরে বিচার প্রার্থীদের নারী ছিলেন ২৮ শতাংশ আর ১৪ শতাংশ নারী ছিলেন প্যানেল সদস্য। নারী প্রতিনিধি বাড়ানোর উপর জোর দিয়েছেন জন প্রতিনিধিরা।

কাপাসিয়ার উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা জানালেন, গ্রাম আদালত মামলার জট কমাতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করছে।

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

জাতীয় খবর