channel 24

সর্বশেষ

  • জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদের ৭৩তম অধিবেশনে যোগ দিতে...

  • নিউইয়র্ক যাওয়ার পথে যাত্রাবিরতিতে লন্ডনে প্রধানমন্ত্রী

  • কক্সবাজারের উদ্দেশে সড়ক পথে আ.লীগের সাংগঠনিক সফর শুরু...

  • নির্বাচনে জনপ্রিয় ব্যক্তিদের মনোনয়ন দেয়া হবে: কুমিল্লায় সেতুমন্ত্রী

  • রেলপথের মতো সড়কপথের প্রচারণাতেও ব্যর্থ হবে আ.লীগ: রিজভী

  • ২০১৮'র শেষ অথবা ২০১৯'র শুরুতে জাতীয় নির্বাচন: সিইসি...

  • আইনগত ভিত্তি পেলেই ইভিএম ব্যবহার করা হবে

  • নরসিংদীতে ব্রহ্মপুত্র নদে নৌকাডুবি; ভাইবোনসহ ৩ জনের মৃত্যু

ইলিশের পূর্ণাঙ্গ জীবনরহস্য উন্মোচনের দাবি বিজ্ঞানীদের

ইলিশের পূর্ণাঙ্গ জীবনরহস্য উন্মোচনের দাবি বিজ্ঞানীদের

জাতীয় মাছ ইলিশের জীবন রহস্য উন্মোচন করেছেন, বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের বিজ্ঞানীরা। সকালে সংবাদ সম্মেলনে এই তথ্য নিশ্চিত করা হয়। বিজ্ঞানীরা বলছেন, এই গবেষণা ইলিশের টেকসই প্রজনন ও সংরক্ষণে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে। বাঙালির সবচেয়ে কাঙ্খিত মাছের নাম ইলিশ। সবচেয়ে দামিও। যে কারণে চাইলেও সবার পাতে উঠে না এই মাছ।

সেই ইলিশের জীবন রহস্য প্রস্তুত করা, জিনোমিক ডাটাবেজ স্থাপন, এবং মোট জিনের সংখ্যা নির্ণয়ে সাফল্য পেয়েছেন, বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের একদল গবেষক। জিনকে বলা হয় জীবনগতির ধারক এবং বাহক। এর মাধ্যমেই নির্ধারিত হয় জীবের চারিত্রিক বৈশিষ্ট্যসহ পরিবেশগত নানা আচরণ। বাকৃবি, ফিশারিজ বায়োলজি অ্যান্ড জেনেটিক্স বিভাগের প্রফেসর ড. মো. সামছুল আলম বলেন, জিন বিন্যাসের মাধ্যমে, নতুন তথ্য উন্মোচনের মাধ্যমে নিশ্চিত করা যাবে ইলিশের টেকসই প্রজনন ও সংরক্ষণ।

পোল্টি বিজ্ঞান বিভাগের প্রফেসর ড. মো. বজলুর রহমান মোল্যা জানান, ২০১৭ সালের ৩১ জুলাই ইলিশের পূর্ণাঙ্গ জিনোম অ্যাসেম্বলি প্রস্তুত হয়। ওই বছরের ২৫ আগস্ট সম্পূর্ণ জিন বিন্যাস আন্তর্জাতিক জিনোম ডাটাবেজ ন্যাশনাল সেন্টার ফর বায়োটেকনোলজি ইনফরমেশনে জমা করা হয়।

বাকৃবির ফিশারিজ বায়োলজি এন্ড ডেনেটিক্স বিভাগের অধ্যাপক ড. মো. সামছুল আলম জানান, ইলিশের জিনোমিক ডাটাবেজ স্থাপন এবং মোট জিনের সংখ্যা নির্ণয় করার জন্য গবেষণার সাফল্য পেয়েছেন তারা। ইলিশের জিনোমে ৭৬ লক্ষ ৮০ হাজার নিউক্লিওটাইড রয়েছে। যা মানুষের জিনোমের প্রায় এক চতুর্থাংশ। ২০১৫ সাল থেকে এই গবেষণা শুরু করেন বিজ্ঞানীরা।

ইলিশের জিন বিন্যাস আবিস্কারে দেশের অন্য একটি গবেষণা দল যে দাবি করেছেন, তা সঠিক নয় বলে জানান বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রফেসর ড. মো. সামছুল আলম। গেলো বছর বাংলাদেশের ভৌগলিক নির্দেশক পণ্য হিসেবে স্বীকৃতি মেলে ইলিশ মাছের।

 

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

জাতীয় খবর