channel 24

সর্বশেষ

  • পত্রিকার সম্পাদকদের সঙ্গে ঐক্যফ্রন্টের বৈঠক

  • পাকিস্তান সফরে যাচ্ছে না বাংলাদেশ হকি দল

  • বাংলা চলচ্চিত্রের উজ্জ্বল নক্ষত্র পরিচালক সুভাষ দত্ত

  • বলিউডে মুক্তি পেল যেসব ছবি

  • ভাষা আন্দোলন নিয়ে তৌকিরের পরিচালনায় নির্মিত হচ্ছে 'ফাগুন হাওয়ায়'

  • কোপা আমেরিকায় মেসির খেলা নিয়ে অনিশ্চিয়তা

  • উয়েফা নেশন্স লিগে মাঠে নামছে ইউরোপের দেশগুলো

  • চট্টগ্রামে অনুশীলনে ওয়েস্ট ইন্ডিজ

  • ক্যারিবিয়দের বিপক্ষে সিরিজে সাকিব-তামিমের জন্য অপেক্ষায় টিম ম্যানেজমেন্ট

  • চট্টগ্রামে চলছে চাকরি মেলা

  • নরসিংদীর বাঁশগাড়িতে আ.লীগের দুপক্ষের সংঘর্ষে এক শিক্ষার্থীর মৃত্যু

  • নির্বাচনি ইশতেহারে স্বাস্থ্য খাতকে সর্বোচ্চ গুরুত্ব দেয়ার আহবান

  • রাইড শেয়ারিং অ্যাপ উবারের ১০৭ কোটি ডলার লোকসান

  • মূলার বাম্পার ফলনের পরও লোকসানে লালমনিরহাটের চাষীরা

  • ইতিহাসের সাক্ষী হবার অপেক্ষায় নোয়াখালী শহীদ ভুলু স্টেডিয়াম

কার্পেটের ব্যবহার ও যত্ন

কার্পেটের ব্যবহার ও যত্ন

কার্পেট হল মেঝের আচ্ছাদন। ঘর সাজাতে বর্ণিল নকশার কার্পেটের জুড়ি নেই। বর্ষা বা গরমকালে দরকার না হলেও শীতে ঠান্ডা মেঝে ঢেকে রাখতে কার্পেটের তুলনা হয় না।

সামনে শীতের সময়। হালকা হালকা ঠান্ডা পড়তে শুরু করে দিয়েছে। খালি পায়ে মেঝেতে না হেঁটে একটা হাওয়াই চটি পড়ে থাকলে আরাম হয়। মার্বেলের মেঝে হলে তো শীতকালে কথাই নেই।

সুতরাং শীতের ঘরের মেঝেতে কার্পেট বিছিয়ে দেওয়া যেতে পারে। মেঝেতে কার্পেট দিলে ঘরে বেশ কিছুটা গরম অনুভুত হয়। মেঝের ঠান্ডা সরাসরি পায়ে লাগে না। কার্পেট থাকলে সব সময় ঘরে স্লিপার পরেও থাকার দরকার নেই। সোফায় আরামে বসে আছেন, কিন্তু মেঝেতে পা রাখতে পারছেন না মেঝের ঠান্ডার জন্য, কার্পেট থাকলে তেমনটা হওয়ার কথা নয়। ড্রইং রুমে যখন কার্পেট পাতবেন, কার্পেটটা যেন এমন ভাবে পাতা থাকে, যাতে সোফায় বসে পা কার্পেটের উপরে থাকে। পুরো ঘরে না পাতলেও চলবে।

শোওয়ার ঘরে কার্পেট পাতার জায়গা প্রায় থাকে না বললেই চলে। তবুও খাট থেকে নামার পর যেখানে পা  রাখবেন,সেখানকার মেঝেতে ছোট একটা কার্পেট পেতে রাখবেন, যাতে মেঝের ঠান্ডাটা সরাসরি পায়ে না লাগে।

তবে কার্পেট ব্যবহারের ক্ষেত্রে কিছু কথা মনে রাখবেন। বাথরুমে কিংবা রান্নাঘরের আশপাশে, মানে ভিজে পায়ে বেড়িয়েই পা দিতে হয়, এমন জায়গায় কার্পেট রাখবেন না একেবেরেই। পুরো ঘরটা জুড়ে ওয়াল টু ওয়াল কার্পেট বাড়িতে না লাগানোই ভাল। কারণ ফিক্সড কার্পেট হলে বার বার সরিয়ে ধুলো পরিস্কার করা নিতান্তই সমস্যার। ভ্যাকিউম ক্লিনারটা নিয়মিত ব্যাবহার করবেন কার্পাটের ভিতরে জমে থাকা নোংরা পরিস্কার করতে।

কার্পেটে ধুলো জমা একটা সমস্যা। বাড়ির কারও যদি শ্বাসকষ্টজনিত সমস্যা থাকে, তা হলে কার্পেটের ধুলোয় সমস্যা হতে পারে। আর শীতের সময় তো এ ধরনের সমস্যা একটু বেশিই হয়। তাই শ্বাসকষ্টজনিত সমস্যা থাকলে কার্পেটের ব্যবহার না করাই ভাল। করলেও নিয়মিত কার্পেট পরিস্কার রাখবেন।

আজকের দিনে খুব বড় কিংবা ওয়াল টু ওয়াল মাপের কার্পেট একটু পুরনো ধারণা। তার চেয়ে কার্পেট ব্যবহার করলে ছোট ছোট মাপের কার্পেট বিশেষ কিছু জায়গায় ব্যবহার করাই ভাল।

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

লাইফস্টাইল খবর