channel 24

সর্বশেষ

  • জুলাইয়ের ২য় সপ্তাহের মধ্যে ঢাকা ওয়াসার পানি পরীক্ষার...

  • প্রতিবেদন দাখিলের নির্দেশ হাইকোর্টের

  • কেরাণীগঞ্জে খালেদা জিয়াকে স্থানান্তর সরকারের নতুন ষড়যন্ত্র...

  • এখানে আদালত স্থাপন সংবিধান পরিপন্হি: মওদুদ

  • কুষ্টিয়ায় স্কুল শিক্ষিকাকে ধর্ষণের দায়ে প্রধান শিক্ষক...

  • শরিফুল ইসলামকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড ও ১ লাখ টাকা জরিমানা

  • মাদারীপুরের স্কুলছাত্রী ধর্ষণচেষ্টা ও নির্যাতনের মামলায়...

  • পুলিশ সদস্য মোক্তার হোসেন মোল্লা গ্রেপ্তার

  • রিপোর্ট পাওয়ার পরেও দুধে সিসা পরীক্ষা না করায়...

  • বিএসটিআইএর কার্যক্রমে হাইকোর্টের অসন্তোষ

  • সদরঘাটে দখল করে থাকা ২৭টি দোকান উচ্ছেদ করেছে বিআইডব্লিউটিএ

  • সংরক্ষিত নারী আসনে বিএনপির রুমিন ফারহানার মনোনয়ন বৈধ: ইসি

ওষুধ ছাড়াই আরাম পাবেন মাথার যন্ত্রণা থেকে

ওষুধ ছাড়াই আরাম পাবেন মাথার যন্ত্রণা থেকে

সামান্য মানসিক চাপে পড়লেই মাথা দপদপ, মাথার রগের দু’পাশ ধরে যন্ত্রণা, নইলে মাথা-ঘাড় জুড়ে ব্যথা। মাইগ্রেন বা সাইনাস না থাকলেও এই রকম মাথা যন্ত্রণার শিকার হয়ে থাকেন অনেকেই।

মাথা ব্যথা কিন্তু শরীরের অন্য কোনও সমস্যারও ইঙ্গিত বহন করে। তাই মাথা ব্যথার অনুষাঙ্গিক অন্য কোনও সমস্যা যোগ হলে আজই সাবধান হোন।

আরও জানতে: আটকের পর যা বললেন ভারতীয় পাইলট

দূর করুন শরীরের স্ট্রেচ মার্ক

তামিম ইকবালের সেঞ্চুরি

সর্দিতে মাথা যন্ত্রণা হওয়া আর মাঝে মাঝেই মাথা ব্যথায় কাবু হয়ে পড়া এক জিনিস নয়। মাথা যন্ত্রণার সঙ্গে ঝাপসা দেখা বা চোখ থেকে জল পড়ার মানে দৃষ্টিশক্তির সমস্যাও হতে পারে। আবার এর সঙ্গে অজ্ঞান হয়ে যাওয়া বা চোখে অন্ধকার দেখার অর্থ কিন্তু মস্তিষ্কের স্নায়ুগত কোনও সমস্যাও হতে পারে।
অনেকেরই মাথার সঙ্গে ঘাড়ে ব্যথা, গা-বমি ভাব এ সবও হয়ে থাকে, তখন আবার ইঙ্গিত যায় মাইগ্রেনের দিকে। আবার মাথার পিছন দিকে ঘন ঘন অসহ্য যন্ত্রণা কিন্তু কোনও টিউমার জাতীয় অসুখ থেকেও হতে পারে।

তাই মাঝে মাঝেই মাথা ব্যথা হলে সচেতন হতে হবে। কপাল জুড়ে মাথা যন্ত্রণা, না কি মাথার পিছন দিকে ধীরে ধীরে ব্যথা ছড়িয়ে পড়া ঠিক কী ভাবে আর কোথায় যন্ত্রণা হচ্ছে তার উপরেও নির্ভর করে চিকিৎসা। তাই মাথা যন্ত্রণায় বার বার ভুগলে অবশ্যই চিকিৎসকের পরামর্শ নিতে হবে। কিন্তু সব সময় চিকিৎসকের কাছে যাওয়ার সুযোগ বা সময় হয় না, আবার ওষুধ খেলেই যে সঙ্গে সঙ্গে ব্যথা কমে যায় এমনটাও নয়।

অনেকেই মাথা যন্ত্রণা কমাতে প্যারাসিটামল বা বেদনানাশক ওষুধ খান। যখন তখন সে সব ওষুধ খাওয়া শরীরের পক্ষে মোটেই ভাল নয়। তাই কিছুটা ঘরোয়া উপায়ও অবলম্বন করতে হয় আমাদের। চিকিৎসকের কাছে যাওয়ার আগে এই সব উপায় মেনে চললেও মাথা যন্ত্রণা থেকে মুক্তি মিলবে। তবে তা বলে চিকিৎসাকে অবহেলা করবেন না যেন!

কফি ও চা-এ না: মাথা যন্ত্রণা হলেই চা বা কফির উপর নির্ভর করেন অনেকেই। আমাদের ধারণা চা বা কফি মাথাব্যথা সারায়। আসলে কফির ক্যাফিন স্নায়ুকে উদ্দীপ্ত করে ফলে ব্যথা কমেছে বলে মনে হয়। সে ধারণা ভুল। উল্টে মাথা ব্যথা সারাতে বেশি মাত্রায় চা-কফি শরীরের অন্য জটিলতা ডেকে আনতে পারে ও ক্যাফিন নির্ভর করে তুলতে পারে, যা ক্ষতিকর।

নিরুদ্বেগ বিরাম: মাথা যন্ত্রণার বাড়বাড়ি হলে কখনও কাজের মধ্যে থাকবেন না। সম্ভব হলে অন্ধকার ঘরে চোখ বুজে বসে থাকুন। চেষ্টা করুন পছন্দের গান শুনতে। এসি চালাবেন কি না তা নির্ভর করবে ঘরের আবহাওয়া কেমন পছন্দ করবেন তার উপর। আধ ঘণ্টা চোখ বুজে বিশ্রাম নিতে নিতে কোনও রকম মোবাইল চেকিং, গেম খেলা, টিভি দেখা এ সব করবেন না।

উগ্র গন্ধ এড়ান: পারফিউম, ধূপধুনো বা রুম ফ্রেশনারের উগ্র গন্ধ থেকেও মাথা যন্ত্রণার সূত্রপাত হতে পারে। এমন হলে সে সব গন্ধ থেকে এই সময়টা দূরেই থাকুন। সাবান, ময়শ্চারাইউজারের গন্ধও এড়িয়ে চলুন এ ই সময়।

মাসাজ: মাথা যন্ত্রণার ঘন ঘন প্রভাব এড়াতে ফিটনেস এক্সপার্টদের সঙ্গে পরামর্শ করুন। মাথা যন্ত্রণা কমার কিছু মাসাজ আছে। ঘাড়ের ব্যায়াম, প্রাণায়ম এ সব থেকেও অনেক রকম মাথা যন্ত্রণা কমে।

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

লাইফস্টাইল খবর