channel 24

সর্বশেষ

  • যান্ত্রিক ত্রুটিতে ১৬৪ যাত্রী ও ৭ ক্রু নিয়ে চট্টগ্রাম বিমান বন্দরে...

  • জরুরি অবতরণ ইউএস বাংলার কক্সবাজারগামী ফ্লাইট, আহত ৪...

  • বিকাল সাড়ে ৪টা পর্যন্ত বিমান ওঠানামা বন্ধ

  • রোহিঙ্গা শরণার্থীদের নিয়ে সংকটে ভুগছে বাংলাদেশ: প্রধানমন্ত্রী

  • জিয়া চ্যারিটেবল মামলা: খালেদা জিয়া ও মনির জামিনে থাকবেন...

  • দুদকের রায়ের তারিখ ধার্যের আবেদন বিষয়ে আদেশ ৩০ সেপ্টেম্বর

  • জনগণের তথ্যের অধিকার প্রতিষ্ঠায় গণমাধ্যমকে...

  • অতন্দ্র প্রহরীর ভূমিকা পালন করতে হবে: প্রধান বিচারপতি

  • মালয়েশিয়ার কুয়ালালামপুরে ১৪৫ বাংলাদেশিসহ ১৭৩ জন আটক

  • লিবিয়া থেকে আজ দেশে ফিরছেন ১৫৭ 'অবৈধ' বাংলাদেশি

  • এসকে সিনহার ব্যাংক হিসাবে অর্থ জমার ঘটনা অনুসন্ধানে...

  • ফারমার্স ব্যাংকের সাবেক ব্যবস্থাপনা পরিচালক...

  • এ কে এম শামীমসহ ৬ জনকে জিজ্ঞাসাবাদ করছে দুদক

  • ড. মঈন খানের বাসায় মার্কিন রাষ্ট্রদূতসহ কূটনীতিকরা...

  • নৈশভোজের আয়োজন ছিল, রাজনীতি নিয়ে আলোচনা হয়নি: মান্না

  • মাদকবিরোধী অভিযান: মুন্সিগঞ্জের মীরকাদিমে একজন নিহত

  • এশিয়া কাপ: আজ মুখোমুখি বাংলাদেশ-পাকিস্তান (বিকাল ৫:৩০)...

  • জয়ী দল ফাইনাল খেলবে ভারতের বিপক্ষে

নির্যাতিত মানুষের অধিকার প্রতিষ্ঠায় কখনও মাথানত করেননি বঙ্গবন্ধু

নির্যাতিত মানুষের অধিকার প্রতিষ্ঠায় কখনও মাথানত করেননি বঙ্গবন্ধু

১৯৪৭ থেকে একাত্তর, পরাধীনতার সেই সব দিনে গোয়েন্দাদের নজরে থাকতেন বাঙালির অবিসংবাদিত নেতা বঙ্গন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান। সেই সব গোয়েন্দা রিপোর্টই এবার পুস্তক আকারে প্রকাশ হতে যাচ্ছে। সিক্রেট ডকুমেন্টস অব ইন্টেলিজেন্ট ব্রাঞ্চ অন ফাদার অব দ্য নেশন, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এই নামে ১৪ খন্ডের সেই বইয়ের প্রথম খন্ড প্রকাশিত হলো, বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনার হাতে।

জাতির জনকের ওপর পুলিশের ইন্টালিজেন্স ব্রাঞ্চের গোপন নথির প্রকাশনা উৎসবে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ১৪ খন্ডের বইয়ের প্রথম খন্ডের মোড়ক উন্মোচন করেন। এ খন্ডে ৪৮-৫০ সাল পর্যন্ত বঙ্গবন্ধুর ওপর বিভিন্ন গোয়েন্দা তথ্য সন্নিবেশ করা হয়। বাকি খন্ডগুলোতে ৭১ সাল পর্যন্ত তথ্যের সমারোহ হবে।

প্রধানমন্ত্রী প্রথম খন্ডের মোড়ক উন্মোচন করেন ও ধন্যবাদ জানান এর সাথে সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের প্রতি। প্রকাশকদের প্রতি আহ্বান জানান বাকি খন্ডগুলোর কাজ দ্রুত শেষ করতে। এ সময় প্রধানমন্ত্রী বলেন, মানুষের অধিকার আদায়ে কখনও মাথা নত করেননি জাতির পিতা।

তিনি আরও বলেন, ইতিহাস থেকে জাতির জনকের নাম মুছে ফেলার চেষ্টা হয়েছে বহুবার। তবে বারবারই প্রমানিত হয়েছে সত্যকে কখনো মিথ্যা দিয়ে আড়াল করা যায় না। বঙ্গবন্ধুর নাম এখন বিশ্বে উজ্জ্বল। স্বাধীনতা বিরোধীধের কাছেও বাংলাদেশের অগ্রযাত্রা এখন ঈর্ষনীয়। এসব নথি নতুন প্রজন্মকে সত্য ইতিহাস জানতে আরো উৎসাহ যোগাবে।

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

জাতীয় খবর