channel 24

সর্বশেষ

  • করোনায় একদিনে সর্বোচ্চ ৪০ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ২৫৪৫

  • ভাচুর্য়াল আদালত পরিচালনার প্রতিবাদে ঢাকায় আইনজীবীদের বিক্ষোভ

  • গণপরিবহন না থাকায় রাজধানীতে যাত্রী দুর্ভোগ

  • কেমন হওয়া উচিত এবারের কৃষি বাজেট?

  • দেশের শীর্ষ স্থানীয় ব্যবসায়ী আব্দুল মোনেম বার্ধক্যজনিত কারণে মারা গেছেন

  • ঘূর্ণিঝড় আম্পানে ১০ হাজার ২'শ ৫৭টি চিংড়ি ঘের ক্ষতিগ্রস্ত

  • কুমিল্লা নগরীতে করোনা আক্রান্ত এক নারীর মৃত্যু

  • যশোরে র‌্যাবের সাথে 'বন্দুকযুদ্ধে' মাদক ব্যবসায়ী নিহত

  • যশোর শিক্ষা বোর্ডে পাশের হার ৮৭ দশমিক ৩১

  • দিনাজপুর শিক্ষা বোর্ডে পাশের হার ৮২ দশমিক ৭৩

  • কুমিল্লা শিক্ষা বোর্ডে পাসের হার ৮৫ দশমিক ২২; জিপিএ-৫ পেয়েছে ১০ হাজার ২৪৫ জন

  • কুমিল্লায় নিখোঁজের ৩ দিন পর যুবকের মরদেহ উদ্ধার, চাচী আটক

  • ময়মনসিংহ শিক্ষা বোর্ডে জিপিএ ৫-এ মেয়েরা এগিয়ে

  • মৌলভীবাজারে ঘরে ঢুকে এক ব্যক্তিকে গলাকেটে হত্যা

  • সিলেট শিক্ষা বোর্ডে এবার বেড়েছে পাসের হার ও জিপিএ ৫

ঈদ উৎসবে ফ্যাশনহাউজে চড়া দাম রাখার অভিযোগ

ঈদ উৎসবে ফ্যাশনহাউজে চড়া দাম রাখার অভিযোগ

ঈদ উৎসবে প্রায়ই শোনা যায় 'নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যের সাথে বেড়েছে পোশাকের দাম'। অভিযোগ, দেশীয় ব্র্যান্ড কিংবা খ্যাতনামা ফ্যাশনহাউজে চড়া দামে বিক্রি হচ্ছে পোশাক। যা সাধ এবং সাধ্যের বাইরে। যদিও পাইকারি ব্যবসায়িদের দাবি সুতা আমদানি থেকে শুরু করে পোশাক তৈরিতে খরচ বেড়েছে কয়েকগুণ। তাইতো ক্রেতাদের চাহিদা মেটাতে গিয়েই বাড়ছে বিবাদ।

আন্তর্জাতিক বিশ্বে যখন উৎসব কেন্দ্র করে ছাড় দেয়া হয় পোশাকসহ নিত্যপ্রয়োজনীয় পন্যে। তখন ঈদ ঘিরে দেশের চিত্রটা একেবারেই ভিন্ন। গেল কয়েক বছরের ধারাবাহিকতায় বেড়েই চলেছে পোশাকের দাম।

এই যখন অবস্থা, তখন খুচরা ব্যবসায়ী আর ফ্যাশান হাউজে প্রদর্শীত মান সম্পন্ন দেশীয় পোশাকের দাম চড়া। তবে জীবনযাত্রার মানবৃদ্ধিসহ নানা কারনে পোশাকের মূল্য নিয়ে ক্রেতাদের রয়েছে মিশ্রপতিক্রিয়া।

পাইকারি ব্যবসায়িরা বলছেন, সময়ের পালা বদলে যেমন বেড়েছে সুতার দাম, তেমনি সমান তালে এগিয়েছে আমদানি ব্যয়। পাশাপাশি পাল্লা দিতে হচ্ছে ভারতীয় ও পাকিস্তানি পোশাকের সাথে। তাই তো দেশীয় পোশাকে দামের তারতম্য বহুলঅংশেই দৃশ্যমান।

সুতি, তাত, সিল্ক কিংবা মসলিন যে কাপড়ই হোকনা কেনো, যুগোপযুগি ডিজাইন সাথে বাহারি কারুকাজের পোশাকের চাহিদা মেটাতে তৈরিতে খরচ বেড়েছে দুই থেকে তিন গুন। দর্জি বাড়ি হয়ে বাহারি পোশাক পাইকারের হাতে পৌঁছতেই যুক্ত হয় মজুরি আর বহন খরচ।

তবে সব কিছু ছাপিয়ে ক্রেতা-বিক্রেতারা বলছেন বৃদ্ধি পেয়েছে দেশীয় পন্যের মান সাথে বিশ্বের সাথে তাল মিলিয়ে তৈরি হচ্ছে ফ্যাশানেবল পোশাকও।  

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

লাইফস্টাইল খবর