channel 24

ব্রেকিং নিউজ

  • পদ্মা সেতুর মূল অংশে ৭৩ শতাংশ কাজের অগ্রগতি...

  • নদী শাসন ৫০ ও সার্বিক অগ্রগতি ৬৩ শতাংশ: সেতুমন্ত্রী

  • ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন নিয়ে সাংবাদিকদের...

  • উদ্বেগের বিষয়গুলো নিয়ে কাজ করছে সরকার: তথ্যমন্ত্রী

  • হাতিরঝিল থানার নাশকতা মামলায় মির্জা ফখরুলসহ বিএনপির...

  • শীর্ষ ৫ নেতার জামিনের বিরুদ্ধে আপিল শুনানি বৃহস্পতি

  • তিন সন্তানের জননীকে গণধর্ষনের বিচার দাবিতে...

  • নোয়াখালীর কবিরহাটে হাজারো মানুষের মানববন্ধন

  • সৌদি থেকে দেশে ফিরছেন আরও ৮০ নির্যাতিতা নারী

  • হাতিরঝিল থানার নাশকতা মামলায় মির্জা ফখরুলসহ বিএনপির...

ক্ষণজন্মা কবি রুদ্র মুহম্মদ শহীদুল্লাহ

 ক্ষণজন্মা কবি রুদ্র মুহম্মদ শহীদুল্লাহ

রুদ্র মুহম্মদ শহীদুল্লাহ; যিনি ছিলেন বাংলা সাহিত্যের অতি আধুনিক কালের সবচেয়ে ক্ষনজন্মা কবি। দ্রোহ কিংবা প্রেম-সবখানেই তারুণ্য ও সংগ্রামের দীপ্ত প্রতীক তিনি।

মুক্তিযুদ্ধ, সাম্প্রদায়িক আগ্রাসন কিংবা স্বৈরাচার বিরোধী আন্দোলনে প্রেরণা তার কবিতা। ভালোবাসার এমন রুদ্র-রক্তের টানে লেখালেখির শুরুটা ১৯৭৯ সালে উপদ্রুত উপকূল কাব্যগ্রন্থ দিয়ে। এরপর এক এক করে কবিতার সমান্তরালে ছুটেছেন গানে। ৩৪ বছরের জীবনের তার অর্জন রীতিমত বিস্ময় জাগানিয়া। রুদ্রের অপ্রকাশিত বেশ কিছু গান ও চিঠি নিয়ে কাজ করছেন ছোট ভাই হিমেল বরকত। রুদ্রর ৬২তম জন্মতিথিতে হিমেল বরকত জানিয়েছেন, বড় ভাই হিসেবে খুব একটা কাছে না পেলেও রুদ্র যেনো জড়িয়ে আছেন তার হৃদয় অন্দরে। দীর্ঘদিনের প্রেম থেকে ৮১ সালে তসলিমা নাসরিনকে বিয়ে করেন রুদ্র। দাম্পত্য জীবন টিকেছিল প্রায় সাত বছর। অবশ্য ৯১ সালে রুদ্রর মৃত্যুর পর তসলিমার চিঠি নিয়ে দেশজুড়ে বিতর্কের জন্ম হয়। যদিও পরিবারের দাবি, তাঁর কবিতায় কিংবা গানে; পাঠককুলে রুদ্র রয়েছেন বিতর্কের উর্ধ্বে। ভালোবাসার সেই ডালপালায় রুদ্র রয়ে যাবেন চিরসবুজ।

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

বিনোদন খবর