channel 24

সর্বশেষ

  • বগুড়া ৬ আসনের উপ নির্বাচনে ৩ প্রার্থীর মনোয়নপত্র বাতিল

  • কাঁচা চা পাতার ন্যায্যমূল্যের দাবিতে পঞ্চগড়ে মানববন্ধন

  • মালিবাগে পুলিশের গাড়িতে বিস্ফোরণের ঘটনায় আইএসের দায় স্বীকার

  • খবরের ফেরিওয়ালা ঝুমু রানী দাস

  • মানবতাবিরোধী অপরাধ: জাপার সাবেক এমপিসহ ৮ জনের বিচার শুরু

  • চট্টগ্রামকে বাণিজ্যিক রাজধানী করতে প্রয়োজন বাস্তবসম্মত পরিকল্পনা

  • বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে ছাত্রলীগের পূর্ণাঙ্গ কমিটির শ্রদ্ধা

  • বিশ্ববাজারে অপরিশোধিত জ্বালানি তেলের দাম কমতির দিকে

  • নিজ সংসদীয় আসন বারানসি সফরে গেছেন মোদি

  • পোশাক শ্রমিকদের ৩০ মে বোনাস, ২ জুনের মধ্যে বেতন দেওয়া হবে

  • ডিএসইতে লেনদেন বাড়লেও কমেছে সিএসইতে

  • চট্টগ্রামে খাদ্যে রাসায়নিক সন্ত্রাস বিষয়ে সেমিনার অনুষ্ঠিত

  • বাংলাদেশ ফেরত প্রবাসীদের পুনর্বাসনের দাবী

  • যুক্তরাষ্ট্রে টর্নেডোর আঘাতে ৬ জনের প্রাণহানি

  • কাজের মাধ্যমে জণগণের আস্থা অর্জনের আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর

বালাকোটে বিমান হামলায় কোন পাকিস্তানি মারা যায় নি: সুষমা স্বরাজ

বালাকোটে বিমান হামলায় কোন পাকিস্তানি মারা যায় নি: সুষমা স্বরাজ

ফেব্রুয়ারিতে পাকিস্তানের বালাকোটে বিমান হামলায় কোন পাকিস্তানি সেনা বা বেসামরিক নাগরিক নিহত হয়নি। বৃহস্পতিবার বিজেপির মহিলা কর্মী সভায় এই তথ্য জানান ভারতের পররাষ্ট্র মন্ত্রী সুষমা স্বরাজ।

ভারতের পররাষ্ট্র মন্ত্রী বলেন, সন্ত্রাসী সংগঠন জইশ ই মোহাম্মদের ঘাঁটিতে বিমান হামলা চালানোর নির্দেশনা দেয়া হয়েছিলো সশস্র বাহিনীকে। এই সন্ত্রাসী সংগঠন ভারতের পুলওয়ামায় হামলা চালিয়ে  ৪০ জন সিআরপিএফকে  হত্যা করে। তিনি বলেন, সশস্ত্র বাহিনীকে দুটি নির্দেশনা দেয়া হয়েছিলো।

এর একটি ছিলো, যেন কোন বেসমারিক জনগণ নিহত না হন এবং আর দ্বিতীয়টি হলো পাকিস্তান সেনাবাহিনীর কোন সদস্যের শরীরে আঁচ না লাগে।

তিনি আরো বলেন, সশস্ত্র বাহিনী সেই কাজটিই করেছে। তারা সন্ত্রাসী সংগঠনটির ক্যাম্প ধ্বংস করে ফিরে এসেছে। আর আমরা আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়কে বলেছি, এই বিমান হামলা ছিলো আত্মরক্ষার। এর এই হামলা সমর্থন করেছে আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়।

যদিও হামলার পর থেকেই ভারত সরকারের পক্ষ থেকে বলা হয়েছিলো ৩০০ সন্ত্রাসী নিহত হয়েছে। তবে পাকিস্তান ভারতের এই দাবি বরাবরই অস্বীকার করেছে।

গেলো ১৪ ফেব্রুয়ারি ভারতের পুলওয়ামায় সন্ত্রাসী হামলায় ৪০ জন সিআরপিএফ সদস্য নিহত হন। ভারতের পক্ষ থেকে বলা হয়, এই হামলার পেছনে পাকিস্তান ভিত্তিক সন্ত্রাসী সংগঠন জইশ-ই-মোহাম্মদ দায়ী।

এর প্রেক্ষিতে ২৬ ফেব্রুয়ারি ভারতের সশস্র বাহিনী পাকিস্তানের বালাকোটে বিমান হামলা চালায়।

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

আন্তর্জাতিক খবর