channel 24

সর্বশেষ

  • লিবিয়ায় নিহতদের স্বজনরা মুক্তিপণের টাকা হাজী কামালকে দিয়েছিলেন

  • হিলি রেলপথ দিয়ে ভারত থেকে দ্বিতীয় দফায় পেঁয়াজ আমদানি হয়েছে

  • না ফেরার দেশে চলে গেলেন প্রধানমন্ত্রীর উপ-প্রেস সচিব আশরাফুল আলমের বাবা

  • লেনদেন বাড়লেও দুই স্টক এক্সচেঞ্জে বড় দরপতন

  • ২৬ বাংলাদেশি হত্যাকাণ্ডের বিষয়ে কঠোর নিন্দা জানিয়েছে লিবিয়ার সরকার

  • 'আমেরিকায় বর্ণবৈষম্য করোনা ভাইরাসের চাইতেও ভয়ংকর'

  • তামিম ইকবাল ডব্লিউএফপি'র জাতীয় গুডউইল অ্যামবাসাডর হিসেবে নিযুক্ত

  • গর্ভবতী মায়েদের অগ্রাধিকার ভিত্তিতে করোনা পরীক্ষার নির্দেশ হাইকোর্টের

  • সরকারি অফিসে ২৫ শতাংশের বেশি উপস্থিত থাকতে পারবেন না

  • সংক্রমণ ঠেকাতে সারা দেশকে রেড, ইয়োলো ও গ্রিন জোনে ভাগ করা হবে

  • অনিশ্চয়তায় চ্যাম্পিয়ন্স লিগের বাকী অংশ

  • ১১ জুন শুরু হচ্ছে লা লিগা

  • রোনালদোর কাছে বিশ্বের সেরা লিওনেল মেসি

  • কৃষ্ণাঙ্গ হত্যায় যুক্তরাষ্ট্রে থামছেই না সহিংস বিক্ষোভ, ছড়িয়ে পড়ছে গোটা দেশে

  • বিমানে ঢাকা-কলকাতা-মুম্বাই-দুবাই-বেনগাজি রুটে লিবিয়ায় নেয় চক্রটি

বাংলা চলচ্চিত্রের মুকুটহীন সম্রাট আনোয়ার হোসেন

বাংলা চলচ্চিত্রের মুকুটহীন সম্রাট আনোয়ার হোসেন

বাংলা চলচ্চিত্রের মুকুটহীন সম্রাট। পাঁচ দশকেরও বেশি সময়ের ক্যারিয়ারে পাঁচ শতাধিক ছবিতে অভিনয় করে তিনি মুগ্ধ করে গেছেন প্রজন্মের পর প্রজন্ম। তিনি হলেন বাংলা চলচ্চিত্রের গুণী অভিনেতা আনোয়ার হোসেন। ১৩ সেপ্টেম্বর এই কিংবদন্তী অভিনেতার ছিল ষষ্ঠ মৃত্যুবার্ষিকী। তার প্রতি রইলো শ্রদ্ধা।

কখনো তিনি লাঠিয়াল আবার কখনো অরুণোদয়ের অগ্নিসাক্ষীর মহা তারকা। পাঁচ দশকের ক্যারিয়ার অভিনয়ও করেছেন পাঁচ শতাধিক চলচ্চিত্রে। সেলুলয়েডে স্বমহিমায় উজ্জ্বল এই অভিনেতা আনোয়ার হোসেন। যিনি ঢাকাই সিনেমায় মুকুটহীন বাংলার নবাব।

সাদাকালো থেকে রঙিনের ছোঁয়া লাগা বাংলা সিনেমার অন্যতম এই সাক্ষীর অভিনয়ে হাতেখড়ি শৈশবে। তবে চলচ্চিত্রে তার অভিষেক ১৯৫৮ সালে তোমার আমার সিনেমায়। প্রথম ছবিতে তাকে খল ভূমিকায় দেখা গেলেও পরে তিনি পরিচিত পান চরিত্রাভিনেতা হিসেবে।

পর্দায় বলিষ্ঠ উপস্থিতির কারণে তিনি হয়ে ওঠেন ঢাকাই চলচ্চিত্রের মকুটহীন সম্রাট। দুই দিগন্ত, সূর্যস্নান, লাঠিয়াল, গোলাপী এখন ট্রেনে, জীবন থেকে নেয়া আর নবাব সিরাজউদ্দৌলার মতো ছবিতে অনবদ্য অভিনয় করে বাংলা চলচ্চিত্রকে করেছেন সমৃদ্ধ। আর কাজের স্বীকৃতি হিসেবে পেয়েছেন একাধিক জাতীয় পুরষ্কারসহ নানা সম্মাননা।

২০১৩ সালের ১৩ সেপ্টেম্বর আনোয়ার হোসেনের মৃত্যুর মধ্য দিয়ে সমাপ্তি ঘটে বাংলা চলচ্চিত্রের এক উজ্জ্বল অধ্যায়ের।

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

বিনোদন খবর